মঙ্গলবার ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৪ মে ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

নীলফামারীতে ভ্রাম্যমান আদালতে ৩৪ জনের দণ্ড

নীলফামারীতে ভ্রাম্যমান আদালতে ৩৪ জনের দণ্ড

স্টাফ রিপোর্টার, নীলফামারী ॥ নীলফামারীতে করোনা সংক্রমণ রোধে সরকারের দেওয়া ১১ দফা বিধিনিষেধ পালনে প্রশাসনের পক্ষে ব্যাপক প্রচারনা ও জনসচেতনতা উপেক্ষা করে অধিকাংশ মানুষই ইচ্ছা মতো চলাচল করছেন। কারও মধ্যেই স্বাস্থ্যবিধি মানার ক্ষেত্রে কোনো আগ্রহ নেই। অধিকাংশের মুখে নেই মাস্ক। হোটেল ও দোকানগুলোতে বেচাকেনা হচ্ছে স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষা করে। ফলে নিয়ম অনুযায়ী জেলা প্রশাসনের পক্ষে ভ্রাম্যমান আদালত এবার কঠোর ভাবে মাঠে নেমেছে।

আজ বৃহস্পতিবার (২৭ জানুয়ারী) অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মির্জা মুরাদ হাসান বেগ জানান, আমরা মাঠে ভ্রাম্যমান আদালনের মাধ্যমে অভিযান পরিচালনা করছি। সংক্রমণ রোগ আইন, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন, মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন, সড়ক পরিবহন আইনে কারাদন্ড ও অর্থদন্ড করছেন ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটগণ। তিনি জানান গত ২৪ ঘন্টায় ৩৩টি মামলায় ৩৪জনের কাছ থেকে ৭৬ হাজার ৩৫০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে। এরমধ্যে সদরে একজনের সাতদিনের এবং জলঢাকায় দুইজনের তিনমাস করে কারাদণ্ড দেয়া হয়। এরমধ্যে নীলফামারী সদর উপজেলায় দুটি ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ৫টি মামলায় ৫জনের কাছ থেকে ১৮হাজার ১শ টাকা, ডিমলা উপজেলায় দুটি ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ১২টি মামলায় ১২জনের কাছ থেকে ২২ হাজার ৮৫০শ টাকা, জলঢাকা উপজেলায় ১টি ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ১টি মামলায় ২জনের কাছ থেকে ২০০টাকা, ডোমার উপজেলায় ১টি ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ১০টি মামলায় ১০জনের কাছ থেকে ৭৬০০টাকা, সৈয়দপুর উপজেলায় ১টি ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ৫টি মামলায় ৫জনের কাছ থেকে ১হাজার ৫’শ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। এছাড়া বিনামুল্যে ৭৫৬টি মাস্ক বিতরণ এবং ১০টি জনসচেতনতা মুলক কার্যক্রমে অংশ নেয় ভ্রাম্যমান আদালত।

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের কন্ট্রোল রুম সূত্র মতে, নীলফামারীতে গত ২৪ ঘণ্টায় ১০০ নমুনায় ৩০ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছে। এ পর্যন্ত চিকিৎসাধীন আছে ২১৫ জন। হাসপাতালে ৫ জন ও বাকীরা নিজ নিজ বাড়িতে চিকিৎসাধীন রয়েছে বলে জানানো হয়।

শীর্ষ সংবাদ:
বাংলাদেশে কোনো মাঙ্কিপক্স রোগী শনাক্ত হয়নি ॥ উপাচার্য         ছাত্রলীগ-ছাত্রদলের সংঘর্ষে উত্তপ্ত ঢাবি, আহত ৩০         দেশে ২৬ কোটি ৪ লাখ ৩৫ হাজার টিকা প্রয়োগ সম্পন্ন         হাইকোর্টের সাজার বিরুদ্ধে হাজী সেলিমের আপিল         রিজার্ভ বাড়াতে মরিয়া ॥ নানামুখী কৌশল সরকারের         আঞ্চলিক সঙ্কট মোকাবেলায় প্রধানমন্ত্রীর পাঁচ প্রস্তাব         শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে দুই সেঞ্চুরিতে বাংলাদেশের দিন         রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন দুঃস্বপ্ন         দুর্নীতির মামলায় কারাগারে ওসি প্রদীপের স্ত্রী         একগুচ্ছ প্রণোদনায় ঘুরে দাঁড়াল শেয়ারবাজার         প্রভাবশালীদের দখলে উত্তরবঙ্গের অর্ধেক খাস জমি         সিলেটে বন্যাকবলিত এলাকায় খাবার পানির তীব্র সঙ্কট         মাঙ্কিপক্স নিয়ে সব বিমানবন্দরে সতর্ক অবস্থা         গম নিয়ে রাশিয়ার সঙ্গে বোঝাপড়ায় আগ্রহী আমদানিকারকরা         পদ্মা সেতু নিয়ে বড়াই করা উচিত নয় ॥ ফখরুল         শিক্ষক ও বিমানবাহিনীর সদস্যসহ সড়কে প্রাণ গেল ১৫ জনের         প্রমাণ ছাড়া স্বাস্থ্যকর পুষ্টিকর বলে প্রচার করা যাবে না         ফখরুলের বক্তব্য নতুন ষড়যন্ত্রের বহির্প্রকাশ ॥ কাদের         প্রস্তুত স্বপ্নের পদ্মা সেতু         পাম তেল রপ্তানিতে ইন্দোনেশিয়ার নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার