ঢাকা, বাংলাদেশ   রোববার ২৭ নভেম্বর ২০২২, ১২ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

বিশ্বকাপে সৌরভ ছড়ানোর ইঙ্গিত পর্তুগালের

জাহিদুল আলম জয়

প্রকাশিত: ০২:২৯, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২

বিশ্বকাপে সৌরভ ছড়ানোর ইঙ্গিত পর্তুগালের

উয়েফা নেশন্স কাপে চেক প্রজাতন্ত্রকে উড়িয়ে দিয়ে শুভেচ্ছা বিনিময় করছেন পর্তুগালের ফুটবলাররা

 নবেম্বর-ডিসেম্বরে এশিয়ার দেশ কাতারে বসতে যাচ্ছে বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গনের সবচেয়ে জনপ্রিয় ও আকাক্সিক্ষত আসর বিশ্বকাপ ফুটবল। এই মুহূর্তে বিশ্বকাপের টিকেট পাওয়া দলগুলো নিজেদের ঝালিয়ে নিতে ব্যস্ত। উয়েফা নেশন্স কাপেও ইউরোপের জায়ান্টরা বিশ্বকাপের প্রস্তুতি হিসেবে নিয়েছে। সেখানে দুর্দান্ত পারফর্মেন্স প্রদর্শন করে বিশ্বকাপে সৌরভ ছড়ানোর ইঙ্গিত দিচ্ছে সুপারস্টার ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর দল পর্তুগাল। শনিবার রাতে ‘এ-২’ গ্রুপের ম্যাচে স্বাগতিক চেক প্রজাতন্ত্রকে ৪-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে নেশন্স লীগের প্রথম আসরের চ্যাম্পিয়ন পর্তুগাল। ইউরোপের ব্রাজিল খ্যাত দলটির হয়ে জোড়া গোল করেন দিয়াগো ডালোট। বাকি গোল দুটি করেন ব্রুনো ফার্নান্দেজ ও দিয়াগো জোটা। এই ম্যাচের শুরুর দিকে চেক গোলরক্ষক টমাস ভাক্লিকের সঙ্গে সংঘর্ষে নাকে আঘাত পান পর্তুগীজ অধিনায়ক রোনাল্ডো। এরপর তার নাক দিয়ে রক্ত ঝরতে দেখা যায়। এরপরও সি আর সেভেন পুরো ৯০ মিনিট ম্যাচটি খেলেন। গ্রুপের আরেক ম্যাচে ঘরের মাঠে সফরকারী সুইজারল্যান্ডের কাছে ২-১ গোলে হেরে গেছে স্বাগতিক স্পেন। স্পেনের জারাগোজায় অনুষ্ঠিত ম্যাচে ২১ মিনিটে ম্যানুয়েল আকাঞ্জির গোলে এগিয়ে যায় সুইসরা। বিরতির পর ৫৫ মিনিটে জর্ডি আলবার গোলে সমতা ফেরায় স্প্যানিশরা। কিন্তু তিন মিনিট পরই আরেকটি কর্নার থেকে ব্রিল এমবোলো গোল করে সুইজারল্যান্ডের জয় নিশ্চিত করেন।
এর ফলে সর্বশেষ চার বছরের মধ্যে নিজেদের মাঠে প্রথম হারের তেতো স্বাদ পেয়েছে স্প্যানিশরা। আর সুইজারল্যান্ডের বিরুদ্ধে ১৯ বারের দেখায় এটি দ্বিতীয় হার স্পেনের। প্রথম হার ছিল ২০১০ বিশ্বকাপে তাদের প্রথম ম্যাচে। মজার বিষয় হচ্ছে, দক্ষিণ আফ্রিকায় অনুষ্ঠিত সেই বিশ্বকাপে শেষ পর্যন্ত নিজেদের ইতিহাসের প্রথম বিশ্বকাপ জিতেছিল স্পেন। বর্তমানে ‘এ-২’ গ্রুপে পাঁচ ম্যাচ খেলে ১০ পয়েন্ট নিয়ে সবার ওপরে অবস্থান করছে পর্তুগাল। দুইয়ে