রবিবার ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৯ আগস্ট ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

কূটনীতিকপাড়ায় নিরাপত্তা জোরদার

কূটনীতিকপাড়ায় নিরাপত্তা জোরদার

স্টাফ রিপোর্টার ॥ জঙ্গী হামলার আশঙ্কায় ঢাকার অভিজাত এলাকা গুলশানের কূটনৈতিকপাড়ায় নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। রোহিঙ্গা ইস্যু ও দেশের বৃহত্তম শোলাকিয়া ঈদগা ময়দানে জঙ্গী হামলার তিক্ত অভিজ্ঞতার সূত্রধরেই জোরদার করা হলো নিরাপত্তা। ইতোমধ্যেই গুলশানে নতুন করে বসানো হয়েছে কয়েক হাজার সিসি ক্যামেরা। থানাসহ প্রায় সকল স্থাপনায় সিসি ক্যামেরা বসেছে। যার অধিকাংশই পুলিশ, র‌্যাব ও গোয়েন্দা সংস্থাগুলোর তরফ থেকে বসানো হয়েছে। বিশেষ নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে ঢাকাস্থ মার্কিন দূতাবাস ও ভারতীয় দূতাবাসে। যদিও অন্যান্য দূতাবাস ও চ্যান্সারি অফিস ঘিরেও কঠোর নিরাপত্তাবলয় গড়ে তোলা হয়েছে।

গত ১৯ জুলাই জঙ্গী হামলার আশঙ্কায় সারাদেশের পুলিশের সকল ইউনিটকে বিশেষভাবে সতর্ক থাকতে চিঠি দেয় পুলিশ সদর দফতর। বিমানবন্দর, পুলিশের স্থাপনা, দূতাবাস এবং সব উপাসনালয়ের নিরাপত্তাব্যবস্থা জোরদার করতে নির্দেশনা জারি করা হয়। শহর ও শহরতলি এলাকার ভাড়াটেদের তথ্য সংগ্রহ, স্কুল-কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী এবং মাদ্রাসা ও এতিমখানার ওপর নজরদারি বাড়াতে বলা হয়েছে। আন্তর্জাতিক জঙ্গী সংগঠন ইসলামিক স্টেট (আইএস) দেশে নতুন করে তৎপরতা চালানোর চেষ্টা করছে বলে আভাস পেয়েছে গোয়েন্দা সংস্থাগুলো। জঙ্গী সংগঠনটি কথিত ‘বেঙ্গল উলায়াত’ ঘোষণার মধ্য দিয়ে দেশে নাশকতামূলক কর্মকা- চালাতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। বিশেষভাবে বাংলাদেশস্থ মার্কিন, ভারত ও মিয়ানমার দূতাবাসের নিরাপত্তা বিশেষভাবে বাড়ানো হয়েছে। স্থাপনা, বিশিষ্ট ব্যক্তি, শিয়া ও আহমদিয়া মসজিদ, মাজারকেন্দ্রিক মসজিদ, মন্দির, চার্চ ও প্যাগোডার নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। এসব জায়গায় বাড়তি সিসি ক্যামেরা লাগানো হয়েছে। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পোশাক পরিধান করে ছদ্ম বেশে যাতে জঙ্গীরা হামলা চালাতে না পারে এজন্য তল্লাশি, চেকিং ও চেকপোস্ট বাড়ানো হয়েছে।

পুুলিশের এন্টি টেররিজম ইউনিটের প্রধান অতিরিক্ত পুলিশ মহাপরিদর্শক মোঃ কামরুল আহসান জানান, জঙ্গী গ্রেফতারে সাঁড়াশি অভিযান চলছে। দূতাবাসগুলোর ওপর বিশেষ নজরদারি করা হচ্ছে। পুলিশের এন্টি টেররিজম ইউনিটের অতিরিক্ত উপমহাপরিদর্শক মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান জানান, হলি আর্টিজান ও শোলাকিয়ার ঘটনার অভিজ্ঞতা থেকে এবার সারাদেশেই প্রযুক্তিগত নিরাপত্তা বলয় গড়ে তোলা হয়েছে। রোহিঙ্গা ইস্যুর কারণে গুলশানে বিভিন্ন দেশের দূতাবাসের নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে। পুলিশের চ্যান্সারি বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, কূটনৈতিকপাড়ায় থাকা ৪৮টি দেশের দূতাবাসে নিয়মিত পুলিশের পাহারা ও টহল জোরদার করা হয়েছে। সন্ধ্যার পর পুরো গুলশান কঠোর নিরাপত্তা বলয়ের মধ্যে রাখা হয়েছে। দূতাবাস ছাড়াও বেশকিছু স্কুল, বিদেশী অফিসেও নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে। রোহিঙ্গা ইস্যুর কারণে মিয়ানমারসহ প্রায় সব দূতাবাসের সঙ্গেই নিয়মিত বৈঠক হচ্ছে। সার্বিক নিরাপত্তায় দূতাবাসগুলো সন্তোষ্ট প্রকাশ করেছে। গুলশানের বিভিন্ন সড়কে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

করোনাভাইরাস আপডেট
বিশ্বব্যাপী
বাংলাদেশ
আক্রান্ত
১৯৫৬৪৫৮৪
আক্রান্ত
২৫৫১১৩
সুস্থ
১২৫৬০২৯৬
সুস্থ
১৪৬৬০৪
শীর্ষ সংবাদ:
প্রাণ ভিক্ষা চাননি ॥ খুনীদের কাছে         রাজধানী ও আশপাশের এলাকায় কমতে শুরু করেছে পানি         রাঘব বোয়ালরা অধরাই ॥ মানব পাচার         গ্যাসক্ষেত্র কিনে নেয়ার সাহসী সিদ্ধান্ত বঙ্গবন্ধুই নিয়েছিলেন         প্রদীপের প্রাইভেট বাহিনীর তাণ্ডব ওপেন-সিক্রেট         রুশ ভ্যাকসিন আসছে আর মাত্র ৩ দিন পর         বার বার আহ্বান সত্ত্বেও করোনা টেস্টে মানুষের সাড়া মিলছে না         করোনায় আরও ৩২ জনের মৃত্যু         কাল লন্ডন-সিলেট রুটে বিমানের ফ্লাইট চালু হচ্ছে         কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের কারিকুলাম আধুনিক করতে হবে         চুয়াডাঙ্গা ও ময়মনসিংহে বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঝরল ১৩ প্রাণ         স্রোতে শিমুলিয়ার দুটি ঘাট বিলীন ॥ ফেরি চলাচলে অচলাবস্থা, দুর্ভোগ         কাঁচা চামড়া রফতানি নিয়ে দোটানায় বাণিজ্য মন্ত্রণালয়         ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জনের মৃত্যু         মুজিববর্ষে বঙ্গবন্ধুর খুনীর একজনকে দেশে আনার প্রক্রিয়া চলছে ॥ পররাষ্ট্রমন্ত্রী         দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ২৬১১ জনের করোনা শনাক্ত, নতুন মৃত্যু ৩২         মির্জাপুরে দুই মোটরসাইকেল আরোহীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার         কাল থেকে শুরু হচ্ছে একাদশে ভর্তি আবেদন         বঙ্গমাতা ছিলেন জাতির পিতার যোগ্য ও বিশ্বস্ত সহচর ॥ প্রধানমন্ত্রী         বঙ্গমাতা ছিলেন বঙ্গবন্ধুর সার্বক্ষণিক রাজনৈতিক সহযোদ্ধা॥ সেতুমন্ত্রী        
//--BID Records