ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১

ফ্রিজে রাখা ভাত-মাংস খেয়ে মালামাল নিয়ে গেল চোর

প্রকাশিত: ১৮:০৪, ২২ অক্টোবর ২০২৩

ফ্রিজে রাখা ভাত-মাংস খেয়ে মালামাল নিয়ে গেল চোর

গ্রেফতারকৃত চোর

কুড়িগ্রামের উলিপুরে গেট ও রুমের তালা ভেঙে বাড়ি ঢুকে ফ্রিজে রাখা ভাত-মাংস খেয়ে বিভিন্ন মালামাল চুরি করে নিয়ে যাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় অভিযোগ পেয়ে চুরি হয়ে যাওয়া মালামাল উদ্ধারসহ তিন চোরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

শনিবার (২১ অক্টোবর) সকালে ভুক্তভোগী শাজাহান হোসাইন উলিপুর থানায় অজ্ঞাত চোরদের বিরুদ্ধে মামলা করেন। এরপর অভিযান চালিয়ে পুলিশ তাদের গ্রেফতার করে।  

গ্রেফতাররা হলেন- চোর চক্রের মূলহোতা উলিপুর পৌরশহরের জোনাইডাঙ্গা গ্রামের মো. ফারুক হোসেন (৩২) , মো. খোকন মিয়া (৪২) ও উলিপুরের হাতিয়া ইউনিয়নের ডোবারপাড় এলাকার মো. আব্দুল হাকিম (৪৮)।

মামলা ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, উলিপুর পৌর শহরের একটি পরিবারের সকল সদস্য মিলে গত ১৮ অক্টোবর রাতে উলিপুরের বজরা এলাকায় বোন জামাইয়ের জানাজায় অংশগ্রহণ করার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে চলে যান। পরদিন নিজ বাসায় এসে দেখেন তাদের বাসার গেটের তালা ও রুমের তালা ভাঙা এবং ঘরের আসবাবপত্র এলোমেলো। তাদের বিভিন্ন মালামালও ঘরে নেই। এছাড়াও তাদের বাড়ির রান্না করা ভাত ও মাংস সব খেয়েছে চোরেরা।

উলিপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মর্তুজা বলেন, ভুক্তভোগী পরিবারের পক্ষ থেকে শনিবার সকালে মামলা করলে তাৎক্ষণিকভাবে অনুসন্ধান চালিয়ে চোরদের গ্রেপ্তার করা হয়। এছাড়াও পরিবারটির বিভিন্ন ধরনের রান্না করা খাবার ফ্রিজে রাখা ছিল। এসব খাবার খেয়ে চোরেরা বিভিন্ন আসবাবপত্র চুরি করে চলে যায়। এরপর তাৎক্ষণিকভাবে পুলিশের একটি চৌকস টিম অনুসন্ধান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে। 

এসময় তাদের কাছ থেকে চোরাই ছোট পানির পাম্প ১টি, গ্যাসের চুলা ১টি, লাল রংয়ের ছোট বাই সাইকেল ১টি, এলইডি মনিটর ২টি, গ্যাস সিলিন্ডার ১টি, স্বর্ণের আংটি ১, কম্বল ২টি, স্টাবলাইজার ১টি, পানির ফিল্টার ১টি, ব্লেন্ডার ১টি, মেলামাইন প্লেট ১৩টি উদ্ধার করে পুলিশ। 

কুড়িগ্রামের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (মিডিয়া) মো. রুহুল আমীন বলেন, গ্রেফতারকৃতরা আন্তঃজেলা চোর চক্রের সক্রিয় সদস্য। তারা বিভিন্ন সময়ে বাসার মালিকদের অনুপস্থিতিতে বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে বাসার তালা ভেঙে মালামাল চুরি করে পালিয়ে যেত।
 

 

এস

×