ঢাকা, বাংলাদেশ   রোববার ২৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১৬ মাঘ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

ভারতীয় ক্রিকেটে কোচ চাই, বিজ্ঞাপন দিল বোর্ড

প্রকাশিত: ১৯:৩২, ২৬ মে ২০১৭

ভারতীয় ক্রিকেটে কোচ চাই, বিজ্ঞাপন দিল বোর্ড

অনলাইন ডেস্ক ॥ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে অভিযান শুরুই হল না। সবে সচিন তেন্ডুলকরের ফিল্ম দেখে রাতের বিমান ধরে বৃহস্পতিবারে লন্ডনে নামলেন বিরাট কোহালি-রা। আর সঙ্গে সঙ্গে নতুন বিতর্ক তাড়া করতে শুরু করে দিল তাঁদের। সেই বিতর্কের কেন্দ্রে কোহালিদের কোচ অনিল কুম্বলে। বৃহস্পতিবারেই ভারতীয় বোর্ড বিজ্ঞপ্তি দিয়ে দিল যে, নতুন হেড কোচের জন্য আবেদনপত্র চাওয়া হচ্ছে। কুম্বলের চুক্তি শেষ হয়ে যাচ্ছে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির পরেই। নতুন কোচ নির্বাচন করতে হবে তার পর। হেড কোচের জন্য বিজ্ঞপ্তির ঘটনা জানাজানি হওয়ার পরেই নানা প্রশ্ন উঠতে শুরু করে দেয়। কারও কারও মনে হচ্ছে, কুম্বলের প্রতি বার্তাই দিয়ে রাখা হল কি না যে, তুমি আর একমাত্র বা অবধারিত পছন্দ নও। প্রশ্ন উঠে গিয়েছে, কেনই বা কুম্বলেকে মাত্র এক বছরের মধ্যে বহিষ্কারের কথা ভাবতে যাবে বোর্ড? বিশেষ করে যখন তাঁর অধীনে মোটেও খারাপ খেলেনি কোহালির দল। বিদেশে একমাত্র সিরিজ হয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজে বলে পুরোপুরি পরীক্ষা এখনও হয়নি কুম্বলের। কিন্তু দেশের মাটিতে পর পর নিউজিল্যান্ড, ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সিরিজ জিতে কোহালির ভারত টেস্টের এক নম্বর দল হয়েছে। কিন্তু বোর্ড সূত্রে খবর, কুম্বলের পারফরম্যান্সের চেয়েও তাঁর ‘বৈপ্লবিক’ ভঙ্গি খুব একটা প্রসন্ন করছে না কর্তাদের। ক্রিকেটারদের টাকা বাড়ানো নিয়ে বোর্ডের সঙ্গে অনেক দিন ধরে সওয়াল-তক্কো চলছে। কারও কারও মতে, সেই তক্কে ‘ইউনিয়ন লিডার’-এর মতো ভূমিকা নিয়েছেন কুম্বলে। তাঁর সেই আচরণে বোর্ড কর্তারা খুব সন্তুষ্ট হননি বলেই ইঙ্গিত। যদিও কুম্বলের ভবিষ্যৎ পুরোপুরি এই সব বিরূপ কর্তাদের হাতে রয়েছে, তা-ও বলা যাবে না। বোর্ডে এখন পরিষ্কার বিভাজন তৈরি হয়ে গিয়েছে। একদিকে, সুপ্রিম কোর্ট নিযুক্ত পর্যবেক্ষকের দল রয়েছে। অন্যদিকে রয়েছেন পদাধিকারীরা। কারা যে সিদ্ধান্ত নেওয়ার মালিক, তা নিয়েই চূড়ান্ত বিভ্রান্তি। কুম্বলে নিয়েও দু’পক্ষ দুই মেরুতে। কুম্বলের জন্য ভাল খবর হল, ক্রিকেট অ্যাডভাইসরি কমিটিই নতুন কোচ বাছাইয়ের কাজে নিযুক্ত থাকবে। তিন সদস্যের সেই কমিটিতে আছেন কুম্বলের তিন প্রাক্তন সতীর্থ সচিন তেন্ডুলকর, সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় এবং ভি ভি এস লক্ষ্মণ। বিখ্যাত ত্রয়ীই এর আগে রবি শাস্ত্রীকে সরিয়ে কুম্বলেকে কোচ বেছেছিল। ওয়াকিবহাল মহলের ধারণা, প্রাক্তন তিন সতীর্থের পক্ষে কুম্বলেকে সরিয়ে দেওয়া শুধু কঠিনই হবে না, কার্যত অসম্ভব হবে। ওদিকে, ইংল্যান্ডে নামার পরে কোহালিকে প্রথম সাংবাদিক সম্মেলনেই কুম্বলে নিয়ে এই বাউন্সার খেলতে হল। সেখানে কোহালি খুব জোরাল ভাবে কুম্বলের পাশে দাঁড়ালেন বলা যাবে না। বললেন, বোর্ড যে পদ্ধতি অনুসরণ করে সেটাই এ বারও করছে। কুম্বলের অবদান নিয়ে জিজ্ঞেস করা হলে কোহালির জবাব, ‘‘টিম যখন ভাল করে সকলের সাহায্য, অবদানেই করে। কোনও একটি মাধ্যম থেকে সেটা আসে না।’’ কুম্বলের ক্ষেত্রে বলা হয়েছে তিনি কোচ নির্বাচনের ক্ষেত্রে ‘ডাইরেক্ট এন্ট্রি’ পাবেন। অর্থাৎ নতুন করে স্ক্রিনিংয়ের মধ্যে দিয়ে যেতে হবে না। তাতেও এই ঘোষণা তাঁর জন্য অস্বস্তিকর। নতুন করে নির্বাচন মানে নতুন করে তাঁর ট্রায়াল। যা দেখে প্রশ্ন উঠছে, হেড কোচ ইংল্যান্ডে নামামাত্রই কি বল সুইং করতে শুরু করে দিল? সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা
monarchmart
monarchmart