থাকা স্পেনের পয়েন্ট ৮। গ্রুপের শীর্ষে থেকে চার দলের ফাইনাল রাউন্ডে খেলতে হলে এখন শেষ ম্যাচে পর্তুগীজদের হারানোর বিকল্প নেই স্প্যানিশদের জন্য। কাজটি মোটেও সহজ নয়। আরও কঠিন হবে ভেন্যুর কারণে। কেননা আগামী বুধবার ম্যাচটি হবে পর্তুগালের মাঠে। ম্যাচে রোনাল্ডোর দল হার এড়ালেই শিরোপা নির্ধারণী রাউন্ডে খেলার সুযোগ পাবে।
বিশ্বকাপের আগে পর্তুগাল দলে একের পর এক বেরিয়ে আসছে বিকল্প খেলোয়াড়। দিয়াগো ডালোট এর মধ্যে অন্যতম। আগামীর এই তারকা চেকদের বিরুদ্ধে দুই গোল করে নিজেকে প্রমাণ করেছেন। পর্তুগাল জাতীয় দলের হয়ে এই প্রথমবার গোলের দেখা পেয়েছেন তিনি। ম্যাচের ৩৩ মিনিটে রাফায়েল লিয়াওর এ্যাসিস্টে এই রাইট-ব্যাক নিজেকে সেন্টার ফরোয়ার্ড পজিশনে নিয়ে গিয়ে গোল আদায় করে নেন। এর পরপরই ব্যবধান দ্বিগুণ করার সুযোগ হাতছাড়া করেন রোনাল্ডো। প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ে (৪৫+২) ফার্নান্দেজ ব্যবধান দ্বিগুণ করেন।  
ইনজুরি টাইমের ষষ্ঠ মিনিটে রোনাল্ডোর হ্যান্ডবলে পেনাল্টি আদায় করে নেয় চেক প্রজাতন্ত্র। কিন্তু প্যাট্রিক শিকের স্পট কিক বারের ওপর দিয়ে গেলে হতাশ হতে হয় স্বাগতিকদের। বিরতির পর ৫২ মিনিটে ডালোটের দুর্দান্ত কার্লিং শটে পর্তুগাল ৩-০ গোলের লিড পায়। ৮২ মিনিটে কর্নার থেকে অনেকটাই ফাঁকায় দাঁড়ানো জোটা হেডে পর্তুগালের হয়ে চার নম্বর গোল করেন। ম্যাচ শেষে জোড়া গোল করা ডালোট বলেন, ফলাফলই সব কিছু বলে দিচ্ছে।
আমরা একটি দুর্দান্ত ম্যাচ খেলেছি। এই জয় আমাদের প্রাপ্য ছিল। দেশের হয়ে কিছু করতে পারার অনুভূতিই ভিন্ন।
সুইজারল্যান্ডের বিরুদ্ধে বল দখলের লড়াইয়ে যথারীতি এগিয়ে ছিল স্পেন। ম্যাচের ৭০ শতাংশ সময় বল ছিল তাদের পায়েই। কিন্তু খেলায় ছিল না খুব একটা ধার। খুব বেশি হয়নি কার্যকর আক্রমণ। ছিল না গতি ও সাঁড়াশি আক্রমণ। দেখা যায়নি খুব একটা সৃষ্টিশীলতাও। তরুণ দুই মিডফিল্ডার গাভি ও পেড্রি ছিলেন নিষ্প্রভ। সবমিলিয়ে বড় পরীক্ষায় পড়তে হয়নি সুইস ডিফেন্সকে। এ কারণেই অস্বস্তির হার নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছে স্প্যানিশদের। ম্যাচ শেষে দলটির কোচ লুইস এনরিকে বলেন, আমরা ছিলাম দিশাহীন; ভীষণ এলোমেলো। এই দলকে কোচিং করানোর শুরুর পর থেকে এতটা বাজে খেলতে দেখেছি বলে মনে পড়ে না। দ্রুতই এসব শুধরে নিতে হবে আমাদের। কারণ সামনে প্রতিপক্ষ পর্তুগাল। সেখানে গিয়ে আমাদের জিততেই হবে। বিকল্প কিছুই নেই।

 

monarchmart
monarchmart