সোমবার ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৩ মে ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা

ধর্ষিত গৃহবধূ বাড়ি ছাড়া ॥ দিচ্ছে না শিশু সন্তানকে

সংবাদদাতা, ভূঞাপুর, টাঙ্গাইল, ২১ জুন ॥ ভূঞাপুরে এক গৃহবধূ ধর্ষণের শিকার হয়েছে। এলাকাবাসী ধর্ষককে ধরে পুলিশে দিলেও ধর্ষিতার দেড় বছরের সন্তানকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। সন্তানকে না পেয়ে পাগলপ্রায় ধর্ষিতা।

জানা যায়, উপজেলার পৌর এলাকার কুতুবপুর গ্রামের ওয়াজেদ আলীর ছেলে কলেজ পড়ুয়া মনিরুজ্জামান রনি (২৪) মাসখানেক ধরে পাশের বাড়ির এক সন্তানের জননী ওই গৃহবধূকে কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিল। এতে সে রাজি না হওয়ায় বুধবার রাত ১১টায় ধর্ষিতার স্বামী ফোন করেছে বলে ডেকে তোলে ওই গৃহবধূকে। ঘরের দরজা খোলার সঙ্গে সঙ্গে ঘরে ডুকে দরজা লাগিয়ে দেয়। ফোন আলাপের কৌশলে গামছা দিয়ে মুখ বেঁধে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় পাশে ঘুমিয়ে থাকা শিশু সন্তানসহ ধর্ষিতার চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে অভিযুক্ত রনিকে আটক করে বেঁধে রেখে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে ভূঞাপুর থানা পুলিশ উদ্ধার করে। এদিকে পুলিশ ধর্ষিতাকে মামলার কার্যক্রমের জন্য মেডিক্যাল পরীক্ষা ও কোর্টে স্বীকারোক্তি শেষে বাড়ি ফিরলে বাড়িতে উঠতে দিচ্ছে না ধর্ষিতার শ্বশুরবাড়ির লোকজন। পরে একই গ্রামে খালুর বাড়িতে আশ্রয় নিয়েছে ধর্ষিতা। এদিকে তার দেড় বছরের কোলের শিশু সন্তানকেও দিচ্ছে না। শিশুটি কোথায় কিভাবে আছে তাও জানাচ্ছে না। ফলে শিশু সন্তানে জন্য পাগলপ্রায় ধর্ষিতা।

শীর্ষ সংবাদ: