মঙ্গলবার ৩০ আষাঢ় ১৪২৭, ১৪ জুলাই ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

সুন্দরবনে ১ জুলাই থেকে দু’মাস মাছ ধরা বন্ধ

সুন্দরবনে ১ জুলাই থেকে দু’মাস মাছ ধরা বন্ধ

স্টাফ রিপোর্টার, বাগেরহাট ॥ সুন্দরবনে আগামী ১ জুলাই থেকে আগস্ট পর্যন্ত দুই মাস সকল প্রকার মৎস্য আহরণ বন্ধ থাকবে। সুন্দরবনের মৎস্য সম্পদ রক্ষা ও প্রজননের জন্য এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে বন বিভাগ।

বন-বিভাগ ও জেলেদের সূত্রে জানা গেছে, পূর্ব সুন্দরবনের দুই লাখ ৩৪ হাজার এক শ’ ৪৭ বর্গ কিলোমিটার বনভূমির মধ্যে দুই শতাধিক নদী ও খাল রয়েছে। এর মধ্যে অভয়ারণ্য এলাকাসহ ১৮টি খাল এবং ২৫ ফুটের কম প্রশস্ত খালে সারা বছর মাছ ধরা নিষিদ্ধ থাকে। এছাড়া মৎস্য প্রজননের জন্য জুলাই ও আগস্ট দুই মাস সকল খালে মৎস্য আহরণ বন্ধ করা হয়।

নিষিদ্ধ এসব নদী-খাল ছাড়া প্রতি মাসের অমাবস্যা ও পূর্ণিমার সময় মাছ ধরার মৌসুম প্রায় দুই হাজার পারমিটধারী জেলে মৎস্য আহরণ করে জীবন-জীবিকা নির্বাহ করে থাকে। এ মৎস্য আহরণের ওপর প্রায় ২৫ থেকে ৩০ হাজার মানুষ প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে জড়িত রয়েছে। বর্তমানে করোনা দুর্যোগের কারণে মানুষ কর্মহীন হয়ে পড়েছে, তার ওপর মৎস্য আহরণ দুইমাস বন্ধ থাকলে জেলেদের জীবন-জীবিকা আরও কঠিন হয়ে পড়বে বলে জেলেরা জানান।

শরণখোলার মৎস্য ব্যবসায়ী মাহাবুব হোসেন সেলু ও জালাল মোল্লা জানান, করোনার কারণে সুন্দরবনের জেলেদের মাছ ধরা ছাড়া এবার আর কোন কাজ কারার সুযোগ নেই। এ বছর দুইমাস মাছ ধরা বন্ধ থাকলে জেলেরা ছেলেমেয়ে নিয়ে না খেয়ে থাকবে। তাই এ বছর জেলেদের সুযোগ দেয়ার দাবি জানান তারা। উপজেলার বকুলতলা গ্রামের নুর ইসলাম মুন্সি, সোনাতলা গ্রামের আসাদুল মাতুব্বর, খুড়িয়াখালী গ্রামের জেলে হাবিব হাওলাদার ও জামাল হাওলাদার জানান, আমরা ৩০/৪০ বছর ধরে বংশ পরম্পরায় সুন্দরবনে মাছ ধরে জীবিকা নির্বাহ করে আসছি। এখন মাছ ধরা বন্ধ করে দিলে আমাদের না খেয়ে থাকতে হবে। সরকার আমাদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করে দিলে আমার আর সুন্দরবনে যাব না।

এ ব্যাপারে সুন্দরবনের শরণখোলা রেঞ্জ কর্মকর্তা (এসিএফ) মোঃ জয়নাল আবেদীন জানান, জুলাই ও আগস্ট মাস হচ্ছে মৎস্য প্রজননের জন্য উপযুক্ত মৌসুম। এই সময় সাধারণত সকল মাছে ডিম ছাড়ে। তাই প্রতিবছরের ন্যায় এ বছরও ১ জুলাই থেকে ৩০ আগস্ট পর্যন্ত দুইমাস সকল প্রকার মৎস্য আহরণ বন্ধ থাকবে। সুন্দরবনের মৎস্যসম্পদ রক্ষায় ইন্টিগ্রেটেড রিসোর্সেস ম্যানেজমেন্ট প্ল্যানস এর (আইআরএমপি) সুপারিশ অনুযায়ী ২০১৯ সালে এ সিদ্ধান্ত নেয় বন বিভাগ। এর ফলে সুন্দরবনে এ দুইমাস নিরাপদে মৎস্য প্রজনন ঘটে থাকে।

সুন্দরবন পূর্ব বন বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা (ডিএফও) মোঃ বেলায়েত হোসেন জানান, মৎস্য সম্পদ রক্ষায় প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরও একই সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে। তবে করোনাকালীন সময়ে জেলেদের বিষয়টি উর্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হবে।

শীর্ষ সংবাদ:
একনেকে ১০ হাজার কোটি টাকার ৮ প্রকল্প অনুমোদন         কেশবপুর উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের শাহীন চাকলাদার নির্বাচিত         ঈদের জামাত নিয়ে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের ১১ নির্দেশনা         অধিদপ্তরের সঙ্গে মন্ত্রণালয়ের কোনো সমস্যা নেই : স্বাস্থ্যমন্ত্রী         বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত সাড়ে ১৪ লাখ মানুষ         শাহজাহান সিরাজ আর নেই         যমুনা গ্রুপের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম বাবুলের দাফন সম্পন্ন         ময়ূর-২ লঞ্চের মাস্টার আবুল বাসার তিন দিনের রিমান্ডে         এবার নবায়নযোগ্য জ্বালানিতে বিদ্যুত উৎপাদনে চীনের বড় বিনিয়োগ আসছে         করোনা ভাইরাসে সুস্থের সংখ্যা লাখ ছাড়াল, মৃত্যু আরও ৩৩ জনের         করোনা ভাইরাসের নমুনা পরীক্ষায় অনিয়ম সহ্য করা হবে না         ভার্চুয়ালেই চলবে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ         ঈদে শেয়ারবাজার তিন দিন বন্ধ থাকছে         বেসরকারি চাকরিজীবীদেরও ঈদে কর্মস্থলে থাকতে হবে         কোন অপশক্তি জাতীয় পার্টির এগিয়ে চলা রোধ করতে পারবে না : জিএম কাদের         কোরবানি সামনে রেখে টিসিবির বিক্রি কার্যক্রম শুরু         আগামী ১৫ জুলাই সমাহিত করা হবে এন্ড্রু কিশোরকে         কক্সবাজার থেকে সাতক্ষীরা পর্যন্ত সুপার ড্রাইভওয়ে নির্মাণের পরিকল্পনা         বিশেষ ফ্লাইটে ওমান থেকে ফিরলেন ২৫৪ বাংলাদেশি         প্রকল্পের কাজে অনিয়মে নরসিংদী সদরের উপজেলা প্রকৌশলী বরখাস্ত        
//--BID Records