শনিবার ৯ মাঘ ১৪২৮, ২২ জানুয়ারী ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

কোহলির কণ্ঠে সচেতন হওয়ার ডাক

 কোহলির কণ্ঠে  সচেতন হওয়ার ডাক

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ করোনা ভাইরাসের প্রভাবে বেসামাল বিশ্ব, বেসামাল বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গানও। একের পর এক বন্ধ হয়ে যাচ্ছে ফুটবল, ক্রিকেট, হকিসহ সকল ধরনের খেলা। ঘরোয়া-আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থমকে গেলেও বন্ধ নেই প্রাণসংহারী এই মহামারীর বিরুদ্ধে তারকাদের লড়াই। যে যার অবস্থান থেকে সতর্কতার ডাক দিয়ে যাচ্ছেন। ভারতীয় ক্রিকেটের বড় তারকা ও অধিনায়ক বিরাট কোহলি সরকারের নেয়া বিভিন্ন পদক্ষেপের প্রশংসা করে সেগুলো পালানের জন্য সর্বসাধারণকে আহবান জানিয়েছেন। পাশাপাশি জীবনের ঝুঁকি নিয়ে চিকিৎসাসেবা দিয়ে যাওয়া চিকিৎসকদের ‘যোদ্ধা’ বলে অভিহিত করেছেন সময়ের সেরা এই ব্যাটসম্যান। ‘করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে এ লড়াইয়ে সতর্ক, হুঁশিয়ার ও সচেতন থাকুন। আমাদের নিরাপত্তায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি যে পদক্ষেপ নিয়েছেন, দায়িত্বশীল নাগরিক হিসেবে আমাদের সেটা মানা উচিত।’ টুইট কোহলির।

করোনাভাইরাস মোকাবেলায় আগামী রবিবার ১৪ ঘণ্টার ‘জনতা কারফিউ’ ডেকেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী। ওইদিন সকাল ৭টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত কেউ ঘরের বাইরে বের হতে পারবেন না, এমনকি পাশের বাড়িতেও যাওয়া যাবে না। শুধু জরুরী সেবার কাজে নিয়োজিতরা এই কারফিউর আওতার বাইরে থাকবেন। প্রাণঘাতী এ ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে সরকার প্রধানের এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন বিরাট কোহলিসহ অনেক তারকা ক্রিকেটারই। কোহলি আরেক টুইটে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে চিকিৎসার দেয়া চিকিৎসদের উদ্দেশ করে কোহলি লিখেছেন, ‘দেশে ও বিশ্বে করোনার বিরুদ্ধে সর্বস্ব দিয়ে লড়াই করে যাওয়া চিকিৎসক-কর্মীদের কথা না বললেই নয়। আসুন জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কাজ করা এসব যোদ্ধার পাশে দাঁড়াই। আমরা পরিচ্ছন্ন থেকে নিজেদের ও অন্যদের দেখভাল করে তাদের কাজে সহায়তা করি।’

ভারতের কোচ রবি শাস্ত্রীও যোগ দিয়েছেন এই লড়াইয়ে, ‘চলুন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে হাত মেলাই। করোনার বিরুদ্ধে একটি জাতি হিসেবে আমাদের সর্বোচ্চ সংযম দেখাতে হবে। সাবেক তারকা ওপেনার গৌতম গম্ভীরের টুইট, ‘প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি শত কোটি ভারতীয়দের নিশ্চিত করলেন, ভারত করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করছে। সবাইকে পরিচ্ছন্নতা মেনে চলে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে হবে। পরের কয়েক সপ্তাহ ধৈর্য ধরুন। আসুন দেশের জন্য আমাদের দায়িত্ব পালন করি এবং জনতা কারফিউকে সফল করি।’ উল্লেখ্য, একদিন আগেই করোনা-পরিস্থিতিকে টেস্ট ক্রিকেটের সঙ্গে তুলনা করে সকলকে ধৈর্য ও সতর্কতার ডাক দেন শচীন টেন্ডুলকর, ‘টেস্ট ক্রিকেট আপনি যদি শ্রদ্ধার সঙ্গে খেলেন সেটির এমন পুরস্কার পান, যা আপনি ভাবতেও পারেন না। আপনি যখন পিচ ও কন্ডিশন বা বোলারদের বুঝতে পারেন না, তখন প্রতিরোধই হয়ে ওঠে আক্রমণের সেরা রূপ। ভালভাবে প্রতিরোধে ঘুরে দাঁড়াতে ধৈর্যই এখন দরকার আমাদের।’

শচীন বলেন, ‘আপনার প্রথম ইনিংসটা যদি ভাল না যায়, এখানে দ্বিতীয় ইনিংসটা পাচ্ছেন। ভিন্ন ভিন্ন দেশ করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের ভিন্ন ভিন্ন পর্যায়ে আছে। তবে সব দেশকে একটি দলের অংশ হয়ে লড়তে হবে।’ ব্যাটিং গ্রেট আশাবাদী করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে বিশ্ববাসী জয়ী হবেই, ‘এই লড়াইটা লড়তে হবে সেসন ধরে ধরে এবং শেষটায় আমরাই বিজয়ী হবো।’

শীর্ষ সংবাদ:
করোনা ভাইরাসে আরও ১৭ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৯৬১৪         রবিবার থেকে ভার্চুয়ালিও চলবে সব অধস্তন আদালত         করোনা টেস্ট ॥ চাপ বাড়ছে হাসপাতালে         বর্তমানে মজুদ রয়েছে ৯ কোটি টিকা ॥ তথ্যমন্ত্রী         দেখানোর জন্য নয়, নিজের স্বার্থেই পরতে হবে মাস্ক         মোবাইল ব্যাংকিংয়ে লেনদেন ৯০ হাজার কোটি টাকা         অতিরিক্ত আইজিপি হলেন ৭ কর্মকর্তা         রাজধানীতে জাল টাকাসহ গ্রেফতার ১         রাজধানীতে ৯ কেজি গাঁজাসহ আটক ১         প্রতারকের খপ্পরে পড়ে ১৮ দিনের সন্তান বিক্রি         ইয়েমেনের কারাগারে সৌদি হামলায় নিহত ৭০         ৩ বিভাগে বৃষ্টির পূ্র্বাভাস         মুম্বাইয়ে বহুতল ভবনে আগুন, নিহত ৭         নীলক্ষেত থেকে সরে গেলেন শিক্ষার্থীরা         মা হলেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া