বৃহস্পতিবার ১৩ মাঘ ১৪২৮, ২৭ জানুয়ারী ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

পটিয়া থেকে ১০৩ রোহিঙ্গা আটক

নিজস্ব সংবাদদাতা, পটিয়া, ১৮ সেপ্টেম্বর ॥ নুরুল আলম (৩০)। বাড়ি মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের মংডু এলাকার উদং গ্রামে। পিতার নাম দোলা হোসেন। তারা যুগ যুগ ধরে পরিবার-পরিজন নিয়ে উদং গ্রামে থাকতেন। নুরুল আলম পেশায় দিনমজুর। ঠুনকো অজুহাতে মিয়ানমারের সেনাবাহিনী ও উগ্রপন্থী স্থানীয় কিছু সন্ত্রাসী রোহিঙ্গাদের অত্যাচার, নির্যাতন, বাড়িঘরে অগ্নিসংযোগ, হত্যা ও গণধর্ষণ শুরু করে। সে দেশের সেনাবাহিনীর কাছ থেকে রেহাই পায়নি শিশু থেকে শুরু করে বৃদ্ধ পর্যন্ত। তারা (সেনাবাহিনী) পাখির মতো রোহিঙ্গাদের গুলি ও প্রকাশ্যে জবাই করে নির্মমভাবে হত্যা করে। পিতা-মাতার সামনেই মেয়েকে তুলে নিয়ে গণধর্ষণ করে। সেনাবাহিনী ও উগ্র স্থানীয়দের ভয়ে ৪ লাখের বেশি নারী-পুরুষ ও শিশু সীমান্ত পেরিয়ে বাংলাদেশের কক্সবাজার জেলায় ঢুকে পড়ে। এ পর্যন্ত ১৩০জনের লাশ নাফ নদীসহ বিভিন্ন জায়গায় পাওয়া গেছে। পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের মধ্যে অনেকে কোটিপতি কিংবা লাখপতি। কিন্তু বর্তমানে তারা উখিয়া, টেকনাফ, কুতুপালং, শাহপরীর দ্বীপসহ বিভিন্ন এলাকায় যেন ‘রাস্তার ফকির’। কান্নাজড়িত কণ্ঠে লোমহর্ষক ঘটনা পটিয়া থানায় বর্ণনা করেন রোহিঙ্গা নুরুল আলম। পুলিশ সোমবার সকালে ও রবিবার রাতভর উপজেলার হাইদগাঁও এবং পৌর সদরের বিভিন্ন ওয়ার্ড থেকে ১০৩ রোহিঙ্গাকে দ্বিতীয় দিনের মতো আটক করেন। তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা ও খাবারের ব্যবস্থা করে সোমবার দুপুর দেড়টার দিকে উখিয়া শরণার্থী ক্যাম্পে পাঠানো হয়েছে।

কুড়িগ্রাম থেকে ৪ রোহিঙ্গাকে শরণার্থী শিবিরে ফেরত

স্টাফ রিপোর্টার কুড়িগ্রাম থেকে জানান, ভুরুঙ্গামারীতে আসা মিয়ানমারের আবুল কালামের পরিবারকে রবিবার রাতে টেকনাফের রোহিঙ্গা আশ্রয় শিবিরে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

শীর্ষ সংবাদ:
অবশেষে অনশন ভঙ্গ ॥ শাহজালালের ঘটনায় কিছুটা স্বস্তি         শিক্ষার্থীদের সব দাবি বাস্তবায়নের আশ্বাস শিক্ষামন্ত্রীর         দেশ অপ্রতিরোধ্য গতিতে উন্নয়নের পথে এগিয়ে যাচ্ছে         বিএনপি ৮ লবিস্ট নিয়োগ দিয়েছিল         ওমিক্রন মোকাবেলায় আসছে নতুন গাইডলাইন         রাজধানীসহ কোন কোন এলাকায় ভারি বৃষ্টি, জনদুর্ভোগ         অপরাধ দমনে কাজের স্বীকৃতি পেল পুলিশের বিভিন্ন ইউনিট         অর্থ পাচার রোধে দক্ষিণ কোরিয়ার মতো কঠোর আইন প্রয়োজন         এগিয়ে চলাকে স্তব্ধ করতে নানা ষড়যন্ত্র চলছে         অর্থনীতি পুনরুদ্ধারে আরও তিন বছর লাগবে         তদন্ত এগোনোর পর এখনও এজাহার জটিলতার নেপথ্যে -         বগুড়ায় বাসের ধাক্কায় অটোরিক্সার ৫ যাত্রী নিহত         আসছে নতুন শিক্ষাক্রম, সময়মতো চালুর বিষয়ে শঙ্কা         নগ্ন ছবি, ভিডিও ছড়িয়ে দেয়ার হুমকি দিয়ে টাকা দাবি         বাংলাদেশের গ্রামীণ হাসপাতাল পেল বিশ্ব সেরার স্বীকৃতি         ওমিক্রনরোধে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নতুন গাইডলাইন         শাবিপ্রবি সংকট : শিক্ষার্থীদের সব দাবি বাস্তবায়ন হবে ॥ শিক্ষামন্ত্রী         জামিন পেলেন শাবিপ্রবির সাবেক ৫ শিক্ষার্থী         করোনা : গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু ১৭, শনাক্ত ১৫৫২৭         ‘শাবির ঘটনায় পুলিশের দায় থাকলে ব্যবস্থা’