রবিবার ৬ আষাঢ় ১৪২৮, ২০ জুন ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

সৈয়দপুরে তৈরি হচ্ছে ভেজাল লাচ্ছা সেমাই

স্টাফ রিপোর্টার, নীলফামারী ॥ ঈদ উৎসবের পূর্ণতায় ঘরে ঘরে সেমাইয়ের প্রচলন দীর্ঘদিনের। শুধু ঈদে নয়, সেমাই সারা বছর নানা আয়োজনে খাওয়া হয়। পবিত্র মাহে রমজানের ইফতারে সেমাইয়ের কদর রয়েছে। বর্তমানে সেমাইয়ের চাহিদাকে সামনে রেখে নীলফামারীর বাণিজ্যিক শহর সৈয়দপুরে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশেভেজাল লাচ্ছা সেমাই তৈরির মহোৎসব লেগেছে। স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর ও ঝুঁকিপূর্ণ উপকরণ দিয়ে, নোংরা ও অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরি এসব লাচ্ছা সেমাই বাজারজাত করা হচ্ছে দেদার।

বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস এ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউটের (বিএসটিআই) অনুমোদন ছাড়াই এসব লাচ্ছা সেমাই বিক্রি করা হচ্ছে খোলা বাজারে ক্ষতিকর পলিথিনের প্যাকেটে। অত্যন্ত নি¤œমানের উপাদানে তৈরি এসব লাচ্ছা খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর বলে মন্তব্য করেছেন চিকিৎসকরা। চলমান রমজান ও আসন্ন ঈদ-উল-ফিতরকে সামনে রেখে সৈয়দপুর শহরের পাড়া-মহল্লায় গড়ে উঠেছে অসংখ্য লাচ্ছা সেমাইয়ের ক্ষুদ্র কারখানা। শহরের নিয়ামতপুর, কাজীরহাট, নতুন ও পুরাতন বাবুপাড়া, মিস্ত্রিপাড়া, বাঁশবাড়ি, গোলাহাট, মুন্সীপাড়াসহ বিভিন্ন এলাকায় গড়ে উঠেছে শতাধিক ক্ষুদ্র্র লাচ্ছা কারখানা। এছাড়া বিভিন্ন হোটেল, কনফেকশনারিতেও লাচ্ছা তৈরি করা হচ্ছে। যেখানে সেখানে লাচ্ছা সেমাই তৈরির মৌসুমী ব্যবসায়ীরা সক্রিয় হয়ে উঠেছে। প্রতিবছরই ঈদে শহরের এসব মৌসুমী ব্যবসায়ীরা কোনো সরকারি নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করে তৈরি করে ভেজাল লাচ্ছা সেমাই। অভিযোগ পাওয়া গেছে এসব লাচ্ছা তৈরির কারখানার নেই বিএসটিআই-এর কোন অনুমোদন। অনুমোদন ছাড়াই তারা নামীদামী অনেক কো¤পানির লেবেল লাগিয়ে লাচ্ছা বাজারজাত করছে।

করোনাভাইরাস আপডেট
বিশ্বব্যাপী
বাংলাদেশ
আক্রান্ত
১৭৭০৯৫৪৫৫
আক্রান্ত
৮৪৪৯৭০
সুস্থ
১৬১৩০৪৬০১
সুস্থ
৭৭৮৪২১
শীর্ষ সংবাদ:
বিষ ছড়াচ্ছে পলিথিন ॥ হুমকির মুখে জনস্বাস্থ্য ও প্রাকৃতিক পরিবেশ         প্রধানমন্ত্রী আজ ৫৩ হাজার পরিবারকে দিচ্ছেন জমি ও ঘর         রাজধানীতে একই পরিবারের ৩ জন খুন         গণটিকাদান কর্মসূচী শুরু         পুঁজিবাজারের সামনে ভাল ভবিষ্যৎ রয়েছে         প্রিয় পিতার জন্য ভালবাসা         ভুটানের সঙ্গে পিটিএ কার্যকর হচ্ছে নতুন বছরে         করোনায় একদিনে মৃত্যু বেড়ে ৬৭         করোনা বেড়ে যাওয়ায় পর্যটনশিল্প ফের অনিশ্চয়তায়         নাসির ও অমির তিন রক্ষিতা কারাগারে         রোহিঙ্গাদের এনআইডি পাওয়ার নেপথ্যে চাঞ্চল্যকর জালিয়াতি         প্রাকৃতিক গ্যাস অনুসন্ধানই জ্বালানি নিরাপত্তার অন্যতম উপায়         প্রমাণ সরবরাহ করলে তথ্য দেবে সুইস ব্যাংক         সাবেক জেলা নির্বাচন কর্মকর্তাসহ ১৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা         একই স্থানে সব সেবা প্রদান সুবিধা থাকা বাঞ্ছনীয় : বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী         করোনা : গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্য ৬৭         “১২ বছর আগের পিছিয়ে পরা বাংলাদেশ আজ অপ্রতিরোধ্য গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে”         খুলনা বিভাগে একদিনে করোনায় সর্বোচ্চ মৃত্যু ২২, শনাক্ত ৬২৫         দেশব্যাপী সিনোফার্মের ভ্যাকসিন দেওয়া শুরু         ‘আবার ব্যাপকভাবে জনগণকে টিকা দেওয়ার কার্যক্রম শুরু হবে’