ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১

দরিদ্রদের জন্য চিকিৎসাসেবা সহজ করার নির্দেশ দিলেন রাষ্ট্রপতি

​​​​​​​জনকণ্ঠ ডেস্ক

প্রকাশিত: ২৩:৪২, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

দরিদ্রদের জন্য চিকিৎসাসেবা সহজ করার নির্দেশ দিলেন রাষ্ট্রপতি

৪র্থ আন্তর্জাতিক বৈজ্ঞানিক সম্মেলনের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যসেবা ও চিকিৎসাশাস্ত্রে বিশেষ অবদানের জন্য সম্মাননা স্মারক প্রদান

রাষ্ট্রপতি মোহাম্মদ সাহাবুদ্দিন শনিবার রাজধানীর একটি হোটেলেচতুর্থ আন্তর্জাতিক বৈজ্ঞানিক সম্মেলন-২০২৪উদ্বোধনকালে দরিদ্রদের জন্য চিকিৎসা পরিষেবা আরও সহজ করতে চিকিৎসক, নার্স সংশ্লিষ্ট অন্যদের প্রতি নির্দেশ দিয়েছেন। তিনি বলেন, গরিবদের চিকিৎসা সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার দেওয়া উচিত এবং এটি নিশ্চিত করতে হবে যে- তারা (গরিব) যেন চিকিৎসা থেকে বঞ্চিত না হয় বা অর্থের অভাবে অবহেলিত না হয়। খবর বাসসর।

বাংলাদেশ কার্ডিওভাসকুলার রিসার্চ ফাউন্ডেশন এবং ইউএসএ ইন্টারভেনশনাল একাডেমি সম্মেলনের আয়োজন করে। অবৈধ হাসপাতাল-ক্লিনিক বা ভুয়া চিকিৎসকদের দ্বারা কেউ যেন প্রতারিত না হয়- সেজন্য সজাগ দৃষ্টি রাখতে বলেছেন রাষ্ট্রপ্রধান।

তিনি চিকিৎসকদের উদ্দেশে বলেন, দেশের এই বিশাল জনগোষ্ঠীর জন্য মানসম্পন্ন চিকিৎসা সেবা প্রদান করা একটি চ্যালেঞ্জ। কিন্তু সরকার ইতোমধ্যেই উন্নত চিকিৎসা সেবার জন্য পদক্ষেপ নিয়েছে। রোগীদের সঙ্গে সদয় আচরণ করুন এবং রোগীর মর্যাদা গোপনীয়তা রক্ষার জন্য সর্বোচ্চ সাবধানতা অবলম্বন করুন।

রাষ্ট্রপতি চিকিৎসা শিক্ষা, চিকিৎসা, সেবা গবেষণা কার্যক্রমে গতিশীলতা আনয়ন এবং চিকিৎসা ব্যবস্থাপনার উন্নতির প্রশংসা করেন। দেশের জনসংখ্যা অনুপাতে চিকিৎসক নার্সের সংখ্যা অপ্রতুল- উল্লেখ করে সাহাবুদ্দিন দেশের সার্বিক স্বাস্থ্য ব্যবস্থার উন্নয়ন নিশ্চিত করতে সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি খাত চিকিৎসকদের এগিয়ে আসার আহবা জানান। তিনি বলেন, বিশাল জনগোষ্ঠীকে চিকিৎসা সেবা প্রদানে চিকিৎসক নার্সদের আরও আন্তরিক হতে হবে।

চিকিৎসাকে একটি মহ পেশা হিসেবে উল্লেখ করে- সাহাবুদ্দিন বলেন, কিছু কিছু ভুয়া চিকিৎসক চিকিৎসা প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে নেতিবাচক সংবাদ প্রকাশিত হওয়ার কারণে সমগ্র চিকিৎসক সমাজের সততা সুনাম ক্ষুণ্ণ হচ্ছে।

তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, কিছু অসাধু লোক (চিকিৎসক), ভুয়া চিকিৎসক অবৈধ চিকিৎসা কেন্দ্রের কারণে সাধারণ মানুষের মনে যাতে কোনো নেতিবাচক ধারণা সৃষ্টি না হয়- সে ব্যাপারে আপনারা সতর্ক থাকবেন। বাংলাদেশের চিকিৎসকদের প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আস্থার কথা উল্লেখ করে- রাষ্ট্রপতি বলেন, বাংলাদেশে অনেক বিশ্বমানের চিকিৎসক রয়েছেন, যাদের ওপর নির্ভর করা যায়। প্রসঙ্গে রাষ্ট্রপতি বাংলাদেশে বিনামূল্যে কোভিড-১৯ টিকাদান কর্মসূচির সাফল্য তুলে ধরেন- যা সারা বিশ্বে রোল মডেল তৈরি করেছে। এর জন্য তিনি সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জানান। ধরনের আন্তর্জাতিক সম্মেলনের আয়োজনের উদ্যোগের উচ্ছ¡সিত প্রশংসা করে- রাষ্ট্রপতি বলেন, হৃদরোগ বিষয়ে দেশী-বিদেশী বিশিষ্ট হৃদরোগ বিশেষজ্ঞদের অংশগ্রহণ মতবিনিময় সভা চিকিৎসকদের, বিশেষ করে তরুণ চিকিৎসকদের পেশাগত দক্ষতা অভিজ্ঞতা সমৃদ্ধকরণে সহায়ক হবে।

 

×