ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯

পরীক্ষামূলক

ঢাকা ও চট্টগ্রামে এ্যাপে গাড়ি ভাড়ার আরেকটি নতুন সেবা চালু

প্রকাশিত: ০৪:৪০, ১১ মার্চ ২০১৮

ঢাকা ও চট্টগ্রামে এ্যাপে গাড়ি ভাড়ার আরেকটি নতুন সেবা চালু

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরে এ্যাপে গাড়ি ভাড়া করার আরও একটি নতুন সেবা চালু হয়েছে। এই এ্যাপ ব্যবহার করে প্রাইভেটকার ও মোটরসাইকেলের পাশাপাশি সিএনজিচালিত অটোরিক্সাও ভাড়া করা যাবে। দূরপাল্লার জন্য রেন্ট এ কার সেবাও মিলবে ‘মেট্রো সিএনটি’ নামে এই এ্যাপে। শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলন থেকে উদ্যোক্তারা এ ঘোষণা দেন। ইতোমধ্যে ২০০ জনের মতো অটোরিক্সা চালক নিবন্ধন করেছেন বলে সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়েছে। তারা সরকারী নির্ধারিত ভাড়াতেই যাত্রী বহন করবেন। এ্যাপভিত্তিক গাড়ি ও মোটরসাইকেল ভাড়া করার সেবা উবার ও পাঠাওয়ের তুমুল জনপ্রিয়তার মধ্যেই এই এ্যাপটি নিয়ে এসেছে ট্রান্সপোর্ট আইটি সল্যুশন লিমিটেড নামে একটি প্রতিষ্ঠান। এদের ভাড়াও উবার ও পাঠাওয়ের তুলনায় বেশ কম। অটোরিক্সাকে এ্যাপে চালানোর ঘোষণা দিয়ে গত ১৬ জানুয়ারি সংবাদ সম্মেলন করে এ্যাপ ‘হ্যালো’ এর যাত্রা শুরা করেছিল টপ আইআই নামে একটি প্রতিষ্ঠান। ১ মার্চ থেকেই এই এ্যাপে অটোরিক্সা পাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু চালকরা সরকারী নির্ধারিত ভাড়ায় যেতে এবং টপ আইআইকে কমিশন দিতে রাজি না হওয়ায় সেবাটি চালু হয়নি। এখন নতুন তারিখ নির্ধারণ হয়েছে পয়লা বৈশাখ। তবে শনিবার রাজধানীতে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে ট্রান্সপোর্ট আইটি সল্যুশনের পরিচালক খন্দকার আবু জাফর জানান, তাদের সেবাটি চালু হয়ে গেছে। এতে নগর পরিবহনের পাশাপাশি কেউ দূরের যাত্রার জন্যও গাড়ি ভাড়া করতে পারবেন। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, এই সেবায় প্রাধান্য দেয়া হবে সিএনজিচালিত অটোরিক্সাটি। আর এর মাধ্যমে অটোরিক্সা ভাড়ায় যে নৈরাজ্য ছিল, সেটিও দূর হবে বলে আশা করছে প্রতিষ্ঠানটি। আইটি সল্যুশনের পরিচালক খন্দকার আবু জাফর জানান, অন্যান্য এ্যাপ ভিত্তিক প্রতিষ্ঠানগুলোর তুলনায় মেট্রোর এই প্রতিষ্ঠানটি থেকে বিশেষ সুবিধা পেতে যাচ্ছেন যাত্রীরা। যাত্রী ও চালকের নিরাপত্তার জন্য এতে যুক্ত করা হয়েছে জরুরী ‘এসওএস’ বাটন। কোন বিপদের আশঙ্কা করা মাত্রই ৯৯৯-এ কল করা যাবে এ্যাপের মাধ্যমে। এতে এ্যাম্বুলেন্সের সুবিধাও মিলবে। ভাড়া কম পড়বে ॥ এই এ্যাপে মোটরসাইকেল ভাড়ার ক্ষেত্রে প্রথম দুই কিলোমিটারের জন্য দিতে হবে ২৫ টাকা, পরের প্রতি কিলোমিটারের ভাড়া হবে ৯ টাকা আর ওয়েটিং চার্জ ৪৭ পয়সা। রাইডারদের (চালক) কাছ থেকে আপাতত কমিশন নেয়া হবে না বলেও জানানো হয় সংবাদ সম্মেলনে। আর যখন কমিশন নেয়া হবে, তখন তা হবে মোট টাকার ১৫ শতাংশ। উবার ও পাঠাওয়ের মতো এই সেবায় প্রাইভেটকারের ক্ষেত্রে কোন বেস ফেয়ার নেই। রাইডের শুরু থেকেই প্রতি কিলোমিটারে ১৬ টাকা ও ওয়েটিং চার্জ মিনিটে চার টাকা করে দেয়া হয়েছে। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ঢাকায় সিএনজিচালিত অটোরিক্সাকে প্রাধান্য দিয়েই এই সেবা চালু হয়েছে। ট্রান্সপোর্ট আইটি সল্যুশনের পরিচালক বলেন, ‘আমরা গত কিছুদিন সার্ভে করেছি। সিএনজি চালকদের বুঝিয়েছি এ এ্যাপসটি যদি চালু করেন তাহলে যানজটের কারণে আগে আপনারা (চালকরা) যেখানে গড়ে মাত্র ৬/৭টি ট্রিপ দিতে পারতেন, সেখানে এ্যাপস ব্যবহারের ফলে তা বেড়ে দ্বিগুণ হবে।
ডিজিটাল বাংলাদেশ পুরস্কার ২০২২
ডিজিটাল বাংলাদেশ পুরস্কার ২০২২