সোমবার ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ইডেন গার্ডেনে হচ্ছে না বাংলাদেশ-ভারত টেস্ট!

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ সর্বপ্রথম দৈনিক জনকণ্ঠ পত্রিকায় গত ২৮ মার্চ একটি প্রতিবেদন ছাপা হয়েছিল। যেখানে আগস্টে যে প্রথমবারের মতো ভারত সফরে গিয়ে একটি টেস্ট খেলবে বাংলাদেশ, সেই টেস্টটি ইডেন গার্ডেনে না হওয়ার ইঙ্গিত দেয়া হয়েছিল। এরপর থেকেই এ নিয়ে আলোচনা শুরু হয়ে যায়। যতদূর জানা গেছে, শেষপর্যন্ত ইডেন গার্ডেনে এই টেস্ট হচ্ছেই না!

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) নিজেও সেই রকম ইঙ্গিতই দিয়েছেন। শুরুতে শুধু আগস্টে স্বাধীনতা দিবস নিয়ে ভারতের বিশেষ আয়োজন থাকে মাসব্যাপী, কলকাতাতেও আয়োজন থাকে অনেক; এ বিষয়টিই সামনে এসেছিল। এবার এর সঙ্গে যুক্ত হয়ে গেছে বৃষ্টি। সেই সময় বৃষ্টি থাকে ভরপুর। ইডেন গার্ডেনে খেলা হলে বৃষ্টিতে ভেসে যেতে পারে টেস্ট, সেই বিষয়টিও সামনে চলে আসছে।

সিইও সুজন যেমন বলেছেন, ‘ইডেন গার্ডেনে টেস্ট ম্যাচ হলে বাংলাদেশ থেকে অন্তত পাঁচ হাজার লোক খেলা দেখতে আসতেন। তাই আমরা চেয়েছিলাম টেস্টটি ইডেনে হলে আমাদের দর্শকদের জন্য ভাল হয়। কলকাতার আবহাওয়া ঢাকার মতো বলে এখানে এসে খেলতে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করি আমরা। টেস্টে যে ভাবে উন্নতি করছি, তাতে পাঁচদিন ভারতের বিপক্ষে খেলা এখন আর অসম্ভব নয়। কিন্তু কলকাতায় আগস্ট মাসে বৃষ্টির পূর্বাভাস পেয়েছি। তাই ইডেনের পরিবর্তে ওই সময়ে যেসব ভেন্যুতে ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা নেই সেখানে ম্যাচটি করার অনুরোধ করেছি।’

প্রস্তাবটি এরই মধ্যে বিসিসিআইকে দেয়া হয়ে গেছে। বিসিসিআই সচিব অনুরাগ ঠাকুর প্রস্তাবটি গুরুত্বের সঙ্গে দেখছেনও, ‘সাধারণত হোম বোর্ডই ভেন্যু ঠিক করে থাকে। তাই ভেন্যু নির্ধারণের বিষয়টি বিসিসিআইর ওপরই ছেড়ে দিয়েছি আমরা। এ বিষয়ে বিসিসিআইয়ের সঙ্গে কথা হয়েছে। বিষয়টি তারাও গুরুত্ব দিয়ে ভেবে দেখবেন বলে জানিয়েছেন।’

বাংলাদেশ ক্রিকেটের চিরকালীন বন্ধু হচ্ছেন প্রয়াত জগমোহন ডালমিয়া। তার ইচ্ছে ছিল, প্রথমবার যখন ভারতে টেস্ট খেলবে বাংলাদেশ, সেই টেস্ট হবে কলকাতার ইডেন গার্ডেনে। বিসিবিরও ইচ্ছা ছিল, ডালমিয়ার জন্য ইডেন গার্ডেনে ম্যাচ খেলার। বিশ্বকাপের ফাইনাল ইডেন গার্ডেনে করার যে স্বপ্ন তা ডালমিয়ার পূরণ হলেও বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচ যে এই স্টেডিয়ামে হবে, সেই স্বপ্ন বাস্তব নাও হতে পারে। তাহলে কোথায় হবে? টি২০ বিশ্বকাপ কাভার করতে গিয়েই শোনা গেছে, টেস্টটি হিমাচল প্রদেশের ধর্মশালায় হতে পারে। যেখানে বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব খেলেছে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল।

