শনিবার ৯ মাঘ ১৪২৮, ২২ জানুয়ারী ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

স্পীকার মন্ত্রী এমপিদের বেতন বাড়ল

সংসদ রিপোর্টার ॥ জাতীয় সংসদের স্পীকার, ডেপুটি স্পীকার, মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী-উপমন্ত্রী এবং সংসদ সদস্যদের বেতন-ভাতা ও সুবিধাদি বাড়িয়ে পৃথক তিনটি বিল পাস করেছে জাতীয় সংসদ। বৃহস্পতিবার সংসদের অধিবেশনে আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রী আনিসুল হক ‘স্পীকার ও ডেপুটি স্পীকারের (বেতন-ভাতা ও সুবিধাদি) (সংশোধন) বিল-২০১৬’ এবং ‘সংসদ সদস্যদের (বেতন-ভাতা ও সুবিধাদি) (সংশোধন) বিল-২০১৬’ উত্থাপন করেন। আর ‘মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী, উপমন্ত্রীদের (বেতন-ভাতা ও সুবিধাদি) (সংশোধন) বিল-২০১৬’ উত্থাপন করেন সংসদ কার্যে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী। পরে সরকারী ও বিরোধী দলের এমপিদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ ও সম্মতিক্রমে বিল তিনটি কণ্ঠভোটে পাস হয়।

স্পীকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে শুরু হওয়া সংসদ অধিবেশনে বিলগুলোর ওপর জনমত যাচাই ও বাছাই কমিটিতে পাঠানোর প্রস্তাব উত্থাপন করেন বিরোধী দলের সদস্যরা। তবে তাদের প্রস্তাব কণ্ঠভোটে নাকচ হয়ে যায়। এর আগে গত ২ মে বিল তিনটি পাসের সুপারিশ করে আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি সংসদে প্রতিবেদন জমা দেয়। এর আগে গত ২৪ ও ২৫ জানুয়ারি বিল তিনটি সংসদে উত্থাপনের পর তা অধিকতর পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য সংসদীয় স্থায়ী কমিটিতে পাঠানো হয়।

বিলের উদ্দেশ্য ও কারণসংবলিত বিবৃতিতে বলা হয়েছে, জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫ মন্ত্রিসভায় অনুমোদিত হওয়ায় এবং দেশের সামগ্রিক আর্থসামাজিক পরিপ্রেক্ষিত বিবেচনায় স্পীকার, ডেপুটি স্পীকার, মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী, উপমন্ত্রী এবং সংসদ সদস্যদের বেতন ও অন্যান্য সুবিধা সামঞ্জস্য রক্ষা করে পুনর্নির্ধারণের লক্ষ্যে বিদ্যমান আইনের অধিকতর সংশোধনের জন্য সংশ্লিষ্ট বিল উপস্থাপন করা হয়েছে।

স্পীকার, ডেপুটি স্পীকার ॥ স্পীকার, ডেপুটি স্পীকারের বেতন-ভাতা পারিতোষিক বিশেষ অধিকার ইত্যাদি বৃদ্ধির প্রস্তাবসংবলিত স্পীকার এবং ডেপুটি স্পীকারের (বেতন-ভাতা ও সুবিধাদি) (সংশোধন) বিলে স্পীকারের বেতন ৫৭ হাজার ২০০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে এক লাখ ১২ হাজার টাকা, ব্যয় নিয়ামক ভাতা ৮ হাজার থেকে বৃদ্ধি করে ১৩ হাজার টাকা, বিমানযোগে ভ্রমণকালে বীমা কাভারেজ ১০ লাখ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ১৬ লাখ টাকা, দৈনিক ভাতা এক হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে তিন হাজার টাকা এবং স্বেচ্ছাধীন তহবিল ১০ লাখ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ১১ লাখ টাকা করা হয়েছে।

বিলে ডেপুটি স্পীকারের বেতন ৫৩ হাজার ১০০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে এক লাখ ৫ হাজার টাকা, ব্যয় নিয়ামক ভাতা ৬ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ১০ হাজার টাকা, বিমানযোগে ভ্রমণকালে বীমা ৫ লাখ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৮ লাখ টাকা, দৈনিক ভাতা ৭৫০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে দুই হাজার টাকা এবং স্বেচ্ছাধীন তহবিল ৮ লাখ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ১০ লাখ টাকা করা হয়েছে।

মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী ও উপমন্ত্রী ॥ মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী, উপমন্ত্রীদের (বেতন-ভাতা ও সুবিধাদি) (সংশোধন) বিলে মন্ত্রীদের বেতন-ভাতা ৫৩ হাজার ১০০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে এক লাখ ৫ হাজার টাকা, প্রতিমন্ত্রীদের ৪৭ হাজার ৮০০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৯২ হাজার টাকা, উপমন্ত্রীদের ৪৫ হাজার ১৫০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৮৬ হাজার ৫০০ টাকা করা হয়েছে। এছাড়া বিলে বিভিন্ন ভাতা ও সুবিধাও বৃদ্ধি করা হয়। এক্ষেত্রে মন্ত্রীদের ৬ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ১০ হাজার টাকা, প্রতিমন্ত্রীদের ৪ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৭ হাজার ৫০০ টাকা, উপমন্ত্রীদের ৩ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৫ হাজার টাকা করা হয়েছে। বিলে মন্ত্রীদের বাড়িভাড়া ৮০ হাজার টাকা এবং প্রতিমন্ত্রী ও উপমন্ত্রীদের বাড়ি ভাড়া ৭০ হাজার টাকা করা হয়েছে।

