রবিবার ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮, ১৩ জুন ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

বঙ্গোপসাগরে ফের নিম্নচাপ, ভারি বৃষ্টির সম্ভাবনা

  • বর্ষা মৌসুম শুরু হচ্ছে

বিশেষ প্রতিনিধি ॥ ‘ইয়াস’-এর রেশ কাটতে না কাটতেই বঙ্গোপসাগরে ফের সৃষ্টি হচ্ছে নিম্নচাপ। আজ শুক্রবার উত্তর বঙ্গোপসাগরের ওপর তৈরি হবে এই নিম্নচাপ। নিম্নচাপের হাত ধরেই দেশে প্রবেশ করতে চলেছে বর্ষা।

পশ্চিমবঙ্গের আলিপুর আবহাওয়া দফতর বলছে, ‘১১ জুন নিম্নচাপ তৈরি হচ্ছে। ফলে দু’একদিনের মধ্যেই চলে আসবে বর্ষা’। এ বছর এই অঞ্চলে বর্ষা আসার স্বাভাবিক সময় ১০ জুন। ঢাকার আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, আগামী তিন দিনের মধ্যে লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে। আগামী দিনগুলোতে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা আরও বাড়তে পারে।

উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’ গত ২৬ মে দুপুর ১২টা থেকে তিনটার মধ্যে ভারতের ডামরার উত্তর এবং বালাশোরের দক্ষিণ দিক দিয়ে ভারতের উত্তর ওড়িশা-পশ্চিমবঙ্গ উপক‚ল অতিক্রম করে। এই ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে ঝড়ো হওয়া বয়ে যায় বাংলাদেশের উপক‚লীয় এলাকায়ও, দেখা দেয় জলোচ্ছ¡াস।

মূলত লঘুচাপ ক্রমে শক্তি সঞ্চয় করে করে সুস্পষ্ট লঘুচাপ, নিম্নচাপ, গভীর নিম্নচাপ ও শেষে ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নেয়।

আবহাওয়াবিদ আব্দুর রহমান খান বৃহস্পতিবার জানান, পরবর্তী ৭২ ঘণ্টায় উত্তর বঙ্গোপসাগরে একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে। এতে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা বৃদ্ধি পেতে পারে।

সামনের দিনগুলোতে বৃষ্টির পরিমাণ কেবল বাড়ার পালা বলে জানালেন আবহাওয়াবিদ ওমর ফারুক। তিনি বলেন, ‘এবার আমরা স্বাভাবিক বৃষ্টিপাতের আশা করছি। সেটি গড়ে ৪৩৫ মিলিমিটার পর্যন্ত হতে পারে। এখন থেকে প্রতিদিন বৃষ্টির পরিমাণ বাড়তে পারে। সেই সঙ্গে থাকবে দমকা হাওয়া ও বজ্রপাত। এটি বর্ষাকালের স্বাভাবিক বিষয়।’

ইন্ডিয়া মেটেরোলজিক্যাল ডিপার্টমেন্টের তরফেও জানানো হয়েছে, এ বছর স্বাভাবিক বর্ষাই হবে। জুন থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত স্থায়ী হয় বর্ষা। এই সময়কালে স্বাভাবিক হবে বর্ষা। জানা যাচ্ছে, এই নিয়ে টানা তিন বছর স্বাভাবিক হতে চলেছে বর্ষা। এটা সকলের জন্য ভাল খবর। চলতি বছরে জুন থেকে সেপ্টেম্বরে ৯৮ শতাংশ বৃষ্টি হতে পারে।

কাগজে-কলমে বর্ষাকাল আসার আগেই দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ু দেশে প্রবেশ করে। ফলে শুরু হয়ে যায় প্রাক-বর্ষা। এ বছরও তাই ঘটেছে। গত ৭ জুন দেশে মৌসুমি বায়ু প্রবেশ করেছে। ফলে গত কয়েক দিন ধরেই প্রকৃতিতে বর্ষার আমেজ বিরাজ করছে। প্রাক-বার্ষার আমেজে বৃষ্টিপাত হচ্ছে দেশে।

দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ু চট্টগ্রাম, বরিশাল, ঢাকা, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগ পর্যন্ত অগ্রসর হয়েছে। দেশের অবশিষ্টাংশে মৌসুমি বায়ু আরও অগ্রসর হওয়ার জন্য আবহাওয়াগত পরিস্থিতি অনুক‚লে রয়েছে। মৌসুমি বায়ু দেশের পূর্বাঞ্চলের ওপর মোটামুটি সক্রিয় এবং উত্তর-পূর্ব বঙ্গোপসাগরে এটি মাঝারি অবস্থায় বিরাজ করছে।