২৮ মার্চ যে জনকণ্ঠে প্রতিবেদন ছাপা হয়েছিল, সেটির আংশিক ছিল এ রকম; আবার ভারতে আসবে (যাবে) বাংলাদেশ দল। এবং সেটি আগস্টেই। ভারতের বিপক্ষে প্রথমবারের মতো ভারতের মাটিতে টেস্ট খেলতে আসবে (যাবে) বাংলাদেশ দল। যতদূর জানা গেছে, বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যকার আগস্টের মাঝামাঝি একমাত্র টেস্ট ম্যাচ হবে। এ টেস্টটির সঙ্গে শুরুতে কোন ওয়ানডে না থাকলেও এখন শোনা যাচ্ছে, তিন ওয়ানডেও হতে পারে। সব ম্যাচই আসলে কলকাতার ইডেন গার্ডেনেই হওয়ার কথা। কিন্তু শোনা যাচ্ছে, ইডেন গার্ডেনে শেষপর্যন্ত বাংলাদেশের বিপক্ষে ভারতের একমাত্র টেস্ট নাও হতে পারে। সেটি অন্য কোথাও হতে পারে। কারণ হিসেবে, আগস্টের মাঝামাঝি খেলা হওয়া মানেই হচ্ছে ১৫ থেকে ২০ তারিখের মধ্যে যে কোন দিন খেলা শুরু হওয়া। সেই সময় এবং তার কয়েকদিন আগে স্বাধীনতা দিবস নিয়ে ভারতের অনেক প্রোগ্রাম থাকে। ১৫ আগস্ট হচ্ছে ভারতের স্বাধীনতা দিবস। সেই দিবসে গুরুত্বপূর্ণ প্রদেশগুলোর মতো কলকাতাতেও অনেক আয়োজন থাকে। এমন সময় ইডেন গার্ডেনে খেলা নাও হতে পারে। এমন কোন স্থানে খেলা হতে পারে, যেখানে খেলা হলে স্বাধীনতা দিবসের আয়োজনগুলোও ঠিকমতো হবে। আবার খেলাও চলবে ঠিকমতোই। সেই স্থানটিই এখন খোঁজা হচ্ছে। আবার একটি ভেন্যুর নামও শোনা যাচ্ছে। সেটি ধর্মশালা স্টেডিয়াম। নিশ্চিত কিছুই এখনও হয়নি। তবে বিসিবির একটি সূত্রও এমনই আভাস দিয়েছে।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) অবশ্য বললেন, ‘দ্বিপাক্ষীক একটি চুক্তি হয়েই আছে। আগস্টে একটি টেস্ট হবে। বাংলাদেশ-ভারত খেলবে। কিন্তু এখনও কিছুই চূড়ান্ত হয়নি। সবকিছু আলোচনা হবে।’ সেই আলোচনা কবে হবে? সুজন জানালেন, ‘তা এখনও ঠিক হয়নি।’ যতদূর জানা গেছে, বিশ্বকাপ শেষ হওয়ার আগেই বিসিবির উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের সঙ্গে বিসিসিআইয়ের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের এ নিয়ে আলোচনা হবে। সুজন বললেন, ‘এখনও আলোচনা হওয়ার কোন দিনক্ষণ তৈরি হয়নি।’ তাহলে ভেন্যু কী ইডেন গার্ডেন থাকবে? বিসিবির সিইও বললেন, ‘এ নিয়ে আসলে বিস্তারিত আলোচনা করার সময় এখনও আসেনি। এখনও কিছুই চূড়ান্ত হয়নি। ভেন্যুর বিষয়টি সফরকারী দলের হাতে থাকে না। এটি স্বাগতিক দলই নির্ধারণ করে।’ দেখা যাক শেষপর্যন্ত কোন ভেন্যুতে খেলা হয়।

টেস্ট, ওয়ানডে, টি২০ মিলিয়ে ভারতের বিপক্ষে ১৯৮৮ সাল থেকে খেলে বাংলাদেশ। শুরুতে ওয়ানডে দিয়ে এরপর ২০০০ সালে ভারতের বিপক্ষে অভিষেক টেস্ট খেলে বাংলাদেশ। আর টি২০ তো ২০০৯ সালে ভারতের বিপক্ষে প্রথম খেলেছে বাংলাদেশ। ২৮ বছর ধরে ভারতের বিপক্ষে ক্রিকেট খেলে এখন পর্যন্ত ভারতের মাটিতে কোন পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলার সুযোগ পায়নি বাংলাদেশ। যতবারই খেলেছে, হয় টুর্নামেন্ট, নয়ত ত্রিদেশীয় কোন সিরিজ। ভারতের বিপক্ষে তিন ওয়ানডে ও এক টি২০ ম্যাচ খেলেছে। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশকে দ্বিপক্ষীয় সিরিজে খেলার আমন্ত্রণ জানায়নি ভারত। এবার ভারতের বিপক্ষে দ্বিপক্ষীয় চুক্তি হয়েছে। সেই চুক্তিতে এ বছর আগস্টে এক টেস্ট খেলার সম্ভাবনা রয়েছে। যেটি আইসিসির ভবিষ্যত সফরসূচীতেও যুক্ত আছে। কিন্তু সেই ম্যাচ হলেও, স্বাভাবিকভাবেই আশা ইডেন গার্ডেনে হবে। কিন্তু সেই সুযোগটি কি শেষপর্যন্ত পাবে বাংলাদেশ? সেই প্রশ্ন থাকছেই। সেই সঙ্গে অপেক্ষাতেই থাকতে হচ্ছে, খেলা হবে কোথায়।

শীর্ষ সংবাদ:
পেট্রোবাংলার নতুন চেয়ারম্যান নাজমুল আহসান         আড়াইহাজারে আগুনে দুই শিশুসহ একই পরিবারের চারজন দগ্ধ         এক প্রতিষ্ঠানের ২৭৫ কোটি টাকা ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগ         ডেঙ্গু : ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি ৫৬         বাংলাদেশ-ভারতের অংশীদারত্ব চুক্তিতে সীমাবদ্ধ নয় : প্রধানমন্ত্রী         করোনা : ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৪         তথ্য প্রতিমন্ত্রীর বক্তব্য ব্যক্তিগত, দলের নয় ॥ কাদের         কাটাখালীর বিতর্কিত মেয়র আব্বাস তিন দিনের রিমান্ডে         ভারতের সঙ্গে আমাদের রক্তের সম্পর্ক ॥ পররাষ্ট্রমন্ত্রী         বৃষ্টিতে ভেসে গেল ঢাকা টেস্টের তৃতীয় দিনের খেলা         গুণগত মান ভালো না হলে চাল গুদামে ঢুকবে না ॥ খাদ্যমন্ত্রীর সতর্কবার্তা         সুদানে সাম্প্রদায়িক সহিংসতা ॥ অন্তত ২৪ জন নিহত         জাওয়াদ’র প্রভাবে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টি         বৃষ্টি উপেক্ষিত, মুখে কালো কাপড় বেঁধে রাজপথে শিক্ষার্থীরা         সু চির ৪ বছরের সাজা         তথ্য প্রতিমন্ত্রী মুরাদের পদত্যাগ দাবি ফখরুলের         শিশু তামীমকে তাৎক্ষণিক ৫ লাখ দেওয়ার নির্দেশ, ১০ কোটি দিতে রুল         স্কুলে ভর্তি ॥ বেসরকারীর তুলনায় সরকারী স্কুলে দ্বিগুণ আবেদন         বেড়িবাঁধ ভাঙ্গা স্থান দিয়ে ঢুকছে পানি ॥ রবিশস্যের ব্যাপক ক্ষতির শঙ্কা         চকরিয়ায় বন্দুকযুদ্ধে দুই ডাকাত নিহত