ঢাকা, বাংলাদেশ   সোমবার ০৩ অক্টোবর ২০২২, ১৮ আশ্বিন ১৪২৯

ঘাতক পুত্রকে পুলিশে দিয়েছে জনতা

নেশার টাকা না পেয়ে বাবা-মাকে জবাই করে হত্যা

প্রকাশিত: ১০:৫৬, ২৬ ডিসেম্বর ২০১৯

নেশার টাকা না পেয়ে বাবা-মাকে জবাই করে হত্যা

স্টাফ রিপোর্টার, যশোর অফিস ॥ যশোরের চৌগাছায় নেশার টাকা না পেয়ে বাবা মহিরউদ্দিন (৬৫) ও মা আয়না বেগমকে (৫৫) কুপিয়ে ও জবাই করে হত্যা করেছে মিলন হোসেন (২৫) নামে এক মাদকাসক্ত যুবক। মহিরউদ্দিন উপজেলার সুখপুকুরিয়া ইউনিয়নের রামকৃষ্ণপুর গ্রামের মৃত তোয়াক্কেল হোসেনের পুত্র। এ ঘটনায় স্থানীয়রা মিলনকে দৌড়ে রাজাপুর-বর্ণি মাঠের মধ্য থেকে আটক করে পুলিশে দিয়েছে। বুধবার বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে গ্রামের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। দুপুর একটার দিকে হত্যাকারী মিলনকে জনতা আটক করে পুলিশে দেয়। স্থানীয়রা জানান, নিহতদের বাড়ি গ্রামের অন্যবাড়িগুলো থেকে একটু দূরে এবং ফাঁকা জায়গায় অবস্থিত। বুধবার বেলা ১১ টার দিকে বাড়ি থেকে চিৎকারের শব্দ পেয়ে স্থানীয়রা বাড়িতে গিয়ে মহিরউদ্দিন ও আয়না বেগমকে বাড়ির উঠানে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে। একই সময়ে তাদের বড় ছেলে মিলনকে পালিয়ে যেতে দেখে স্থানীয়রা তার পিছু নেয়। পরে দুপুর একটার দিকে গ্রাম থেকে তিন/চার কিলোমিটার দূরের একটি মাঠের মধ্য থেকে আটক করে পুলিশে দিয়েছে। স্থানীয় ইউপি সদস্য বাবুল হোসেন বলেন, মোবাইলে সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে দেখি দুজনের ক্ষতবিক্ষত রক্তাক্ত লাশ পড়ে আছে। তাদের ছেলে মিলনই হত্যা করে পালিয়ে যাওয়ার পথে গ্রামবাসীর হাতে আটক হয়। মিলন আগে থেকেই মাদকাসক্ত। প্রায়ই নেশার টাকার জন্য বাবা-মাকে মারধর করত। ছেলেটির একমাত্র ছোটভাই লেখাপড়ার জন্য বাড়ির বাইরে থাকার সুযোগে সে এভাবে বাবা-মাকে হত্যা করে পালিয়ে গেছে। তিনি আরও বলেন, মিলন বছরপাঁচেক আগে গ্রামের খাইরুল নামে এক ব্যক্তিকে একাই কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা চালায়। ওই মামলার আসামি হিসেবে জেলও খেটেছে। চৌগাছা থানার ওসি রিফাত খান রাজীব হত্যাকা-ের বিষয়টি নিশ্চত করেছেন। পুলিশের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।