আবহাওয়া অফিস বলছে, সারাদেশে এখনও পুরোপুরি না থাকলেও রাজধানী ঢেকে গেছে মৌসুমি বায়ুতে। ফলে ঢাকায় বৃষ্টির পরিমাণ আরও বাড়তে থাকবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর। বুধবার ভোর থেকেই ঢাকার আকাশ মেঘে ঢেকে যায়। কোথাও কোথাও থেমে থেমে বৃষ্টি হচ্ছে। মৌসুমি বায়ুর প্রভাবে এই ধারা ধীরে ধীরে আরও বাড়বে বলে জানালেন আবহাওয়া অধিদফতরের আবহাওয়াবিদ ওমর ফারুক। তিনি বলেন, দেশের তিনটি বিভাগে এখনও মৌসুমি বায়ুর প্রভাব পড়েনি। সেগুলো হলো খুলনা, বরিশাল ও রংপুর। তবে রাজধানীতে এখন মৌসুমি বায়ু বিরাজ করছে। ফলে দিনে ও রাতে বৃষ্টি হবে। দুই দিন পর বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বাড়বে।

কয়েক দিন ধরেই রাজধানীতে বৃষ্টির দেখা মিলেছে। সঙ্গে রয়েছে দমকা হাওয়া ও বজ্রপাত। ওই বৃষ্টি পুবালি ও পশ্চিমা বায়ুর সংমিশ্রণে হয়েছিল। তখনও মৌসুমি বায়ু রাজধানীর আকাশে প্রবেশ করেনি। আবহাওয়া অধিদফতর থেকে বলা হয়েছিল ৮ জুনের পর নগরে এই বায়ুর প্রবেশ হবে। আস্তে আস্তে তা সারাদেশে ছড়িয়ে পড়বে।

গত সপ্তাহে বছরের সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত দেখে রাজধানীবাসী। ৮৫ মিলিমিটার বৃষ্টিতে ডুবে যায় নগরের অনেক এলাকা। ভোগান্তিতে পড়ে মানুষ। এরপর থেকে বৃষ্টির পরিমাণ বেড়েই চলছে। গত শনিবার ১১১ মিলিমিটার বৃষ্টি হয় ঢাকায়।

বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের অনেক জায়গায় এবং রাজশাহী, রংপুর, ঢাকা, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হাল্কা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেইসঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারি থেকে ভারি বৃষ্টি হতে পারে।

এ সময়ে সারাদেশে দিন এবং রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া বিভাগ। আবহাওয়া অধিদফতরের তথ্য অনুযায়ী, বুধবার সকাল ৬টা থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৬টা পর্যন্ত সব বিভাগেই কমবেশি বৃষ্টি হয়েছে। এ সময়ে সবচেয়ে বেশি বৃষ্টি হয়েছে নেত্রকোনায়, সেখানে ৫৬ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। ঢাকায় ২৩ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। বুধবার (৯ জুন) দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল রাজশাহীতে ৩৫ দশমিক ৩ ডিগ্রী সেলসিয়াস।

শীর্ষ সংবাদ:
বিদেশী গরু নয় ॥ দেশী গরুতেই এবার কোরবানি         প্রার্থী মনোনয়নে শেখ হাসিনার চমক         বিতর্কের আরেক নাম সাকিব         বঙ্গোপসাগর উত্তাল, ৩ নম্বর সতর্কতা সঙ্কেত         বজ্রপাতে মৃত্যু ঠেকাতে সরকারের নতুন পরিকল্পনা         তিস্তার সেচে ৮০০ কোটি টাকার বোরো ধান উৎপাদন         দেশে করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত কমেছে         ব্রিটিশ রানীর জন্মদিনে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা         পুলিশ এখনও কোন রহস্য ভেদ করতে পারেনি         উপকূলীয় বাঁধ নির্মাণে ১৫ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ দাবি         নারী ও শিশু পাচার রোধে কার্যক্রম জোরদারে গুরুত্ব         গ্রুপিং বাদ দিয়ে আগে নিজেদের ঐক্যবদ্ধ হতে হবে ॥ ফখরুল         চট্টগ্রাম কাস্টমস হাউসে রাজস্ব আয়ের লক্ষ্য অর্জিত হচ্ছে না         কোম্পানীগঞ্জে সড়ক অবরোধ ॥ পুলিশের ওপর হামলা         করোনা : বাংলাদেশিদের হজে যেতে নিষেধাজ্ঞা         স্বাস্থ্য খাতের দুর্নীতি টিআইবি’র মনগড়া প্রতিবেদন : স্বাস্থ্যমন্ত্রী         করোনা : দেশে গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু ৩৯         ৩ ম্যাচ নিষিদ্ধ সাকিব, জরিমানা ৫ লাখ         ‘নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ টেকসই উন্নয়ন নিশ্চিত করবে’         নাফ নদী থেকে অজ্ঞাত তিন লাশ উদ্ধার