ঢাকা, বাংলাদেশ   শুক্রবার ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘শো অফ’ করলেই পেতে হবে শাস্তি 

প্রকাশিত: ১২:১১, ২১ মে ২০২৪

সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘শো অফ’ করলেই পেতে হবে শাস্তি 

চীনে আরও গুরুত্বপূর্ণ, সুস্থ এবং ঐক্যবদ্ধ সামাজিক পরিবেশ সৃষ্টির লক্ষ্যে এই শুদ্ধি অভিযান।

চীনে ধনসম্পদ থাকলেই লোকজনকে তা দেখানোর জন্য সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট দেওয়া যাবে না। জানা গেছে, নিজের ব্যক্তিগত সম্পদ ও বিলাসবহুল জীবনযাপনের কোনো পোস্ট সোশ্যাল মিডিয়ায় দিলে শাস্তি হিসেবে পোস্টটি ডিলিট করে দেবে কর্তৃপক্ষ। এমনকি অ্যাকাউন্ট বন্ধ করাও হতে পারে। চীনা গণমাধ্যম দ্য কাভারের বরাতে এসব তথ্য জানায় ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান।

দেশটির জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া উইবো গত সপ্তাহে এক বিবৃতিতে জানায়, চলতি মাসজুড়ে বিলাসবহুল মূল্যভিত্তিক সামগ্রীর প্রদর্শন বন্ধ রাখতে কাজ করা হচ্ছে। এর মধ্যে রয়েছে অর্থসম্পদ দেখানোর উদ্দেশ্য বা অর্থের বড়াই করে দেওয়া কনটেন্ট বা পোস্ট সরানোর মতো পদক্ষেপও।

আরও পড়ুন : গাজায় গণহত্যা চালাচ্ছে না ইসরায়েল: বাইডেন

উইবো ছাড়াও এ ধরনের পদক্ষেপ নেওয়া অন্য সোশ্যাল মিডিয়ার মধ্যে রয়েছে টেনসেন্ট, ডোউইন ও শিয়াওহোংসু। এসব প্ল্যাটফর্মের পক্ষ থেকেও এ ধরনের বিবৃতি দেওয়া হয়েছে। 

চীনে আরও গুরুত্বপূর্ণ, সুস্থ এবং ঐক্যবদ্ধ সামাজিক পরিবেশ সৃষ্টির লক্ষ্যে এই শুদ্ধি অভিযান। এর মাধ্যমে সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীদের আরও মানসম্মত, সত্যনিষ্ঠ ও ইতিবাচক মূল্যবোধসম্পন্ন কনটেন্ট পোস্ট করতে উৎসাহ দেওয়া হচ্ছে। 

ডোউইন জানায়, গত ১ থেকে ৭ মের মধ্যে ৪ হাজার ৭০১ পোস্ট ও ১১টি অ্যাকাউন্ট সরিয়েছে তারা। শিয়াওহোংসু বলছে, তারা গত দুই সপ্তাহে ৪ হাজার ২৭২টি অবৈধ কনটেন্ট ডিলিট ও ৩৮৩ অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দিয়েছে। উইবো জানায়, তারা ১ হাজার ১০০ কনটেন্ট সরিয়েছে। 

চীনা কর্তৃপক্ষের সোশ্যাল মিডিয়ায় শুদ্ধি অভিযানের অংশ হিসেবে এমন নিয়মকানুন বাস্তবায়ন শুরু করেছে প্ল্যাটফর্মগুলো। ২০১৬ সালে ইন্টারনেট সংস্কৃতির পরিবেশ সুন্দর করতে এ উদ্যোগ গ্রহণ করে কর্তৃপক্ষ।

এবি 

সম্পর্কিত বিষয়:

×