ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১

টেস্ট অভিষেক

আন্তর্জাতিক যাত্রা শুরু শাহাদাতের

স্পোর্টস রিপোর্টার

প্রকাশিত: ০০:৪৮, ২৯ নভেম্বর ২০২৩

আন্তর্জাতিক যাত্রা শুরু শাহাদাতের

শাহাদাত হোসেন দিপুর

প্রায় ৪ বছর হতে চলেছে যুব বিশ্বকাপ জয়ের স্বাদ পেয়েছেন। সতীর্থ অনেকেই জাতীয় দলের হয়ে অনেকগুলো ম্যাচ খেলেছেন। তবে অপেক্ষায় থাকতে হয়েছে অন্যদের চেয়ে তুনামূলক বয়সে কম শাহাদাত হোসেন দিপুর। যদিও আফগানিস্তানের বিপক্ষে একমাত্র টেস্টের দলে সুযোগ পান মিডলঅর্ডার এই ব্যাটার। লঙ্গার ভার্সনে যথেষ্ট প্রতিশ্রুতিশীল এই ক্রিকেটারের তখন অভিষেক হওয়ার উজ্জ্বল সম্ভাবনা থাকলেও শেষ পর্যন্ত হয়নি। অবশেষে সেই মাহেন্দক্ষণ এসেছে।

মঙ্গলবার সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টেস্টেই অভিষেক হয়েছে এই ২১ বছর বয়সী ব্যাটারের। তাকে ক্যাপ পরিয়ে দেন সাবেক অধিনায়ক মুমিনুল হক সৌরভ। বাংলাদেশের ১৩৯তম টেস্টে ১০২ নম্বর টেস্ট ক্রিকেটার হিসেবে যাত্রা শুরু হয়েছে তার। তবে অভিষেকটা রাঙাতে পারেননি। প্রথম ইনিংসে ৬ নম্বরে নেমে ৫৪ বলে ৩ চারে ২৪ রান করেই সাজঘরে ফিরেছেন। 
প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে বেশ দুর্দান্ত পারফর্ম করছেন কিছুদিন ধরে শাহাদাত। সেই ধারাবাহিকতায় আফগানদের বিপক্ষে প্রথমবার জাতীয় দলে ডাক পেয়ে যান। সেটিও আবার মর্যাদার টেস্ট দলে। কিন্তু অভিষেক হয়নি। এবার ঘরের মাটিতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে আসন্ন দুই টেস্টের সিরিজের দলে তিনি ডাক পেয়েছেন আবার। সাকিব আল হাসান, লিটন কুমার দাস না থাকায় অভিষেক হওয়াটা অনেকখানিই নিশ্চিত হয়ে যায় তার। মিডল অর্ডারে প্রথম শ্রেণির ম্যাচগুলোয় বেশ আলো ছড়ানো শাহাদাতের ওপর আস্থা তৈরি হয় নির্বাচকদের।

শেষ পর্যন্ত অভিষেক ক্যাপ পেয়েছেন। ২০২০ সালের অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ^কাপজয়ী দলের অন্যতম সদস্য তিনি। সেই দলের বাঁহাতি পেসার শরিফুল ইসলাম, তাওহিদ হৃদয়, তানজিদ হাসান তামিম ও শামীম হোসেনরা ওয়ানডে ও টি২০ দলে অনেক আগে থেকেই খেলছেন। এর মধ্যে সবার পরে তানজিদ কিছুদিন আগে যাত্রা শুরু করেছেন ওয়ানডে ক্রিকেট দিয়ে। সর্বশেষ শাহাদাত যোগ হলেন টেস্টে। অবশ্য তারই সতীর্থ মাহমুদুল হাসান জয় বেশ আগে থেকেই টেস্ট খেলতে শুরু করেছেন। বাঁহাতি পেসার শরিফুল ৩ ফরম্যাটেই সবচেয়ে বেশি ম্যাচ খেলেছেন।

২২টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচে ৪০ ইনিংস ব্যাট করে ৩৬.৩৯ গড়ে ২ সেঞ্চুরি ও ১১ ফিফটিতে ১৩৮৩ রান করেছেন শাহাদাত। এবার স্বপ্নের টেস্ট অভিষেক হওয়ার পর সামনে এগিয়ে যাওয়ার লড়াই চাঁদপুরের এই ক্রিকেটারের। শুরুটা অবশ্য দলের বেশ ভালো অবস্থান থাকার সময়েই করতে পেরেছেন। কিন্তু মজবুত ভিতে দাঁড়িয়ে বেশ ধৈর্য দেখিয়ে ব্যাট চালাতে চালাতেই খেই হারিয়েছেন। অন্যরা যখন ব্যর্থতার মিছিলে ছিলেন, সেই স্রোতে যোগ দিয়েছেন শাহাদাতও। তিনি ৫৪ বলে ৩ চারে ২৪ রান করার পর গ্লেন ফিলিপসের অফস্পিনে মিড উইকেটে সহজ ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফিরেছেন প্রথম ইনিংসে। তবে ক্ষুদ্র এই ইনিংসেই পঞ্চম উইকেটে মুশফিকুর রহিমের সঙ্গে ২৬, ষষ্ঠ উইকেটে মেহেদি হাসান মিরাজের সঙ্গে ২৩ ও সপ্তম উইকেটে নুরুল হাসান সোহানের সঙ্গে ২৮ রানের জুটি গড়েছেন শাহাদাত।

×