ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

ইজিটাল টেকনোলজিস লিমিটেড: বাংলাদেশের আইটি খাতে নতুন তারকা

প্রকাশিত: ১০:৪২, ২২ মার্চ ২০২৩; আপডেট: ১৭:৫০, ২৩ মার্চ ২০২৩

ইজিটাল টেকনোলজিস লিমিটেড: বাংলাদেশের আইটি খাতে নতুন তারকা

ইজিটাল আইটি কোম্পানির কর্মীরা 

২০১৯ সাল থেকে যাত্রা শুরু হওয়া আইটি প্রতিষ্ঠান ইজিটাল টেকনোলজিস লিমিটেড বর্তমানে দেশের অন্যতম প্রতিষ্ঠিত আইটি কোম্পানি গুলোর একটি।

ইজিটালের যাত্রা শুরু হয় ফরিদপুর জেলার ভাংগা উপজেলায় মাত্র ৬০ বর্গফুটের অফিসে এক স্বপ্ন বাজ তরুণের হাতে।

কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা নওশীদ আলম সায়েম জানান, '৬০ বর্গফুটের ছোট্ট অফিস থেকে ৬০০০ বর্গফুটের আজকে ইজিটালের এই অবস্থানে আসার যাত্রা মোটেও সহজসাধ্য ছিল না' প্রাথমিক সীমাবদ্ধতা পেরিয়ে স্বল্প সময়ে সময়ে ইজিটাল নিজের শক্ত অবস্থান তৈরি করেছে।

২০২২ সালে বাংলাদেশ এসোসিয়েশন অফ সফটওয়্যার এন্ড ইনফরমেশন সার্ভিস (বেসিস) এর সদস্য পদ লাভ করা প্রতিষ্ঠানটিতে বর্তমানে কর্মরত আছেন অর্ধশতাধিক মেধাবী আইটি বিশেষজ্ঞ। ইজিটালে ওয়েব ডেভলপমেন্ট টিম, মোবাইল-এর জন্য আছে আইওএস ও অ্যান্ড্রয়েড টিম, ডিজিটাল মার্র্কেটিং ও এসইও টিম, ইউআই/ ইউএক্স ও গ্রাফিক্স টিম, ডাটা এন্ট্রি অপারেটোর টিম, আছে শপিফাই ও ওয়ার্ডপ্রেস টিম, মাইক্রোসার্ভিস আর্কিটেকট টিম , সলুশোন আর্কিটেকট টিম, এডব্লিউএস এক্সপার্ট টিম। এছাড়া রিসার্চ এন্ড ডেভোলপপমেন্ট টিমের হাত ধরে প্রতিনিয়ত নতুন প্রযুক্তি নিয়ে কাজ করছে ইজিটাল।

ইজিটালের তৈরি কৃত রাইড শেয়ারিং, ফুড ডেলিভারি, এনএফটি মার্র্কেটপ্লেস, ই-কমার্স, ফিনটেক ছাড়াও নানান প্লাটফর্ম ইতোমধ্যে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ব্যবহৃত হচ্ছে। বর্তমানে প্রতিষ্ঠানটি ৩০ টিরও অধিক দেশে প্রযুক্তি সেবা দিয়ে যাচ্ছে। এ ছাড়াও প্রতিষ্ঠানটি সফ্টওয়্যার কোয়ালিটি এসুরেন্স এবং সাইবার সিকিউরিটি সেবা প্রদানের পাশাপাশি কাজ করছে ব্লকচেইন ও আর্র্টিফিসিয়াল ইন্টেলিজেন্স নিয়ে।

ব্লকচেইন ডিপার্টমেন্ট প্রধান মোঃ মাইনুল ইসলাম রনি বলেন 'আমরা বিশ্বব্যাপী ব্লকচেইন সেবা প্রদানে নিরলস কাজ করে যাচ্ছি। আন্তর্জাতিক মানদন্ড বজায় রেখে আমরা তৈরি করছি ডিঅ্যাপস, এনএফটি ভিত্তিক মার্কেটপ্লেস '

অপরদিকে ডিজিটাল মার্কেটিং-এর প্রধান মোঃ আশরাফী জানান, 'ইজিটালের পারস্পরিক শিক্ষার পরিবেশ বিভিন্ন সমস্যা সমাধানে সৃজনশীল ভাবে কাজ করতে অনুপ্রেণীত করছে । এখানে প্রত্যেককে নতুন প্রযুক্তির সাথে আপ টু ডেটেড রাখার পাশাপাশি প্রতিনিয়ত প্রশিক্ষণ এবং নতুন চ্যালেঞ্জ দেয়া হয়।' গ্রাহকের চাহিদা মোতাবেক গুণগত ও মানসম্পন্ন কাস্টমাইজড সফটওয়্যার তৈরি করে থাকে ইজিটাল।

প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার মতে, উন্নত বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে নতুন প্রযুক্তি উদ্ভাবন এবং বিশ্ব মানের প্রতিষ্ঠান হওয়ার উদ্দেশ্যে নতুন চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করাই ইজিটালের মূল লক্ষ্য

টিএস

×