বৃহস্পতিবার ২২ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৬ আগস্ট ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

আবাসন সমস্যা সমাধানে ব্যর্থ হয়ে ডাকসু সদস্য গণরুমে

বিশ্ববিদ্যালয় রিপোর্টার ॥ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতক প্রথম বর্ষে ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের কাছে একটি বড় আতঙ্কের নাম ‘গণরুম’। ঢাবির হলে বসবাস করা প্রতিটি শিক্ষার্থীকে প্রথম বর্ষটি ২৫-৩০ জনের কক্ষে এক সঙ্গে কাটাতে হয়। শিক্ষার্থীদের এই কষ্ট থেকে মুক্তি দেয়ার প্রতিশ্রুতি ডাকসুর সকল সদস্যই তাদের ইশতেহারে লিখেছে। কিন্তু ছয় মাসেও এই দুঃস্বপ্ন থেকে মুক্তি পায়নি শিক্ষার্থীরা। তাই ক্ষমা চেয়ে নিজের বৈধ সিট ছেড়ে ‘গণরুমের’ থাকছেন ডাকসুর সদস্য ও ছাত্রলীগের সাবেক সদস্য তানভীর হাসান সৈকত।

গত ১ সেপ্টেম্বর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কবি জসীমউদ্দীন হলের ২০৮ নং কক্ষে থাকা শুরু করেন তিনি। এই কক্ষে ২৫ জন শিক্ষার্থী গাদাগাদি করে থাকে। এতদিন সৈকত এ হলের ৩২০ নং কক্ষে থাকতেন। নাট্যকলা বিভাগের চতুর্থ বর্ষের এই ছাত্র এখন রাতে গিয়ে গণরুমে ঘুমান। তার আগের সিটে (৩২০ নং কক্ষে) গণরুমে থাকা শিক্ষার্থীরা পালা করে ঘুমাতে যান।

তিনি বলেন, গণরুমই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিটি শিক্ষার্থীর মেধার বিকাশ ঘটাতে প্রথম বাধা। শিক্ষার্থীদের একজন প্রতিনিধি হয়েও এতদিনে এই সমস্যার কোন সমাধান করতে পারিনি। তাই আমি লজ্জিত এবং ক্ষমা প্রার্থী। তাই নিজের বৈধ সিট ছেড়ে দিয়ে গণরুমে থাকার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এই প্রতিবাদের একটি ভাষা।

বৈধকক্ষ ছেড়ে দিয়ে ‘গণরুমে’ চলে আসার পাঁচ দিন পর এই সমস্যা সমাধানের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের কাছে স্মারকলিপি দিয়েছেন ডাকসুর সদস্য সৈকত। স্মারকলিপিতে তিনি বলেন, ঢাবি শিক্ষার্থীরা মৌলিক চাহিদার চতুর্থটি (শিক্ষা) অর্জন করতে এসে অপ্রতুল আবাসন ব্যবস্থার দরুন তৃতীয় মৌলিক চাহিদা (বাসস্থান) মেটাতে পারছে না।

গণরুম সমস্যা সমাধানে তিনি ছয়টি প্রস্তাব দেন। সেগুলো হলো, গণরুমে পর্যাপ্ত বাংক বেডের ব্যবস্থা করতে হবে। প্রতিটি গণরুমে একটি নির্দিষ্ট সংখ্যার বেশি শিক্ষার্থী রাখা যাবে না, বাড়তি শিক্ষার্থীদের আবাসনের জন্য বাংক বেডের সংখ্যা বাড়াতে হবে, শিক্ষার্র্থীদের আবাসনের দিকেও সমান দৃষ্টি দিয়ে নতুন হল নির্মাণ করতে হবে, যেহেতু শিক্ষার্থী অনুপাতে হলসংখ্যা বাড়ছে না তাই বিশ্ববিদ্যলয়ে প্রথম বর্ষে ভর্তির আসন সংখ্যা কমিয়ে পর্যাপ্ত সুবিধা নিশ্চিত করে উন্নত শিক্ষা প্রদান করতে হবে এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলোকে বহিরাগত মুক্ত করতে হবে।

শীর্ষ সংবাদ:
সিনহা হত্যা : ওসি প্রদীপ ও ইন্সপেক্টর লিয়াকতসহ তিনজন রিমান্ডে         দ্বিতীয় প্রান্তিকে বিনিয়োগ প্রস্তাব হ্রাস ৬৭ শতাংশ         বেড়িবাঁধ নির্মাণ ও রক্ষণাবেক্ষণে স্থানীয় জনগণকে সম্পৃক্ত করতে হবে         ‘ইসির নতুন আইন চাপিয়ে দেওয়া হবে না ’         সরকারি কর্মকর্তাদের অফিস করতে হবে ৯টা-৫টা         কোটি টাকা আত্মসাৎ ॥ সাহেদকে হেফাজতে চায় দুদক         স্বাস্থ্যসুরক্ষা সামগ্রী কিনতে ৩০ লাখ ডলার দেবে এডিবি         মাতারবাড়ী প্রকল্পের কাজের অগ্রগতি হয়েছে ॥ নৌ প্রতিমন্ত্রী         ঠাকুরগাঁও ১ আসনের সংসদ সদস্য করোনায় আক্রান্ত         করোনা ভাইরাসের এই সংকটেও বিনিয়োগের সুযোগ আছে ॥ প্রধানমন্ত্রী         করোনা ভাইরাসে আরও ৩৯ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২৯৭৭         লেবাননে বিস্ফোরণ ॥ জরুরি খাদ্য ও মেডিক্যাল টিম পাঠাচ্ছে বাংলাদেশ         লেবাননে গুরুতর আহত বাংলাদেশের নৌসদস্য শঙ্কামুক্ত         কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়ায় চলাচল করছে নৌযান         মদনে নৌকাডুবিতে আরও ১ জনের লাশ উদ্ধার, মোট মৃত্যু ১৮         দেশবিরোধী তথ্যে সোশ্যাল মিডিয়া কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা         আল-জাজিরায় সাক্ষাৎকার দেওয়া রায়হান ১৩ দিনের রিমান্ডে         বৈরুতে ১৫০ মৃত্যু ৩ লাখ গৃহহীন        
//--BID Records