২৫ জানুয়ারী ২০২০, ১২ মাঘ ১৪২৬, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
 
সর্বশেষ

বিএনপি কোনো আইন-আদালত মানে না : নাসিম

প্রকাশিত : ৭ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৮:৫৩ পি. এম.
বিএনপি কোনো আইন-আদালত মানে না : নাসিম

অনলাইন রিপোর্টার ॥ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, ‘বিএনপি কোনো আইন-আদালত মানে না। কোনো নিয়ম-নীতি মানে না। তারা জোর করে সুপ্রিম কোর্টের অবমাননা করে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে চায়।’

শনিবার দুপুরে বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনের উদ্বোধনী বক্তৃতায় তিনি একথা বলেন। সুপ্রিম কোর্ট অবমাননার ঘটনায় জনগণ বিএনপির বিচার করবে উল্লেখ করে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, ‘আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা আইন-আদালত ও বিচার ব্যবস্থা মেনে চলেন। বিগত সময়ে শেখ হাসিনা একাধিকবার বন্দী হয়েছিলেন। তখন তিনি জামিন নিয়েছেন কোর্টের মাধ্যমে। আর বিএনপি জোর করে খালেদা জিয়ার জামিনের বন্দোবস্ত করতে চায়। পাকিস্তানে নওয়াজ শরীফের শাসনামলে বিরোধী নেতাকর্মীরা যেভাবে সুপ্রিম কোর্টে হামলা চালিয়েছিল, সেই একই স্টাইলে বিএনপি বাংলাদেশের সুপ্রিম কোর্টে হামলা চালিয়েছে। সুপ্রিম কোর্টের অবমাননার বিচার বাংলার জনগণ অবশ্যই করবে।’

শহরের আলতাফুন্নেছা খেলার মাঠে সকাল সাড়ে ১১টায় জাতীয় সঙ্গীতের মধ্য দিয়ে সম্মেলনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। সম্মেলনের প্রথম অধিবেশন শেষে বিকেলে দ্বিতীয় অধিবেশনে মোহাম্মদ নাসিম নতুন সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী ১৮ জনের মধ্য থেকে দুইজনের নাম ঘোষণা করেন। এছাড়া সহ-সভাপতি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও কোষাধ্যক্ষ পদেও মনোনীত ৭ জনের নামও তিনি ঘোষণা করেন।

বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগে নতুন সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক হলেন, যথাক্রমে মুজিবুর রহমান মজনু ও রাগেবুল আহসান রিপু। এছাড়া সহ-সভাপতি পদে টি জামান নিকেতা, তিন যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক যথাক্রমে মনজুরুল আলম মোহন, সাগর কুমার রায় ও আসাদুর রহমান দুলু এবং কোষাধ্যক্ষ মাসুদুর রহমান মিলনের নাম ঘোষণা করা হয়।

মোহাম্মদ নাসিম নতুন সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে দ্রুততম সময়ের মধ্যে পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের আহ্বান জানান। তবে নতুন কমিটি ঘোষণার পর পরই সম্মেলন স্থলে উপস্থিত একদল নেতাকর্মী চেয়ার ছোঁড়াছুঁড়ি করেন। তবে সিনিয়র নেতৃবৃন্দের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি দ্রুত স্বাভাবিক হয়।

বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের বিলুপ্ত কমিটির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ডা. মকবুল হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে প্রধান বক্তা ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক। অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এএচএম খায়রুজ্জামান লিটন, বগুড়া-১ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুল মান্নান, বগুড়া-৫ আসনের সংসদ সদস্য হাবিবুর রহমান, আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা. রোকেয়া সুলতানা, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য নুরুল ইসলাম ঠান্ডু ও মেরিনা জাহান। সম্মেলনে বিলুপ্ত জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মজিবর রহমান মজনু তার রিপোর্ট পেশ করেন। শোক প্রস্তাব পাঠ করেন ওই কমিটির দপ্তর সম্পাদক জাকির হোসেন নবাব। সম্মেলন অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন জেলা আওয়ামী লীগের বিলুপ্ত কমিটির প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক সুলতান মাহমুদ খান রনি।

প্রকাশিত : ৭ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৮:৫৩ পি. এম.

০৭/১২/২০১৯ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ: