ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২, ১৯ আশ্বিন ১৪২৯

টুকরো - খবর ॥ যুক্তরাষ্ট্রে সর্বোচ্চে জ্বালানি তেল উত্তোলন

প্রকাশিত: ০৫:১৭, ২৯ অক্টোবর ২০১৭

টুকরো - খবর ॥ যুক্তরাষ্ট্রে সর্বোচ্চে জ্বালানি তেল উত্তোলন

গত সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্রে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দৈনিক উত্তোলন পাঁচ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ পর্যায়ে পৌঁছেছে। মার্কিন এনার্জি ইনফরমেশন এ্যাডমিনিস্ট্রেশনের (ইআইএ) সাম্প্রতিক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। প্রতিবেদন অনুযায়ী, গত সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্রে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দৈনিক উত্তোলন আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় ১৩ শতাংশ বেড়ে ৯৫ লাখ ১০ হাজার ব্যারেলে পৌঁছেছে, যা ২০১২ সালের সেপ্টেম্বরের পর থেকে সর্বোচ্চ। এ সময়ে পণ্যটির মজুদ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৮ লাখ ৫৬ হাজার ব্যারেল। চার সপ্তাহ পর দেশটিতে পণ্যটির মজুদ বাড়ল। এদিকে গত সপ্তাহে দেশটিতে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দৈনিক রফতানি রেকর্ড ৭৬ লাখ ব্যারেলে পৌঁছেছে বলে জানিয়েছে ইআইএ। আগামী মার্চে রাশিয়াসহ অন্য মিত্র দেশকে সঙ্গে নিয়ে অর্গানাইজেশন অব পেট্রোলিয়াম এক্সপোর্টিং কান্ট্রিজের (ওপেক) আওতায় পণ্যটির সম্মিলিত উত্তোলন হ্রাস চুক্তির মেয়াদ বৃদ্ধির সম্ভাবনায় দুই সপ্তাহ ধরে ব্যারেলপ্রতি অপরিশোধিত জ্বালানি তেল ৫০ ডলারের বেশি দামে লেনদেন হয়েছে। এখন যুক্তরাষ্ট্রের উত্তোলন খাতের চাঙ্গাভাবের খবরে পণ্যটির দাম আরও কমে আসবে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। মাইকেল লোয়েন আরও বলেন, বৈরী আবহাওয়াজনিত ক্ষতি কাটিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের উত্তোলন ও রফতানি খাত ক্রমশ চাঙ্গা হচ্ছে। এটা আগামী দিনগুলোয় পণ্যটির চাহিদা বৃদ্ধিজনিত সমীকরণের একটি অংশ। উত্তোলন ও চাহিদা বেশি থাকলে পরিশোধকরা বেশি বেশি অপরিশোধিত জ্বালানি তেল কিনবেন এটাই স্বাভাবিক নিয়ম। এর জের ধরে চাহিদার তুলনায় উত্তোলন বেশি হলে আগামী দিনগুলোয় আন্তর্জাতিক বাজারে পণ্যটির দাম কমে আসার জোরাল সম্ভাবনা রয়েছে। এদিকে এক বিবৃতিতে বিএনপি পারিবাস জানিয়েছে, আগামী বছরের প্রথম প্রান্তিক (জানুয়ারি-মার্চ) শেষে ওপেকের উত্তোলন হ্রাসসংক্রান্ত চুক্তির মেয়াদ বৃদ্ধির সম্ভাবনায় অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের বাজারে আশার আলো দেখা যাচ্ছে। তবে চুক্তির মেয়াদ বাড়ানো না হলে পণ্যটির বাজারে নিম্নমুখী প্রবণতা দেখা দিতে পারে। অর্থনীতি ডেস্ক