শনিবার ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৮ আগস্ট ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

রাষ্ট্রীয় পাটকল বন্ধ ঘোষণার প্রতিবাদে মানববন্ধন

রাষ্ট্রীয় পাটকল বন্ধ ঘোষণার প্রতিবাদে মানববন্ধন

নিজস্ব সংবাদদাতা, নওগাঁ ॥ নওগাঁ জেলা সিপিবির সভাপতি কমরেড এ্যাডভোকেট মহসীন রেজা বলেন, মুক্তিযুদ্ধের পর দেশের প্রধান শিল্প পাটকলসমূহ রাষ্ট্রায়ত্তকরণ করা ছিল ৫৪’র যুক্তফ্রন্ট্রের ২১-দফা ও ৬৯’র গণঅভ্যুত্থানে ছাত্র সমাজের ১১-দফার অন্যতম অঙ্গীকারের বাস্তবায়ন। গত ৪০ বছর ধরে ক্ষমতাসীন সরকারসমূহ এশিয়ার বৃহত্তম পাটকল আদমজীসহ সকল পাটকল বন্ধ বা বেসরকারিকরণ করে জাতি ও মুক্তিযুদ্ধে ৩০ লাখ শহীদদের প্রতি বিশ্বাসঘাতকতা করেছে। তিনি বলেন, ১৯৯২ সালে বিএনপি-জামাত সরকারের শিল্পমন্ত্রী রাজাকার নিজামীর হাত দিয়ে দেশের বৃহত্তম আদমজী পাটকল বন্ধ করে দেয়া হয়। আর আজ মুক্তিযুদ্ধের চেতনার দাবিদার বর্তমান আওয়ামী সরকার মুক্তিযুদ্ধে খেতাবপ্রাপ্ত মন্ত্রীর হাত দিয়ে অবশিষ্ট ২৫টি রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকল বন্ধের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে। এ বিশ্বাসঘাতকতাপূর্ণ কাজের জন্য জাতি কখনও তাদের ক্ষমা করবে না।

রাষ্ট্রীয় ২৫টি পাটকল বন্ধে সরকারের গণবিরোধী সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) নওগাঁ জেলা শাখার উদ্যোগে আজ শনিবার দুপুর ১২টায় নওগাঁ শহরের ব্রীজের মোড়ে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মহসীন রেজা বলেন, সরকার লোকসানের কথা বলে পাটকলসমূহ বন্ধ করে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। পাটকলসমূহ রাষ্ট্রীয়করণের পর থেকে এ পর্যন্ত পুঞ্জীভূত লোকসানের পরিমাণ মাত্র ১০ হাজার ৬৭৪ কোটি টাকা। আর এ সরকারই গত ৬ বছরে দলীয় নেতা-কর্মী-সমর্থক ও আত্মীয় স্বজনের কুইক রেন্টাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রগুলোকে বসিয়ে বসিয়ে ৬২ হাজার কোটি প্রদান করেছে।

সাধারণ সম্পাদক কমরেড শফিকুল ইসলাম বলেন, বাংলাদেশের পাট শিল্পকে ছোট করে ফেলা এবং সম্পূর্ণভাবে ব্যক্তিখাতে ছেড়ে দেয়া জাতীয় ও আন্তর্জাতিক চক্রান্তের ফসল। তা না হলে মাত্র ১২০০ কোটি টাকা দিয়ে আধুনিকায়ন না করে ৫,০০০ কোটি টাকা দিয়ে গোল্ডেন হ্যান্ডশেক করে ২৫টি কারখানা বন্ধ করে দেয়া হচ্ছে কেন? এটি ক্ষমতাসীন লুটেরাগোষ্ঠীকে তোষামদ করার সরকারের দুরভিসন্ধি মাত্র। করোনা মহাবিপর্যয়কালে মানুষকে জীবিকাচ্যুত করার এ ধরনের মৌলিক সিদ্ধান্ত গ্রহণে সরকারের নৈতিকতাও প্রশ্নবিদ্ধ। তিনি বলেন, দেশের লাখ লাখ কৃষক পাট চাষের সাথে সম্পৃক্ত। এ সকল কৃষককে বেসরকারি পাটকল মালিকদের হাতে ছেড়ে দেয়া হবে। পাটের দাম নিয়ন্ত্রণ করার একছত্র ক্ষমতা পেয়ে যাবে বেসরকারি পাটকল মালিকরা। আর উৎপাদিত পাটের একটা বড় অংশ পাশের দেশে পাচার হয়ে যাবে তাদের পাটকলসমূহের কাঁচামাল হওয়ার জন্য। তিনি একশ’ শতাংশ দেশীয় পাট শিল্পকে ব্যক্তি মালিকানায় তুলে দেয়ার তীব্র নিন্দা জানান।

সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, সাবেক সভাপতি কমরেড প্রদ্যোৎ ফৌজদার, আদিবাসী নেত্রী কমরেড রেবেকা সরেন, কৃষক নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা মুনসুর রহমান, যুব নেতা কমরেড এ্যাডভোকেট মমিনুল ইসলাম স্বপন, ছাত্র নেতা শামীম আহসান প্রমুখ।

শীর্ষ সংবাদ:
ভারতে কারাভোগ শেষে দেশে ফিরলেন তাবলিগের ১৪ সদস্য         ১২ অগস্ট আসছে বিশ্বের প্রথম করোনা ভ্যাকসিন         রোনালদোর জোড়া গোলেও বেজে গেলো জুভেন্টাসের বিদায়ঘণ্টা         চুয়াডাঙ্গায় নৈশকোচের ধাক্কায় নিহত পাঁচ         বিধ্বস্ত বিমানের ককপিটে ছিলেন স্বর্ণ পদক পাওয়া পাইলট         লাদাখে নতুন করে ভারত-চীনের উত্তেজনা         গত ১৭ বছরের মধ্যে ব্রিটেনের তাপমাত্রা সর্বোচ্চ         চীন-আমেরিকা যুদ্ধ এখন আর অসম্ভব বিষয় নয় ॥ অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী         যুক্তরাষ্ট্রের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়ার হুমকি টিকটকের         করোনা মোকাবিলায় আদর্শ নিউজিল্যান্ড-ডেনমার্ক-উগান্ডা         বৈরুতে যেভাবে পৌঁছায় ভয়াবহ বিস্ফোরকের চালান         হংকংয়ের প্রধান নির্বাহী ক্যারি লামের বিরুদ্ধে মার্কিন নিষেধাজ্ঞা         আমিরাতে পালিয়েছেন স্পেনের সাবেক রাজা হুয়ান কার্লোস!         অ্যালুমিনিয়ামে যুক্তরাষ্ট্রের শুল্ক আরোপের পাল্টা জবাব কানাডার         বিশ্বের শীর্ষ শত কোটিপতির ক্লাবে ঢুকলেন জুকারবার্গ         বুরকিনা ফাসোতে বন্দুকধারীদের হামলায় নিহত ২০         হাওড়ে মরণ ফাঁদ ॥ অরক্ষিত নৌ পরিবহন ব্যবস্থা         বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের জন্মবার্ষিকী আজ         অশুভ চক্র গুজব রটনা ও অপপ্রচারে লিপ্ত ॥ কাদের         সিনহা হত্যায় জড়িত কেউই ছাড় পাবে না ॥ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী        
//--BID Records