বিলে বিদ্যমান আইনে অনুচ্ছেদ ৯-এ উল্লিখিত সুবিধা ৫০ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৮০ হাজার টাকা, অনুচ্ছেদ ১০-এর ১ উপ-অনুচ্ছেদে উল্লিখিত সুবিধাদি ৭৫০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ২ হাজার টাকা, অনুচ্ছেদ ২-এ উল্লিখিত সুবিধাদি ৬০০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে এক হাজার ৫০০ টাকা করা হয়েছে। এছাড়া বিলে বিদ্যমান আইনে ১৬ অনুচ্ছেদের ১ অনুচ্ছেদের এ ধারায় উল্লিখিত সুবিধাদি ৪ লাখ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ১০ লাখ টাকা, ধারা বি-তে উল্লিখিত সুবিধাদি ৩ লাখ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৭ লাখ ৫০ হাজার টাকা, ধারা সি-তে উল্লিখিত সুবিধাদি ৩ লাখ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৫ লাখ টাকা করা হয়েছে।

সংসদ সদস্যদের বেতন-ভাতা ॥ সংসদ সদস্যদের বেতন-ভাতা, পারিতোষিক বৃদ্ধির প্রস্তাবসংবলিত সংসদ সদস্যদের (বেতন-ভাতা ও সুবিধাদি) (সংশোধন) বিলে সংসদ সদস্যদের বিদ্যমান বেতন ২৭ হাজার ৫০০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৫৫ হাজার টাকা, ব্যয় নিয়ামক ভাতা ৩ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৫ হাজার টাকা, দৈনিক ভাতা ৩০০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৭৫০ টাকা করা হয়েছে। এছাড়া এমপিদের স্বেচ্ছাধীন তহবিল ৩ লাখ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৫ লাখ টাকা, নির্বাচনী এলাকার খরচ ভাতা (মাসিক) ৭ হাজার ৫০০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ১২ হাজার ৫০০ টাকা, পরিবহন খরচ ভাতা (মাসিক) ৪০ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৭০ হাজার টাকা, অভ্যন্তরীণ ভ্রমণ (বার্ষিক) খরচ ভাতা ৭৫ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে এক লাখ ২০ হাজার টাকা, লন্ড্রি ভাতা মাসিক এক হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে এক হাজার ৫০০ টাকা এবং ক্রোকারিজ, ইত্যাদি ভাতা (মাসিক) ৪ হাজার টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৬ হাজার টাকা করা হয়েছে।

শীর্ষ সংবাদ:
সাকিবের হাসিতে শুরু বিপিএল         ফের বন্ধ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ॥ করোনার লাগাম টানতে পাঁচ জরুরী নির্দেশনা         বাবার সম্পত্তিতে পূর্ণ অধিকার পাবেন হিন্দু নারীরা ॥ ভারতীয় সুপ্রীমকোর্ট         উচ্চারণ বিভ্রাটে...         বাণিজ্যমেলার ভাগ্য নির্ধারণে জরুরী সিদ্ধান্ত কাল         আলোচনায় এলেও আন্দোলনে অনড় শিক্ষার্থীরা         ‘আমার প্রিয় বিশ্ববিদ্যালয়টি ভালো নেই’         করোনা ভাইরাসে আরও ১২ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ১১৪৩৪         ‘১৫ ফেব্রুয়ারি বইমেলা শুরু’         ঢাবির হল খোলা, ক্লাস চলবে অনলাইনে         করোনারোধে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের ৫ জরুরি নির্দেশনা         আগামী ৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ স্কুল-কলেজ         ভরা মৌসুমে চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে সব ধরনের সবজি         মাদারীপুরে সেতুর পিলারে মোটরসাইকেলের ধাক্কা, ২ শিক্ষার্থী নিহত         বিপিএম-পিপিএম পাচ্ছেন পুলিশের ২৩০ সদস্য         অভিনেত্রী শিমু হত্যা : ফরহাদ আসার পরেই খুন করা হয়         দিনাজপুরে মাদক মামলায় নবনির্বাচিত ইউপি সদস্য গ্রেফতার         শাবিপ্রবিতে গভীর রাতে শিক্ষার্থীদের মশাল মিছিল         ঘানায় ভয়াবহ বিস্ফোরণে ৫শ’ ভবন ধস, নিহত ১৭         করোনায় রেকর্ড সাড়ে ৩৫ লাখ শনাক্ত, মৃত্যু ৯ হাজার