২০ নভেম্বর ২০১৯, ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
 
সর্বশেষ

ভোলায় গৃহবধূ হত্যা ॥ বিচারের দাবিতে মানববন্ধন

প্রকাশিত : ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০২:৫২ পি. এম.
ভোলায় গৃহবধূ হত্যা ॥ বিচারের দাবিতে মানববন্ধন

নিজস্ব সংবাদদাতা, ভোলা ॥ ভোলার দৌলতখান উপজেলার উত্তর জয়নগর ইউনিয়নের লেজপাতা গ্রামের দুদু মিয়া হাওলাদার বাড়িতে ১১মাসের এক শিশু সন্তানের জননী নুসরাত জাহান মীম (২২) নামের এক গৃহবধূকে যৌতুকের জন্য পাশবিক নির্যাতন করে হত্যার অভিযোগে স্বামীসহ হত্যাকারীদের গ্রেফতাদেরর দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়েছে। আজ রবিবার বেলা ১২ টার দিকে স্থানীয় এলাকাবাসী ভোলা প্রেসক্লাবের সামনে এই মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে। প্রায় ঘন্টা ব্যাপী এই মানববন্ধনে কয়েক শত নারী পুরুষসহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার লোক অংশ নেয়। মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন-মিম এর মা ফরিদা বেগম, ভাই শহিদুল ইসলাম, আকবর হোসেন রাছেল, ইমরান হোসেন, রাকিব পন্ডিত প্রমুখ। এ সময় নিহতের পরিবারের সদস্যরা জানান, বিয়ের পর কয়েক দফায় জামাই মনিরকে স্বর্ণালংকার এবং নগদ টাকাসহ কয়েক লাখ টাকার যৌতুক দেয়া হয়েছে। আরো ১০ লাখ টাকা যৌতুক দেয়ার জন্য স্বামী মনির, শ্বশুর জেবল হক হাওলাদার, শাশুড়ী, দেবর ছোটন এবং ননদ শাহিনুর আমার মেয়েকে প্রায়ই নির্যাতন করে আসছে। গত দুই তিন দিন পূর্বেও ফোন করে পরিবারের সদস্যদের কাছে স্বামী, শশুর, শাশুড়ী, দেবর ছোটন ও ননদ শাহীনুরের নির্যাতনের কথা বলে কান্না কাটি করেছে। এ নিয়ে আমরা প্রতিবাদ করতে চাইলে মীম তাদের দ্বারা আরো বেশি নির্যাতন হবে বলে বাড়াবাড়ি না করার জন্য বলে। যৌতুক না দেওয়ায় শ্বশুর বাড়ীর লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে গত শুক্রবার দুপুর আড়াই টার সময় মিমকে মেরে ঝুলিয়ে রেখেছে। অথচ তারা অত্মহত্যা করছে বলে ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করছে। ঘটনার পর থেকে স্বামী, শ্বশুর, দেবর ও ননদ পলাতক রয়েছে। তাই এ ঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত করে আসামিদের গ্রেফতারের জন্য তারা দাবি জানান এবং জেলা প্রশাসক বরাবর একটি স্মারক লিপি প্রদান করেন।

দৌলতখান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনায়েত হোসেন জানান, নিহতের গলার দুই পাশে দাগ রয়েছে। লাশের ময়না তদন্ত করে প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে। এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

প্রকাশিত : ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০২:৫২ পি. এম.

১৫/০৯/২০১৯ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ: