ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১

ফ্রিস্টাইলে সিওভান, ব্যাকস্ট্রোকে ওয়াংয়ের স্বর্ণ

স্পোর্টস রিপোর্টার

প্রকাশিত: ০১:০৩, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩

ফ্রিস্টাইলে সিওভান, ব্যাকস্ট্রোকে ওয়াংয়ের স্বর্ণ

এশিয়ান গেমসের সাঁতারে স্বর্ণপদক হাতে হংকংয়ের সিওভান হাউঝি

হ্যাংঝুতে এশিয়ান গেমসের চতুর্থ দিনে পুলের নীল জলে দ্যুতি ছড়ালেন সিওভান হাউঝি। প্রমীলা এ সাঁতারু ২০০ মিটার ফ্রিস্টাইলে তার দেশ হংকংকে এনে দিলেন স্বর্ণ পদক। স্মরণীয় অর্জনের পথে তিনি পেছনে ফেলেন চীনের দুই প্রতিযোগী লি বিংজি ও লিউ ইয়াইনকে। সিওভান সময় নিয়েছেন ১ মিনিট ৫৪.১২ সেকেন্ড। 
১ মিনিট ৫৬.০০ সেকেন্ড সময় নিয়ে রৌপ্য জিতেছেন লি। আর ব্রোঞ্জ জয়ের পথে তার স্বদেশী লিউয়ের লেগেছে ১ মিনিট ৫৬.৪৩ সেকেন্ড। ওদিকে ২৭.৩৫ সেকেন্ড সময় নিয়ে ৫০ মিটার ব্যাকস্ট্রোকে স্বর্ণ জিতেছেন চীনের ওয়াং শুই। গত জুলাইয়ে ওয়ার্ল্ড চ্যাম্পিয়নশিপের সপ্তম স্থান অধিকারী ওয়াং তার স্বদেশী ওয়ান লিয়ান ও জাপানের মিয়াকি তাকাশিকে পেছনে ফেলেন। রৌপ্যজয়ী ওয়ান সময় নেন ২৭.১ সেকেন্ড। ব্রোঞ্জজয়ী মিয়াকি ২৮.২১ সেকেন্ড।

সিওভানকে ঘিরে অবশ্য বড় স্বপ্নই ছিল তার দেশ হংকংয়ের। কারণ দেশটির প্রথম সাঁতারু হিসেবে তার ঝুলিতে রয়েছে দুটি অলিম্পিক পদক। ২০২০ টোকিও সামার অলিম্পিকে ২০০ ও ১০০ মিটার দুটিতেই রৌপ্য পদক জিতেছিলেন তিনি। ইউনিভার্সিটি অব মিশিগানের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করা এ সাঁতারুর দখলে হংকংয়ের ২১টি জাতীয় রেকর্ড। পাশাপাশি এশিয়ান সাঁতারেও ৭টি রেকর্ড তার নামের পাশে। হ্যাংঝুতে সিওভানের এ অর্জনে ৪ স্বর্ণ নিয়ে পদক তালিকার পঞ্চম স্থানে উঠে আসে তার দেশ। 
চতুর্থ দিন পর্যন্ত সব ইভেন্ট মিলিয়ে হংকংয়ের মোট পদক ১৭টি। ৪ স্বর্ণের সঙ্গে আছে ৪ রৌপ্য। ব্রোঞ্জ ৯টি। এশিয়ান ক্রীড়াঙ্গনের সর্ববৃহৎ এ আয়োজনে সর্বোপরি অবশ্য চায়নারই দাপট। ৪৭ স্বর্ণসহ মোট ৮২ পদক নিয়ে শীর্ষে চীন। রৌপ্য ২৫ ও ব্রোঞ্জ ১১। ১৩ স্বর্ণসহ ৪৪ পদক নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে দক্ষিণ কোরিয়া। তাদের রৌপ্য ১৩ ও ব্রোঞ্জ ১৮। তিনে জাপানের মোট পদক ৩৮। স্বর্ণ ৬, রৌপ্য ১৮ ও ব্রোঞ্জ ১৪। 
ওদিকে এবারের এশিয়ান গেমসে নারী ক্রিকেটারদের হাত ধরে একমাত্র পদকের (ব্রোঞ্জ) দেখা পায় বাংলাদেশ। তৃতীয় স্থান নির্ধারণী ম্যাচে নিগার সুলতানা জ্যোতির দল পাকিস্তানকে হারায় ৫ উইকেটে। ২০১০ ও ২০১৪ আসরে রৌপ্য জয়ের পর অবশ্য এবারও স্বর্ণের আশা পূরণ হয়নি। 

×