বুধবার ৩১ আষাঢ় ১৪২৭, ১৫ জুলাই ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

শিক্ষাঙ্গনে ছাত্ররাজনীতি দরকার আছে ॥ অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন

শিক্ষাঙ্গনে ছাত্ররাজনীতি দরকার আছে ॥ অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন

নিজস্ব সংবাদদাতা, সুনামগঞ্জ ॥ “বুয়েটের হত্যাকাণ্ড ছাত্ররাজনীতির কারনে হয় নাই” ছাত্ররাজনীতির অনুপস্থিতিতিতে হয়েছে বলেছেন অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন। তিনি বলেন, অন্যায় এর বিরুদ্ধে দাঁড়াবে কারা, দুঃশাসনের বিরুদ্ধে দাঁড়াবে কারা, অতীতে কারা দাড়িয়েছে বাংলাদেশের যুব শক্তি এবং ছাত্ররাজনীতি। সুতরাং শিক্ষাঙ্গনে ছাত্ররাজনীতি দরকার আছে এবং ছাত্র সংসদ নির্বাচন হতে হবে। বর্তমান ছাত্ররাজনীতিকে শাসক শ্রেনীর দুর্বৃত্ত্বায়ীত অপরাজনীতি। ছাত্ররাজনীতি বন্ধ কোন সমাধান নয়, লেজুরবৃত্তি বন্ধ করতে হবে। ছাত্ররাজনীতি বন্ধর পক্ষে বুয়েটের শিক্ষকরাও আছেন ছাত্ররাজনীতি বন্ধ হলে তাদেরইতো সুবিধা উলেখ করে তিনি বলেন, আপনারা দেখেও দেখবেন না, আপনাদের এখানে টর্চার সেল আছে, এখন যা হচ্ছে তা রাজনীতি না। রাজনীতি থাকলেই বরং তাদের অসুবিধা। আজ শনিবার সুনামগঞ্জ জেলা জাদসের কর্মীসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য দান কালে এসব কথা বলেন। সভায় তিনি আরো বলেন, ৩০ ডিসেম্বরের ভোট ২৯ ডিসেম্বর অনুষ্টানের মধ্য দিয়ে রাজনীতির পাশাপাশি প্রশাসনীক দুর্বৃত্ত্বায়ন পাকাপুক্ত করা হয়েছে। এগুলো করে সেনা শাসকরা, এটা করে জিয়া-এরশাদ। বঙ্গবন্ধু কণ্যা শেখ হাসিনা এটা করতে পারেন না। পুলিস, আমলা, গোয়েন্ধা সংস্থা মনের করে সব কিছুতো আমরা করেছি সরকার আমরাই। দেশর মালিক আমরা। সেই যায়গায় হচ্ছে শঙ্কা। গভির কোন ষড়যন্ত্র দানা বাধছে। সাথে সাথে একথাও সত্য শেখ হাসিনাই মানুষে এখন শেষ ভরসা, সেই এখন (দুর্বৃত্ত্ব-মৌলবাদি) তাদের টার্গট।

জেলা জাসদের সহ সভাপতি একেএম ওয়াহিদুল ইসলাম কবির এর সভাপতিত্বে ও সাবেক সাধারণ সম্পাদক রুহুল তুহিনের সঞ্চালনায় বিশেষ অথিতির বক্তব্য কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নাদের চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা অনোয়ারুল হক, সিলেট জেলা জাসদের সভাপতি লোকমান আহমদ প্রমুখ।

শীর্ষ সংবাদ:
রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান সাহেদ গ্রেফতার         হেলিকপ্টারে ঢাকায় আনা হয়েছে সাহেদকে         যেভাবে গ্রেফতার হলেন সাহেদ         করোনায় যুক্তরাষ্ট্রে একদিনে আক্রান্ত আরও ৬১ হাজার         নিউইয়র্কে পাঠাওয়ের সহ-প্রতিষ্ঠাতা ফাহিম সালেহ খুন         কানাডায় মানবদেহে করোনার ভ্যাকসিনের পরীক্ষামূলক প্রয়োগ শুরু         করোনায় বৈশ্বিক উন্নয়ন পিছিয়ে যাবে বহু বছর ॥ গুতেরেস         জঙ্গি গোষ্ঠীগুলো সম্পর্কে ব্রিটিশ গণমাধ্যমের খবর প্রত্যাখ্যান করল পাকিস্তান         যুক্তরাষ্ট্রে বিদেশি শিক্ষার্থীদের ফেরত পাঠানোর সিদ্ধান্ত বাতিল         জেট স্কি নিয়ে সমুদ্রে ॥ রোনালদোর ছেলের বিরুদ্ধে পুলিশি তদন্ত         আমেরিকার সঙ্গে চীনের নতুন করে উত্তেজনা বাড়ছে         কাতার ইস্যুতে আন্তর্জাতিক আদালতে হেরে গেল সৌদি জোট         ‘আফগানিস্তানের ৫ ঘাঁটি থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার করা হয়েছে’         হোতারা রেহাই পাবে না ॥ স্বাস্থ্য খাতে দুর্নীতির বিরুদ্ধেও জিরো টলারেন্স         উন্নয়ন প্রকল্পে ব্যয়ে সাশ্রয়ী হওয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর         কক্সবাজার-সাতক্ষীরা সুপার ড্রাইভওয়ে হচ্ছে         করোনায় সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ তিন হাজার         সীমান্ত পাড়ি দেয়ার জন্য সাহেদ মৌলভীবাজারে!         করোনার নকল সনদ ॥ সাবরিনার বিরুদ্ধে মামলা         নিয়ন্ত্রণহীন বেসরকারী হাসপাতাল        
//--BID Records