মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২১ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৬ আশ্বিন ১৪২৪, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

চামিরার বোলিংয়ে শ্রীলঙ্কার দিন

প্রকাশিত : ২০ ডিসেম্বর ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ দুশমন্থা চামিরার দুরন্ত বোলিংয়ের মুখে হ্যামিল্টন টেস্টে ব্যাকফুটে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড। শ্রীলঙ্কার ২৯২ রানের জবাবে দ্বিতীয় দিন শেষে প্রথম ইনিংসে ৯ উইকেটে কিউইদের সংগ্রহ ২৩২ রান। অতিথিদের চেয়ে ৬০ রানে পিছিয়ে ব্রেন্ডন ম্যাককুলামের দল। ৩০ রান নিয়ে ব্যাট করছেন ডগ ব্রেসওয়েল। রানের খাতা খোলার অপেক্ষায় তার সঙ্গী ট্রেন্ট বোল্ট। প্রতিপক্ষকে ফাঁদে ফেলতে সিডন পার্কে সবুজ উইকেট তৈরি করে নিউজিল্যান্ড। নিজেদের পাতা ফাঁদেই যেন আটকা পড়ল কিউইরা। দ্বিতীয় দিনে যার পুরো ফায়দা তুলে নিয়ে ক্যারিয়ারসেরা বোলিং করলেন চামিরা। চতুর্থ টেস্টে প্রথমবারের মতো ৫ উইকেট তুলে নিয়ে শ্রীলঙ্কাকে দারুণ একটি দিন উপহার দিলেন ২৩ বছর বয়সী এই মিডিয়াম পেসার।

দুই ম্যাচে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে নিউজিল্যান্ড। সিরিজ বাঁচাতে হলে হ্যামিল্টনে জিততেই হবে সফরকারী শ্রীলঙ্কাকে। সেখানে প্রথম দিনে লঙ্কানদের ব্যাটিং আগ্রাসনের জবাবটা দারুণভাবে দিয়েছিল কিউই বোলাররা। দুই সেশনেই ৪ উইকেটে ১৯৮ রান তুলে ফেলা অতিথিদের রানের লাগামটা টেনে ধরতে পেরেছিলেন ট্রেন্ট বোল্ট-টিম সাউদিয়া। ৭ উইকেটে ২৬৪ রানে প্রথমদিন শেষ করা (বৃষ্টির জন্য ২৩ ওভার খেলা হয়নি) লঙ্কানদের কাল দ্বিতীয় দিনে ইনিংস শেষ হয় ২৯২ রানেই। সর্বোচ্চ ৭৭ রান করে আউট হন অধিনায়ক এ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস। মিলিন্দা শ্রীবর্ধনের ৬২ উল্লেখ্য। কিউইদের ইনিংসে প্রায় একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হয়। মার্টিন গাপটিল আর টম লাথামের ওপেনিং জুটি ৮১ রান তুলে লঙ্কানদের চোখ রাঙানি দিলেও চামিরার দুরন্ত বোলিং স্বাগতিকদের আধিপাত্য বিস্তার করতে দেয়নি। শেষদিকে মিচেল স্যান্টনার, ডগ ব্রেসওয়েল আর বিজে ওয়াটলিং সংগ্রাম না চালালে প্রতিপক্ষ বড় একটা লিডই পেয়ে যেতে পারত।

মূলত চামিরা বোলিং-ঝড়ে এলোমেলো নিউজিল্যান্ড। ওপেনার গাপটিলের ব্যাট থেকে আসে সর্বোচ্চ ৫০ রান, লাথাম ২৮। এরপরই বড় একটি ধস। কেন উইলিয়ামসন ফেরেন ১ রান করে, অভিজ্ঞ রস টেইলর ‘শূন্য’। অধিনায়ক ব্রেন্ডন ম্যাককুলাম ১৮ রানে প্যাভিলিয়নমুখী হলে বড় বিপর্যয়ে পড়ে কিউইরা। ২০০৪ সালের পর এই প্রথম নিউজিল্যান্ডের দ্বিতীয়, তৃতীয় ও চতুর্থ উইকেট জুটিতে ১০ রানের কম করে আসে। বিপদে কথা বলে স্যান্টনারের ব্যাট। ছয় নম্বরে নেমে ৩৮ রানের কার্যকর এক ইনিংস খেলেন তিনি। বিজে ওয়াটলিংয়ের ২৮ এবং শেষদিকে ডগ ব্রেসওয়েলের অপরাজিত ৩০ কিউইদের ইনিংস সম্মানজনক জায়গায় নিয়ে যেতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখে। সংগ্রহটা প্রতিপক্ষের কাছাকাছি নিয়ে যেতে স্বাগতিকরা আজ এই ব্রেসওয়েলের ব্যাটের দিকেই তাকিয়ে থাকবে। সফরকারীদের হয়ে চামিরা ৫, রঙ্গনা হেরাথ ২, সুরাঙ্গা লাকমল ও নুয়ান প্রদীপ নিয়েছেন ১টি করে উইকেট।

প্রকাশিত : ২০ ডিসেম্বর ২০১৫

২০/১২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



শীর্ষ সংবাদ: