ঢাকা, বাংলাদেশ   শুক্রবার ১৪ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

স্বাস্থ্যসম্মত ইফতারের ১২ নির্দেশনা

​​​​​​​স্টাফ রিপোর্টার

প্রকাশিত: ২৩:৫৬, ২৬ মার্চ ২০২৩

স্বাস্থ্যসম্মত ইফতারের ১২ নির্দেশনা

.

পবিত্র রমজান মাসে নিরাপদ স্বাস্থ্যসম্মত ইফতার সামগ্রী তৈরি, সংরক্ষণ এবং পরিবেশনের ক্ষেত্রে ১২টি নির্দেশনা দিয়েছে বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ (বিএফএসএ) রবিবার প্রতিষ্ঠানটি নির্দেশনা দিয়েছে।

বিএফএসএ যেসব বিষয়ে নির্দেশনা দিয়েছে সেগুলো হলো- খোলা, অস্বাস্থ্যকর নোংরা পরিবেশে ইফতার সামগ্রী তৈরি পরিবেশন থেকে বিরত থাকা। বাসি বা পচা খাদ্যোপকরণ দিয়ে ইফতার সামগ্রী তৈরি না করা। সব ধরনের খাদ্য খাদ্যোপকরণ স্বাস্থ্যসম্মতভাবে ঢেকে রাখা। হিমায়িত খাবার-১৮ ডিগ্রি সে. নিচের তাপমাত্রায়, ঠান্ডা খাবার ডিগ্রি সে. নিচের তাপমাত্রায় এবং গরম খাবার ৬০ ডিগ্রি সে. ওপরের তাপমাত্রায় সংরক্ষণ করতে হবে। ইফতার সামগ্রী- যেমন পেঁয়াজু, চপ, বেগুনি, জিলাপি, বুন্দিয়া, ফিরনি ইত্যাদি তৈরিতে অননুমোদিত রং, সুগন্ধি বা অন্যান্য সংযোজন দ্রব্য ব্যবহার থেকে বিরত থাকা। যে কোনো ধরনের শরবত বা পানীয় তৈরিতে অনিরাপদ পানি বা বরফ, অননুমোদিত সুগন্ধি, রং ইত্যাদি ব্যবহার থেকে বিরত থাকতে হবে। রান্নায় বিশুদ্ধ বা ভেজালমুক্ত তেল ব্যবহার করুন এবং একই তেল বারবার ব্যবহার করা যাবে না। অপরিপক্ব ফল পাকাতে অননুমোদিত রাসায়নিক দ্রব্য ব্যবহার থেকে বিরত থাকতে হবে। খাদ্যদ্রব্য মোড়ক করতে খবরের কাগজ বা ব্যবহৃত কাগজের তৈরি মোড়ক ব্যবহার করবেন না। অসুস্থ বা ছোঁয়াচে ব্যাধিতে আক্রান্ত কোনো ব্যক্তির মাধ্যমে খাদ্যদ্রব্য প্রস্তুত, পরিবেশন বিক্রি করা যাবে না।  ইফতার সামগ্রী প্রস্তুত পরিবেশনে নিয়োজিত খাদ্য কর্মীরা আবশ্যিকভাবে গ্লাভস, মাস্ক হেড কভার পরিধান করতে হবে। উৎস শনাক্তকরণের প্রয়োজনে খাদ্যদ্রব্য উৎপাদনে ব্যবহৃত উপকরণ ক্রয়ের রশিদ বা চালান খাদ্যদ্রব্যের মেয়াদ শেষ হওয়ার ন্যূনতম মাস পর্যন্ত সংরক্ষণ করবেন।

×