ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৬ মাঘ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ॥ অড়হর ডালের পণ্য

তানিউল করিম জীম 

প্রকাশিত: ২১:২৯, ২১ জানুয়ারি ২০২৩

কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ॥ অড়হর ডালের পণ্য

পুষ্টি উপাদান ও ঔষধিগুণ সম্পর্কে গবেষক জানান, অন্যান্য ডালের মতো অড়হর বীজে প্রায় ২১ শতাংশ আমিষ বিদ্যমান

বাংলাদেশে অড়হর একটি অপ্রচলিত কাষ্ঠল উদ্ভিদ। যার বীজ ডাল জাতীয় ফসল এবং গাছ খড়ি হিসেবে অধিক ব্যবহৃত হয়ে আসছে। এই গাছের জন্য আলাদা করে জমি তৈরি করতে হয় না, প্রয়োজন হয় না পরিচর্যার। বসতবাড়ির পতিত জায়গায় বীজ বপন করলেই গাছ হয়। গাছ থেকে যে বীজ হয় সেটিই ডাল জাতীয় ফসল। অন্যান্য ডালের মতোই এই ডালে প্রোটিনের পরিমাণ ২১ শতাংশ। একদম খরচ ছাড়াই এই ডাল পাওয়া যায় বলে একে গরিবের ডাল বললে ভুল হবে না।
এছাড়া পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে পশুখাদ্য, জ্বালানি, বেড়া এবং মাটির উর্বরতা বৃদ্ধিসহ নানা কাজে ব্যবহৃত হয়ে আসছে এই ডাল ফসল। এবার এই অড়হর গাছের বীজ প্রক্রিয়াকরণের মাধ্যমে মুখরোচক ৭টি পণ্য উদ্ভাবন করেছে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) ফসল উদ্ভিদ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. ছোলায়মান আলী ফকির।

অড়হর গাছ নিয়ে দীর্ঘদিন গবেষণা করে তিনি এ সফলতা পেয়েছেন। উদ্ভাবিত পণ্যগুলোর মধ্যে শুকনো বীজের অড়হর-রুটি, অড়হর-পুরী, অড়হর-সিঙ্গাড়াসহ সেদ্ধ কাঁচা বীজের পেস্ট দিয়ে অড়হর-হালুয়া ও অড়হর-কাবাব, অড়হর বীজ ভাজা এবং কাঁচা বীজের সবজি।

প্রধান গবেষক ড. ছোলায়মান আলী ফকির এ বিষয়ে জানান, অড়হর-রুটি ভাতের বিকল্প খাদ্য হিসেবে প্রধান খাদ্য চালের ওপর চাপ কমাতে কার্যকর। অড়হর ডালের পেস্ট ময়দার সঙ্গে মিশিয়ে এই অড়হর-রুটি তৈরি করা হয়েছে। ভাতের চেয়ে কার্বোহাইড্রেট অনেকাংশে কম থাকায় ওজন কমাতে কার্যকর এই রুটি।
তিনি আরও জানান, খুব স্বল্প খরচেই ডালের চাহিদা পূরণে এ গাছ ভূমিকা রাখবে। অড়হর গাছটি খড়া সহনশীল ও পতিত জমিতে দ্রুত বর্ধনশীল হওয়ায় স্বল্প খরচে এবং স্বল্প পানি ব্যবহারে এটি বৃদ্ধি পায়। তরকারিতে মটরশুঁটির বিকল্প ডাল জাতীয় খাবার হিসেবে ব্যবহার করা যাবে এটি।
পুষ্টি উপাদান ও ঔষধিগুণ সম্পর্কে গবেষক জানান, অন্যান্য ডালের মতো অড়হর বীজে প্রায় ২১ শতাংশ আমিষ বিদ্যমান। কম চর্বি, বেশি আঁশ ও খনিজ পদার্থ বিদ্যমান থাকায় এ ডাল একটি স্বাস্থ্যসম্মত খাবার। উচ্চমাত্রায় আঁশ থাকায় হজমে সাহায্য করে এটি। সর্বোপরি নি¤œমাত্রায় কোলেস্টেরল এবং উচ্চমাত্রায় পটাশিয়াম ও আঁশ বিদ্যমান থাকায় অড়হর বীজ হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়। সবুজ পাতার রস জন্ডিস নিরাময়ে কার্যকর।

অড়হর ডালে আয়রনের উপস্থিতির কারণে রক্তশূন্যতা উপশমে সাহায্য করে। পটাশিয়ামের উপস্থিতির কারণে রক্তচাপ প্রশমন করে। এছাড়াও অড়হর ডাল ওজন কমাতে ভিটামিন-বি, রিবোফ্লাবিন ও নিয়াসিনের উপস্থিতিতে দেহে শক্তিবর্ধক হিসেবে কাজ করে।
ফলন সম্পর্কে গবেষক জানান, অড়হরের জাত ভেদে গাছ প্রতি ২শ’ থেকে ৫শ’ গ্রাম শুকনো ডাল এবং ৫৫০ থেকে ৯শ’ গ্রাম সবজি বীজ উৎপাদন করা সম্ভব। এছাড়াও জমিতে চাষ করলে হেক্টর প্রতি ৪ শ’ থেকে ৮ শ’ কেজি ডালের ফলন হয়ে থাকে। গাছ জ্বালানি ও বেড়া, পাতা ও কচি ফল গোখাদ্য, শেকড়ের রাইজোবিয়াম ব্যাক্টেরিয়া মাটির উর্বরতা বৃদ্ধি সব মিলিয়ে এ ডালের ফলন অন্যান্য যে কোনো ডালের চেয়ে লাভজনক।

monarchmart
monarchmart