শুক্রবার ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২৭ নভেম্বর ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ইব্রাহিমের প্রতিশ্রুতি

ইব্রাহিমের প্রতিশ্রুতি

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ নেপালের বিরুদ্ধে আগামী ১৩ এবং ১৭ নবেম্বর যে দুটি ফিফা ফ্রেন্ডলি ম্যাচ ঢাকায় (বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে) অনুষ্ঠিত হবে, তাতে বাংলাদেশ দলের ৩৬ জনের প্রাথমিক দল ঘোষণা করা হয়েছে, তাদের সর্বাধিক ১৪ জনই হচ্ছেন বসুন্ধরা কিংসের ফুটবলার। অনুশীলন ক্যাম্প কদিন আগে শুরু হলেও বুধবারই প্রথম ক্যাম্পে হাজিরা দিয়ে অনুশীলন করেন কিংসের ফুটবলাররা। দীর্ঘ বিরতির পর আবারও জাতীয় দলের ব্যানারে যুক্ত হতে পেরে আবারও উৎফুল্ল তারা। লক্ষ্যও ঠিক করে ফেলেছেন তারা। চান নেপালের বিরুদ্ধে দুটি মাচেই জয় কুড়িয়ে নিতে। এমনটাই জানিয়েছেন বসুন্ধরা কিংসের তরুণ-কুশলী মিডফিল্ডার মোহাম্মদ ইব্রাহিম। বুধবার কমলাপুরের বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে অনুশীলন শেষে তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, ‘করোনার কারণে দীর্ঘদিন আমরা ঘরোয়া ও আন্তর্জাতিক ফুটবল খেলতে পারিনি। এখন অবেশেষে নেপালের বিরুদ্ধে দুটি ফিফা প্রীতি ম্যাচ খেলার মাধ্যমে আমরা মাঠে ফিরতে যাচ্ছি। করোনাকালীন দীর্ঘ প্রায় সাত মাস আমরা মাঠের খেলায় না থাকলে একেবারে ঘরে বসে ছিলাম না। আমাদের শিডিউল দেয়া ছিল কিভাবে আমরা ট্রেনিং করে শরীরের ফিটনেস ধরে রাখতে পারি, কি কি খেলে উপকার হবে, জীবন-যাপন প্রণালী কেমন হবে। সেই নিদের্শনাগুলোই আমরা পালন করার চেষ্টা করেছি।’ ইব্রাহিম আরও যোগ করেন, ‘যেহেতু করোনার পরে আমরা খেলতে নামছি, কাজেই দেশবাসীর প্রত্যাশা থাকবে আমাদের ঘিরে। তাদের সেই প্রত্যাশার প্রতিদান দিতে আমরা আপ্রাণ চেষ্টা করবো। চাইবো দুটি ম্যাচেই নেপালকে হারিয়ে দিতে।’

৩৬ জনের প্রাথমিক দল থেকে আরও কেটেছেঁটে কোচ জেমি ডে চূড়ান্ত দল গঠন করবেন কদিন বাদেই। ইব্রাহিম মনে করেন, ‘চূড়ান্ত দল তো বটেই, প্রথম একাদশেও জায়গা করে নেয়াটা হবে তার জন্য অনেক চ্যালেঞ্জিং। অবশ্য এটা বাকী সবার জন্যও একইভাবে প্রযোজ্য। এ প্রসঙ্গে তার ভাষ্য, ‘করেনোর কারণে আমর সবাই ফুটবলের বাইরে ছিলাম। যতই কোচ বা ম্যানেজমেন্টের নির্দেশনা মেনে অনুশীলন করে থাকি না কেন, বাস্তবতা হচ্ছে কেউই আমরা শতভাগ ফিট থাকতে পারিনি। এখন তাই ফিটনেস ঠিক করে মূল দলে জায়গা করে নেয়াটাই হচ্ছে সবচেয়ে বড় ব্যাপার। ফাইট করেই সবাইকে বেস্ট ইলেভেনে জায়গা করে নিতে হবে।'

শীর্ষ সংবাদ:
হালাল খাদ্যে বিশ্বজয়ের স্বপ্ন ॥ বছরে ৮৫ হাজার কোটি টাকা আয়ের টার্গেট         অপরাধী যে দলেরই হোক ব্যবস্থা নিতে হবে         অনুপ্রেরণার বাতিঘর হয়েই বেঁচে থাকবেন ম্যারাডোনা         সঙ্কট মোকাবেলা করে ফের উচ্চ প্রবৃদ্ধির ধারায় ফিরে আসবে দেশ         কিছু মসজিদ ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নজরদারি বাড়ানো হয়েছে         র‌্যাঙ্কিংয়ে এশিয়ায় সেরা-তালিকায় দেশের ১১ ভার্সিটি         রাজধানীর জলাবদ্ধতা দূর করার দায়িত্ব পাচ্ছে সিটি কর্পোরেশন         দেশে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে ॥ কমেছে মৃত্যু         মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিত করতে রাজধানীর চার স্পটে র‌্যাবের অভিযান         পাকিস্তান সন্ত্রাসী রাষ্ট্র, জামায়াত সন্ত্রাসী সংগঠন         পেনসিলভানিয়ায় ভোট সার্টিফিকেশনের ওপর আদালতের নিষেধাজ্ঞা         ‘বিদেশ যাত্রা’ নামে অনলাইন প্ল্যাটফর্ম সেবা চালু         করোনায়ও থেমে নেই খাদ্যে ভেজাল, বিশুদ্ধ পানিও মেলা ভার         ৯ কোটি টাকার সাপের বিষসহ পাচার চক্রের ২ জন গ্রেফতার         ডিএসসিসির মশক সুপারভাইজরসহ ৬ জন চাকরিচ্যুত         বাংলাদেশ-ভারত স্বরাষ্ট্র সচিব পর্যায়ের বৈঠক স্থগিত         নতুন বছরের মার্চে আবাসিকে নতুন গ্যাস সংযোগ         পৃথিবীর অনেক মুসলিম দেশেই ভাস্কর্য রয়েছে : মতিয়া চৌধুরী         মানবমূর্তি নির্মাণ বন্ধের হুমকি হেফাজত মহাসচিবের         মিয়ানমারের বিরুদ্ধে মামলা চালাতে গাম্বিয়াকে আর্থিক সহায়তা দেবে ওআইসি