ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৬ মাঘ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

দ. কোরিয়াকে বিধ্বস্ত করে শেষ আটে ব্রাজিল

রুমেল খান

প্রকাশিত: ০৩:৫০, ৬ ডিসেম্বর ২০২২

দ. কোরিয়াকে বিধ্বস্ত করে শেষ আটে ব্রাজিল

স্বদেশী রোনাল্ডোর রেকর্ড ছুঁয়ে জয়লাভের পর সতীর্থের কাঁধে চড়ে নেইমারের উল্লাস

কেউ কেউ আশঙ্কা করেছিলেন-যদি প্রতিপক্ষের কাছে হেরে যায় তারা! কিন্তু হেরে যাওয়া তো দূরে থাক বরং প্রতিপক্ষ দক্ষিণ কোরিয়াকে দাপটের সঙ্গেই একেবারে দুমড়ে-মুচড়ে দিয়েছে পাঁচবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ব্রাজিল। মঙ্গলবার রাতে দ্বিতীয় রাউন্ডের ছয় নম্বর ম্যাচে তারা এশিয়ার দেশ দক্ষিণ কোরিয়াকে বিধ্বস্ত করে ৪-১ গোলে। দোহার স্টেডিয়াম ৯৭৪-এ অনুষ্ঠিত এই একপেশে লড়াইয়ে বিজয়ী দল প্রথমার্ধে এগিয়েছিল ৪-০ গোলে।

এই জয়ে এক নম্বর ফিফা র‌্যাংকিংধারী ও ‘দ্য লিটিল ক্যানারি’ খ্যাত ব্রাজিল চলমান কাতার বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনাল খেলা নিশ্চিত করল। শেষ আটে তারা আগামী ৯ ডিসেম্বর মোকাবিলা করবে ২০১৮ বিশ্বকাপের রানার্সআপধারী ক্রোয়েশিয়াকে, যারা মঙ্গলবার রাতে আগের ম্যাচে আরেক এশিয়ান দেশ জাপানকে টাইব্রেকারে হারায়।
২০০২ সালের বিশ্বকাপে সেমিফাইনাল খেলেছিল কোরিয়া। এরপর তারা ২০১০ আসর ছাড়া আর শেষ  ষোলতে যেতে পারেনি। ২০২২ আসরে তার পুনরাবৃত্তি করার পাশাপাশি আশা করেছিল ২০ বছর আগের মতো আবারো শেষ আটে যাওয়ার। কিন্তু ব্রাজিলের কাছে নাস্তানাবুদ হয়ে তাদের সেই আশায় পড়ে গুড়েবালি!
বিশ্বকাপে এবারই প্রথম কোরিয়ার মুখোমুখি হলো ব্রাজিল। এর আগে কখনই এশিয়ান কোন দেশের কাছে হারেনি তারা। মঙ্গলবারের জয়ে সেই রেকর্ড অক্ষুণœই রেখেছে সেলেসারওরা। তবে কোরিয়ার সঙ্গে এ নিয়ে আটবার মখোমুখি হলো ব্রাজিল। ৭ ম্যাচেই জিতেছে তারা। এক ম্যচে জিতেছে কোরিয়া। সর্বশেষ সাক্ষাতে এ বছরের ২ জুন ব্রাজিল জিতেছিল ৫-১ গোলের বড় ব্যবধানে। মঙ্গলবার সেটারই যেন ‘প্রায়’ পুনরাবৃত্তি করল তারা। হারলেও কোরিয়া দুটি গোল করার সুবর্ণ সুযোগ নষ্ট করে ১৬ ও ৪৮ মিনিটে।

মঙ্গলবার ব্রাজিল ৪-২-৩-১ এবং কোরিয়া ৪-৪-২ ফর্মেশনে খেলা শুরু করে। চোট কাটিয়ে ও চুলে রং করিয়ে এই ম্যাচে ফেরেন ব্রাজিলের তারকা ফরোয়ার্ড নেইমার। ফলে দল ছিল উজ্জীবিত। প্রথম ৬ মিনিট পর্যন্ত কোরিয়া ঠেকিয়ে রাখে ব্রাজিলকে। কিন্তু সপ্তম মিনিটেই তাদের রক্ষণদুর্গে ফাটল ধরে। নিয়মিত বিরতিতে গোলবন্যায় মাতে ব্রাজিলিয়ানরা। রাফিনিয়ার পাসে গোল করে ব্রাজিলকে এগিয়ে দেন ভিনিসিয়ুস জুনিয়র (১-০)। ১১ মিনিটে ডি-বক্সের ভেতরে রিচার্লিসনকে ফাউল করেন কোরিয়ার ইয়ং জুং। এতে পেনাল্টির বাঁশি বাজান ফরাসি রেফারি ক্লেমেন্ত তুরপিন।

১৩ মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোল করে দলের দ্বিতীয় এবং এই বিশ্বকাপে নিজের প্রথম গোলটি করেন নেইমার (২-০)। এই গোল করে নেইমার স্বদেশী গ্রেট রোনাল্ডো নাজারিওকে স্পর্শ করেন। ব্রাজিলের জার্সিতে তিন বিশ্বকাপে গোল করার রেকর্ড রয়েছে রোনাল্ডোর (১৯৯৮, ২০০২, ২০০৬)। ২০১৪ ও ২০১৮ আসরের পর এবার ২০২২ আসরেও গোল করে নেইমার ছুঁলেন রোনাল্ডোকে।
২৯ মিনিটে কাসেমিরোর পাস থেকে গোল করেন রিচার্লিসন (৩-০)। চলমান আসরে এটা তার তৃতীয় গোল। ৩৬ মিনিটে ব্যবধান ৪-০ করে ফেলেন লুকাস পাকেতা। এরপর তৃপ্তির ঢেঁকুর তুলেই বিরতিতে যায় ব্রাজিল। ১৯৫৪ সালের (মেক্সিকোর বিপক্ষে, ম্যাচে ব্রাজিল জিতেছিল ৫-০ গোলে) পর এই প্রথম বিশ্বকাপের কোনো ম্যাচের প্রথমার্ধে ৪ গোল করে ব্রাজিল। আর ২০১৪ বিশ্বকাপের পর এমন নজির আর কোনো দল গড়তে পারেনি। সেবার ব্রাজিলের মাটিতে তাদের বিপক্ষে ‘সেভেন-আপ’ খ্যাত সেমিফাইনালে ৪ গোল করেছিল ওই আসরের চ্যাম্পিয়ন জার্মানি।  
বিরতির পর ৭৬ মিনিটে এক গোল শোধ করে কোরিয়া। বক্সের বাইরে থেকে বা পায়ের তীব্র-দুর্দান্ত ভলিশটে ব্রাজিলের জাল কাঁপান পাইক-সেউং-হো (১-৪)। তবে ওই পর্যন্তই। এরপর ব্রাজিলেরও বেশ কিছু গোলপ্রচেষ্টা ব্যর্থ হয়। নইলে ব্যবধান আরও বড় হতো। রেফারি খেলা শেষের বাঁশি বাজালে বিশ্বকাপে টানা অষ্টমবারের মতো কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠার চিত্তসুখ নিয়ে মাঠ ছাড়ে তিতের শিষ্যরা।
জি-গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন (৩ ম্যাচে ৬ পয়েন্ট) হিসেবে শেষ ১৬ তে উঠে আসে ব্রাজিল। তারা সার্বিয়াকে ২-০ গোলে এবং সুইজারল্যান্ডকে ১-০ গোলে হারায়। তবে অপ্রত্যাশিতভাবে ক্যামেরুনের কাছে হেরে যায় ১-০ গোলে। পক্ষান্তরে এইচ-গ্রুপের রানার্সআপ হিসেবে (৩ ম্যাচে ৪ পয়েন্ট) রাউন্ড অব সিক্সটিনে নাম লেখায় ২৮ ফিফা র‌্যাংকিংধারী ও ‘টাইগার্স অব এশিয়া’ খ্যাত কোরিয়া। উরুগুয়ের সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করে। ঘানার কাছে হেরে যায় ৩-২ গোলে। পর্তুগালকে ২-১ গোলে হারিয়ে অঘটন ঘটায়। কিন্তু মঙ্গলবার এবার আর কোনো অঘটন ঘটাতে পারেনি লাতিন আমেরিকার পরাশক্তি ব্রাজিলকে হারিয়ে।

সম্পর্কিত বিষয়:

monarchmart
monarchmart