বুধবার ২৪ আষাঢ় ১৪২৭, ০৮ জুলাই ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ভারতে নয়, দেশের মধ্যে সঞ্চালন লাইনে ত্রুটিতে গ্রিড বিপর্যয়

তদন্ত কমিটির ধারণা

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ভারতীয় নয় দেশের মধ্যে সঞ্চালন লাইনে ত্রুটির কারণে গ্রিড বিপর্যয় হয়েছিল বলে মনে করছে সরকার গঠিত তদন্ত কমিটি। সোমবার বিদ্যুত সঞ্চালন লাইনের সংশ্লিষ্টদের সাক্ষাতকার গ্রহণের পর ভারতীয় সঞ্চালন লাইনে ত্রুটির বিষটি ভুলভাবে বলা হয়েছে বলে মনে করছে তদন্ত কমিটি। আজ মঙ্গলবার তদন্ত কমিটি ভেড়ামারার ভারত বাংলাদেশ বিদ্যুত সঞ্চালন লাইন পরিদর্শনে যাচ্ছে।

তদন্ত কমিটির সদস্য সচিব পাওয়ার সেলের মহাপরিচালক মোহাম্মদ হোসাইন জনকণ্ঠকে বলেন, আমাদের তদন্ত এখন মাঝপথে। এখনই নির্দিষ্ট করে বলা সম্ভব নয় কেন এই বিপর্যয় ঘটল। তবে ভারতীয় সরবরাহ ব্যবস্থার কারণে এ বিপর্যয়ের যে খবর ছড়ানো হয়েছে তা ভুল প্রমাণিত হতে পারে।

তদন্ত কমিটি সূত্র বলছে, সোমবার সারাদিন ন্যাশনাল লোডডেসপাস সেন্টারে তদন্ত কমিটি সঞ্চালন সংশ্লিষ্টদের সাক্ষাতকার নিয়েছেন। সাক্ষাতকারগুলো বিশ্লেষণ করে তদন্ত কমিটির অপর এক সদস্য নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, প্রাথমিকভাবে ভারতীয় অংশের সঞ্চালন ত্রুটির কারণে এই বিপর্যয় বলে প্রচার করা হয়েছে। এনএলডিসিও আমাদের বলেছে, সমস্যা ভারতীয় অংশে। কেউ কেউ আর নির্দিষ্ট করে বলেছে সমস্যা কোথায়। কিন্তু এখন সব বক্তব্যের সঙ্গে সাক্ষাতকার এবং তথ্য উপাত্তের বেশ অমিল পাওয়া যাচ্ছে। এসব দিক বিশ্লেষণ করে মনে হচ্ছে সমস্যাটি আমাদের দেশের মধ্যে অন্য কোন কারণে ঘটতে পারে। যদিও এখন পুরো বিষয়টি ধারণানির্ভর। তাই আজ ভারত বাংলাদেশ সাবস্টেশন দেখার জন্য ভেড়ামারা যাচ্ছে তদন্ত কমিটি। রবিবারের আগে তদন্ত প্রতিবেদন দেয়া সম্ভব হবে না বলেও জানান কমিটির এক সদস্য।

বিদ্যুত জ্বালানি এবং খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু এ প্রসঙ্গে সোমবার তাঁর দফতরে বলেন, আজ আমরা তদন্ত কমিটির রিপোর্ট হাতে পেতে পারি। রিপোর্ট পাওয়ার পর ঘটনার কারণ সকলকে জানানো হবে। তিনি বলেন, আমরা এখনও শঙ্কা মুক্ত নই। আমাদের বেশিরভাগ গ্রিড লাইন পুরানো। এ ধরনের সঙ্কট সমাধানে আগামী এক মাসের মধ্যে পরামর্শক নিয়োগ দেয়া হবে। পরামর্শক নিয়োগ দেয়ার জন্য ইতোমধ্যে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। পরামর্শক আমাদের গ্রিড লাইন বিশ্লেষণ করে এটিকে আধুনিকায়ন করার পরামর্শ দেবেন। সে অনুযায়ী সব কিছু সাজানো হবে।

অন্যদিকে পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি (পিজিসিবি) বলছে তারা এ ঘটনার কারিগরি দিক বিশ্লেষণ করে তদন্ত করছে। ভবিষ্যতে এ ধরনের ঘটনা কিভাবে প্রতিরোধ করা যায় সে বিষয়ে তাদের কাছে সুপারিশ চাওয়া হয়েছে।

জানতে চাইলে পিজিবির মহাব্যবস্থাপক তপন কুমার রায় বলেন, এ বিষয়ে আমরা সুনির্দিষ্ট সুপারিশ প্রদান করব। কারিগরি দিক বিশ্লেষণ করে প্রতিবেদন তৈরিতে কিছু সময় প্রয়োজন হবে। তবে আমরা কাজ শুরু করেছি।

শীর্ষ সংবাদ:
জাপানে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি, প্রাণ গেছে অর্ধশত         যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় প্রাণহানি ১ লাখ ৩৪ হাজার         চট্টগ্রামে ভাতিজাকে হত্যা ॥ বন্দুকযুদ্ধে নিহত চাচা         ব্রাজিলে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা         পূর্বানুমানের চেয়ে ভয়াবহ হবে ইউরোপের মন্দা         সোলেইমানি হত্যায় আইন লঙ্ঘন করেছে যুক্তরাষ্ট্র ॥ জাতিসংঘ         রেজায়িনেজাদ পরমাণু স্থাপনায় বিস্ফোরণের খবর অস্বীকার করল ইরান         ঘর থেকে বের হলেই মাস্ক পরা উচিত ॥ ব্রিটেনের রয়্যাল সোসাইটি         হার্ভার্ড ও প্রিন্সটন বিশ্ববিদ্যালয় অর্ধেকেরও কম শিক্ষার্থী নিয়ে খুলছে         যুক্তরাষ্ট্রের জন্য সবচেয়ে বড় হুমকি চীন ॥ এফবিআই         বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ছাড়ার আনুষ্ঠানিকতা শুরু করল যুক্তরাষ্ট্র         উ. মেসিডোনিয়ায় ট্রাক থেকে আরো ১৪৪ বাংলাদেশি উদ্ধার         করোনাভাইরাস ধরেই ছাড়ল ব্রাজিলের প্রেসিডেন্টকে         চিকিৎসায় প্রতারণা ॥ সিলগালা করা হলো রিজেন্ট হাসপাতাল         পিক টাইম কবে ॥ করোনা সংক্রমণ         বান্দরবানে ফের ব্রাশফায়ারে ছয় খুন         বিনিয়োগ ও কর্মসংস্থান বাড়ানোই লক্ষ্য         জাবিতে ১২ জুলাই থেকে অনলাইন ক্লাস শুরু         উত্তরে পানি কমতে শুরু করলেও দুর্ভোগ কমেনি         বন্যা মোকাবেলায় বাংলাদেশকে এক লাখ ইউরো দিচ্ছে ইইউ        
//--BID Records