শুক্রবার ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৭ মে ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

মহিষের দাম ৯.২৫ কোটি!

ভারতের উত্তরপ্রদেশ ও মধ্যপ্রদেশের সীমানা এলাকা চিত্রকোটে চলছে গ্রামোদয় মেলা। কেন্দ্রীয় সরকার আয়োজিত এই মেলার সেরা আকর্ষণ এক মহিষ। সে কোন সাধারণ মহিষ নয়, গলায় ঝোলানো তার প্রাইস ট্যাগে বড় বড় অক্ষরে লেখা ৯ কোটি ২৫ লাখ টাকা!

এ খবর ছড়িয়ে পড়তেই মহিষটিকে দেখতে উত্তরপ্রদেশ-মধ্যপ্রদেশ এমনকি দেশ-বিদেশ থেকেও দলে দলে লোক ছুটছে। একের পর এক ক্যামেরার ফ্ল্যাশ লাইটে ঝলসে উঠছে তার মুখ। তবু তাতে কোন অবিচলতা নেই এই জন্তুটির। রাজার মেজাজে সামনে সাজানো ফলের ঝুড়ি আর দুধের বালতিতেই বেশ মগ্ন সে। নাম তার যুবরাজ, হাবেভাবেও সে এমনই! যুবরাজ বৃহদাকার মহিষ। দৈর্ঘ্যে ১১ ফুট ৫ ইঞ্চি। আর উচ্চতা ৫ ফুট ৮ ইঞ্চি।

কেন্দ্রীয় সরকারী সাহায্যে উত্তরপ্রদেশ আর মধ্যপ্রদেশের সীমানার চিত্রকোটে গ্রামোদয় মেলায় যুবরাজকে বেচার জন্য এনেছেন হরিয়ানার কুরুক্ষেত্রের বাসিন্দা করমবীর সিং। ‘দুধে-ভাতে’ লালিত যুবরাজ করমবীরের পরিবারেরই সদস্য। নিজের বাচ্চার মতোই অত্যন্ত যতেœ বড় করে তুলছেন তাকে। কিন্তু খরচ যোগাতে না পেরে একপ্রকার বাধ্য হয়েই তাকে এই নিষ্ঠুর সিদ্ধান্তটা নিতে হয়েছে বলে জানান তিনি। তাই মন ভাল নেই করমবীরের।

কত টাকা খরচ হয় যুবরাজের জন্য?

তিনি জানান, নয় বছরের যুবরাজের দেখাশোনাতে কোন কমতি রাখেননি তিনি। যাতে তার স্বাস্থ্যের কোন অবনতি না হয় সে জন্য রোজ তাকে ২০ লিটার দুধ, ১০ কিলোগ্রাম আপেল, ৫ কেজি শাকসবজি আর ৫ কিলোগ্রাম খড় খাওয়ানো হয়। এমনকি সুস্থ রাখতে রোজ সকালে ৫ কিলোমিটার হাঁটানোও হয়। সব মিলিয়ে রোজ ৩ থেকে ৪ হাজার টাকা খরচ হয়। যুবরাজের দৌলতে উপার্জনও অবশ্য খুব একটা কম হয় না করমবীরের। তার ‘বীর্য’ বেঁচে বেশ মোটা টাকাই উপার্জন করেন তিনি। প্রতি ড্রপ ‘বীর্য’ বিক্রি হয় ৫০০ টাকায়। করমবীরের দাবি, ওটা বেচেই বছরে প্রায় ৫০ লাখ টাকা উপার্জন করেন তিনি। কিন্তু, সেই টাকার বেশির ভাগটাই চলে যায় তার দেখভালে। ফলে বাধ্য হয়েই তাকে বিক্রির সিদ্ধান্ত নিতে হয়েছে। -ইন্ডিয়া টুডে

শীর্ষ সংবাদ:
ঢাকা টেস্টে লড়াই করছে সাকিব আর লিটন         সীমান্তে মাদক ও মানবপাচার রোধে কাজ করছে বিজিবি ॥ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী         বরিশালে পৃথক দুর্ঘটনায় তিনজন নিহত         সন্ত্রাসীদের হামলায় বুরকিনা ফাসোয় নিহত ৫০         বাজারে ডিমসহ বেড়েছে আটা, সবজি ও মুরগির দাম         অভিনেত্রী মঞ্জুষা নিয়োগীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার         মিয়ানমারে বেসামরিক নাগরিকদের সুরক্ষা একটি গুরুতর চ্যালেঞ্জ ॥ রাবাব ফাতিমা         প্রেস ক্লাবের সামনে বিএনপির নেতাকর্মীরা ॥ সতর্ক অবস্থানে পুলিশ         নীলফামারীতে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বাস খাদে, আহত ৩২         পাক সরকারের রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার আসামির নাম মুক্তিযোদ্ধার তালিকায় নেই         ইমরান খানসহ তেহরিক নেতাদের বিরুদ্ধে দুটি মামলা         বালিয়াতলীর ফেরি পারাপার নয় বছর ধরে বন্ধ         মুশফিকের আউটের পর সাকিব নেমেই আক্রমনাত্মক         আজ থেকে ৪৪তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা শুরু হয়েছে         পেরুতে ৭ দশমিক ২ মাত্রার শক্তিশালী ভূমিকম্প অনুভূত         গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় মারা গেছেন এক হাজার ৪১৩ জন         অবৈধ ক্লিনিকের দৌরাত্ম্য ॥ ভুল চিকিৎসায় প্রতিনিয়ত মৃত্যু         ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য উন্নত জীবন নিশ্চিত করতে চাই         জঙ্গী নেতা আবদুল হাই যেভাবে ১৭ বছর আত্মগোপনে ছিলেন         জামিনে মুক্ত দুর্ধর্ষ অপরাধীদের ওপর চলবে নজরদারি