শনিবার ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৭ নভেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

নতুন বছরের ৪ দিনে ২৪৭ জন ফিরলেন সৌদি আরব থেকে

  • এরা সবাই বৈধ শ্রমিক, উন্নত জীবনের আশায় গিয়েছিলেন

স্টাফ রিপোর্টার ॥ সৌদি আরব থেকে ফিরেছেন আরও একদল বৈধ শ্রমিক। গৃহকর্তার নির্যাতন ও পুলিশী ধরপাকড়ের মুখে তাদের ইচ্ছার বিরুদ্ধে দেশে ফিরতে হয়েছে। এবার এসেছেন ১৫ নারীসহ ১০৬। শনিবার রাত এগারোটা ২০ ও দেড়টায় সৌদি এয়ারলাইন্সের দুটি ফ্লাইটযোগে দেশে ফেরেন তারা। এ নিয়ে চার দিনে ২৪৭ বাংলাদেশী দেশে ফিরলেন। আজ ও আগামীকাল ফেরার অপেক্ষায় রয়েছে আরও দুই শতাধিক। হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তাদের অনেককেই কান্নায় ভেঙ্গে পড়তে দেখা যায়। আর সকল নারীকর্মীর অভিযোগ সেই আগের মতোই। শারীরিক ও মানসিক নির্যাতনের মুখেই তাদের দেশমুখো হতে হয়েছে। সৌদি আরবের ‘সেফ হোমে’ থাকা নারায়ণগঞ্জের সোনিয়া আক্তার ও খাদিজা, সিরাজগঞ্জের রাশেদাসহ ১৫ নারীর সঙ্গে দেশে ফেরেন। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সেলিনা আক্তার ও শামিমা বেগম জানান, গৃহকর্মীর কাজ নিয়ে সৌদি আরব গিয়ে তারা নিয়োগকর্তার শারীরিক ও মানসিক নির্যাতনের শিকার হন। নির্যাতন সইতে না পেরে সেখান থেকে পালিয়ে আশ্রয় নেন জেদ্দায় বাংলাদেশ দূতাবাসের সেফহোমে। মাস চারেক আগে সৌদি গিয়ে টিকতে পারেননি চান্দিনা উপজেলার হানিফ। সৌদিতে তার পাসপোর্টের তিন মাসের এন্ট্রি ভিসার মেয়াদ শেষ হলে মালিক আর আকামা বাড়াননি। কর্মস্থল থেকে রুমে ফেরার পথে পুলিশ ধরলে তাকে দেশে পাঠানো হলো। ফিরেছেন টাঙ্গাইলের হামিদুল্লাহ, কুমিল্লার তোফাজ্জল, সিলেটের শুভ দেবনাথ। তাদের সবার অভিযোগ, আকামা তৈরির জন্য কফিলকে (নিয়োগকর্তা) টাকা দিলেও কফিল আকামা তৈরি করে দেয়নি। পুলিশের হাতে গ্রেফতারের পর কফিলের সঙ্গে যোগাযোগ করলেও দায়িত্ব নিচ্ছে না বরং কফিল প্রশাসনকে বলেন ‘ক্রুশ’ (ভিসা বাতিল) দিয়ে দেশে পাঠিয়ে দিতে। একসঙ্গে এসেছেন শহীদ মিয়া (৪০)। আড়াই বছর আগে সাড়ে চার লাখ টাকা খরচ করে টাইলস ফিটিংয়ের কাজ নিয়ে গিয়েছিলেন সৌদি। দুর্ভাগ্যজনক তাকেও ফিরতে হয়েছে।

ঢাকায় অবতরণের পর বরাবরের মতো ফেরত আসাদের মাঝে ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রাম থেকে খাবার পানিসহ নিরাপদে বাড়ি পৌঁছানোর জন্য জরুরী সহায়তা দেয়া হয়। এ বিষয়ে ব্র্যাক অভিবাসন কর্মসূচীর প্রধান শরিফুল হাসান জানান, ’১৯ সালে ২৪ হাজার ২৮১ বাংলাদেশীকে সৌদি আরব থেকে ফেরত পাঠানো হয়। আর নতুন বছর শুরুর চার দিনে ফিরলেন ২৪৭। ফেরত আসা সবার বর্ণনা প্রায় একই রকম। সবাই ফিরেছেন খালি হাতে। তারা সবাই ভবিষ্যত নিয়ে এখন দুশ্চিন্তায়। একইভাবে ব্যর্থ হয়ে যারা ফিরছেন তাদের পাশে দাঁড়ানো উচিত।

শীর্ষ সংবাদ:
পঞ্চম ধাপে ৭০৭ ইউপিতে নির্বাচন আগামী ৫ জানুয়ারি         গোষ্ঠীগত ও জমিজমার বিরোধে নির্বাচনী সহিংসতা : আইনমন্ত্রী         অর্থপাচারকারীদের নামের তালিকা চেয়েছেন অর্থমন্ত্রী         দ্বিতীয় বৈঠকও নিষ্ফল হাফ ভাড়া         সাবেক ডিসি সুলতানা পারভীনের শাস্তি বাতিল         টঙ্গীতে বস্তি আগুনে পুড়ে ছাই ॥ ভারপ্রাপ্ত মেয়রের খাদ্য সহায়তা         বিশ্ববাজারে কমেছে স্বর্ণের দাম         ভোলায় গুলি করে যুবলীগ নেতা হত্যায় গ্রেফতার ১, ১৬ জনকে আসামী করে মামলা         চট্টগ্রামে ৪.২ স্কেলে ভূমিকম্প         উচ্চ আদালতের বিচারকদের ভ্রমণ ভাতা বাড়াতে প্রস্তাব         শীত মৌসুমের শুরুতে জমে উঠেছে পর্যটন কেন্দ্র         বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে আবারও আইসিইউতে রওশন এরশাদ         কুড়িগ্রামে ৪৩জন পেলেন বিনা টাকায় পুলিশ চাকরি         ওমিক্রন ॥ দক্ষিণ আফ্রিকার সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ         ধানমন্ডির সড়কে শিক্ষার্থীদের অবস্থান, পরীক্ষা করছে চালকের লাইসেন্স         ভাসানচর থেকে পালানোর সময় দালালসহ ২৩ রোহিঙ্গা আটক         গাজীপুরে নারীকে গলা কেটে হত্যা ॥ স্বামী সুজন পলাতক         ‘ওমিক্রন’ করোনাভাইরাসের 'উদ্বেগজনক' নতুন এক ভ্যারিয়েন্ট         টঙ্গী বাজার মাজার বস্তিতে আগুনে ৫ শ' ঘর পুড়ে ছাই         ভূমিকম্পে বিশ্বের অন্যতম ঝুঁকিপূর্ণ অঞ্চল রাজধানী ঢাকা