ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ১৯ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১

বিশ্বকাপের আগে র‌্যাঙ্কিংয়ে বড় বিপর্যয় সাকিব-লিটনদের

প্রকাশিত: ১৭:৩৫, ২৯ মে ২০২৪

বিশ্বকাপের আগে র‌্যাঙ্কিংয়ে বড় বিপর্যয় সাকিব-লিটনদের

সাকিব-লিটন

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শুরুর আর মাত্র তিনদিন বাকি। তার আগের সময়টা মোটেও ভালো যাচ্ছে না বাংলাদেশের। আইসিসির সহযোগী দেশ যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে প্রথমবারের দেখাতেই তারা সিরিজ হেরেছে। যার ফলও পেয়ে গেছেন বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা। সাম্প্রতিক সিরিজগুলোতে টপ অর্ডারদের ব্যর্থতা পুরোনো বিষয়। তারা তো পিছিয়েছেনই, র‌্যাঙ্কিংয়ে বিপর্যয় ঘটেছে বোলারদেরও।

বিশ্বকাপের আগে বুধবার আইসিসির হালনাগাদকৃত সর্বশেষ র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করেছে। যেখানে ব্যাটার ও বোলারদের শীর্ষ অবস্থানে তেমন পরিবর্তন হয়নি। স্বাভাবিকভাবে সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটটিতে বাংলাদেশি ক্রিকেটারদের অবস্থানও শীর্ষ সারিতে থাকার কথা নয়। দলীয় সাফল্যই যে সেভাবে তাদের পক্ষে নেই। তবে আগের অবস্থান থেকেও পিছিয়ে গেছেন সাকিব আল হাসান, নাজমুল হোসেন শান্ত, লিটন দাস, তাসকিন আহমেদ ও শরিফুল ইসলামরা।টি-টোয়েন্টি ব্যাটারদের র‌্যাঙ্কিংয়ে বাংলাদেশের শীর্ষ ব্যাটসম্যান ছিলেন লিটন। সাম্প্রতিক সময়ে নিজেকে হারিয়ে খোঁজা এই উইকেটরক্ষক ব্যাটার এখনও শীর্ষেই আছেন, তবে র‌্যাঙ্কিংয়ে পিছিয়ে গেছেন ৫ ধাপ। টি-টোয়েন্টি ব্যাটিংয়ে তিনি ৩৫ থেকে ৪০–এ নেমে গেছেন। এ ছাড়া যুক্তরাষ্ট্র ও জিম্বাবুয়ে সিরিজে লিটনের মতোই রান পাননি সাকিব–শান্তরাও। ফলে শান্ত ৪ ধাপ পিছিয়ে ৪৫, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ২ ধাপ পিছিয়ে ৭৭ এবং সাকিব ৩ ধাপ পিছিয়ে ৮২ নম্বরে নেমে গেছেন। জাতীয় দলে অনিয়মিত আফিফ হোসেন পিছিয়েছেন ১০ ধাপ (৮৮)।

টাইগার ক্রিকেটারদের এমন র‌্যাঙ্কিং বিপর্যয়ের মাঝে ব্যতিক্রম তাওহীদ হৃদয়, তানজিদ হাসান তামিম, মুস্তাফিজুর রহমান ও রিশাদ হোসেন। সাম্প্রতিক সময়ে সবচেয়ে টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের সবচেয়ে ধারাবাহিক ব্যাটার হৃদয়। জিম্বাবুয়ে সিরিজে অভিষেকের পর এখন পর্যন্ত ৭ ম্যাচে তিনটি ফিফটি করেছেন তরুণ ওপেনার তামিমও। এমন পারফরম্যান্সের সুবাদে হৃদয় ১২ ধাপ এগিয়ে ৬০ এবং তানজিদ ৩৪ ধাপ এগিয়ে ৮৭ নম্বরে ওঠে এসেছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে ক্যারিয়ারসেরা ১০/৬ বোলিং ফিগার পেয়েছিলেন মুস্তাফিজ। বোলারদের র‌্যাঙ্কিংয়ে তিনি ২ ধাপ এগিয়ে উঠেছেন ২৩ নম্বরে। বাংলাদেশি বোলারদের মধ্যে ফিজের অবস্থানই সবার ওপরে। এ ছাড়া বোলারদের র‌্যাঙ্কিংয়ে লেগস্পিনার রিশাদও বড় লাফ দিয়েছেন। ৩৮ ধাপ এগিয়ে ৫২ নম্বরে উন্নীত হয়েছেন তিনি। এ ছাড়া পেসার হাসান মাহমুদ ১ ধাপ (৫৬) এগিয়েছেন।

তবে তাসকিন–শরিফুলদের অবস্থান দেখে হতাশ হতেই পারেন টাইগার ক্রিকেটভক্তরা। যদিও তাসকিন ইনজুরির কারণে কিছুটা অনিয়মিত সাম্প্রতিক টি-টোয়েন্টিতে, কাঙ্ক্ষিত পারফর্ম করতে পারেননি শরিফুলও। তাসকিন ৫ ধাপ পিছিয়ে ২৮, সাকিব ১ ধাপ পিছিয়ে ৩১, শেখ মেহেদী ৩ ধাপ পিছিয়ে ৩২, শরিফুল ৩ ধাপ পিছিয়ে ৪৫ এবং অনিয়মিত নাসুম আহমেদ ১০ ধাপ পিছিয়ে নেমে গেছেন ৫৫ নম্বরে।

অন্যদিকে, ব্যাটসম্যানদের র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে থেকেই বিশ্বকাপ শুরু করবেন সূর্যকুমার যাদব। বোলারদের র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে আছেন ইংল্যান্ডের আদিল রশিদ। তবে বিশ্বকাপ শুরুর আগে পাকিস্তান সুখবর নিয়েই যুক্তরাষ্ট্রে পা রাখতে যাচ্ছে। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে একটি ম্যাচে ২১ বলে ৪৫ রানের ইনিংস খেলা ফখর জামান ৬ ধাপ এগিয়ে ব্যাটিংয়ের ৫১ নম্বরে উঠে এসেছেন। ৩ উইকেট নেওয়া শাহিন শাহ আফ্রিদি এগিয়েছেন ৩ ধাপ, আছেন যৌথভাবে ১১ নম্বরে। স্পিনার ইমাদ ওয়াসিম ১৯ রানে ২ উইকেট নিয়ে ১৪ ধাপ এগিয়েছেন, আছেন ৩৮ নম্বরে।

একই সিরিজে ৮৪ রানের একটি ইনিংস খেলে ইংলিশ অধিনায়ক জস বাটলার সাতে উঠে গেছেন। ৮ ধাপ এগিয়ে জনি বেয়ারেস্টো হয়েছেন ৩৬তম। এ ছাড়া দক্ষিণ আফ্রিকা-ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজের সুবাদে বড় লাফ দিয়েছেন ক্যারিবীয় ক্রিকেটাররাও। সিরিজে সর্বোচ্চ ১৫৯ রান করে ব্র্যান্ডন কিং ৫ ধাপ এগিয়ে উঠে এসেছেন ৮ নম্বরে। জনসন চার্লস এগিয়েছেন ১৭ ধাপ, অবস্থান ২০ নম্বরে। বাঁ-হাতি কাইল মায়ার্স ১২ ধাপ এগিয়ে ৩১ নম্বরে আছেন। প্রোটিয়াদের বিপক্ষে ৮ উইকেট নিয়ে সিরিজসেরা হয়েছেন গুদাকেশ মোতি। সিরিজ শুরুর আগে ১০০–এর বাইরে থাকা এই ক্রিকেটার ২৭তম স্থানে উঠে গেছেন।

 

 

শহিদ

×