ঢাকা, বাংলাদেশ   সোমবার ২৮ নভেম্বর ২০২২, ১৪ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

ত্রিদেশীয় টি২০ সিরিজ

সিডন্সের চ্যালেঞ্জ পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ডকে

স্পোর্টস রিপোর্টার

প্রকাশিত: ২১:০১, ৪ অক্টোবর ২০২২

সিডন্সের চ্যালেঞ্জ পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ডকে

নিউজিল্যান্ডের অনুশীলন মাঠে লিটন কুমার দাসকে পরামর্শ দিচ্ছেন ব্যাটিং কোচ জেমি সিডন্স

মাত্র এক বছর আগে হওয়া টি২০ বিশ্বকাপে রানার্সআপ হয়েছে নিউজিল্যান্ড। টি২০ ফরম্যাটে দুর্দান্ত দল হিসেবে তারা এখন র‌্যাঙ্কিংয়ের ৫ নম্বরে। আর এশিয়ার পরাশক্তি পাকিস্তান সাম্প্রতিক সময়ে টি২০ ক্রিকেটে আছে দারুণ ফর্মে। তারা র‌্যাঙ্কিংয়ের ৩ নম্বর দল। এই দু’টি দলের বিপক্ষে এবার নিউজিল্যান্ডের ভিন্ন কন্ডিশনে বাংলাদেশ দলকে খেলতে হবে ত্রিদেশীয় টি২০ সিরিজ। সাম্প্রতিক সময়ে এই ফরম্যাটে শীর্ষ ১০ র‌্যাঙ্কিংধারী দলগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বাজে অবস্থা বাংলাদেশের।

এরই ফলস্বরূপ গত বিশ্বকাপে র‌্যাঙ্কিংয়ে পিছিয়ে থাকা স্কটল্যান্ড, মাস দেড়েক আগে জিম্বাবুইয়ে ও এবার এশিয়া কাপে আফগানিস্তানের কাছে হেরেছে বাংলাদেশ। এরপরও বাংলাদেশ দলের ব্যাটিং কোচ জেমি সিডন্স চাইছে আসন্ন টি২০ সিরিজে শক্তিধর নিউজিল্যান্ড ও পাকিস্তানকে চ্যালেঞ্জ জানাতে। কারণ তিনি মনে করেন পাক-কিউইদের চ্যালেঞ্জ জানাতে পারলে সাদৃশ্যপূর্ণ কন্ডিশনে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে অনুষ্ঠিতব্য বিশ্বকাপে ভাল করা সম্ভব হবে। নিউজিল্যান্ডে গিয়ে মঙ্গলবার লিঙ্কনে প্রথম দিনের দলগত অনুশীলনের পর এসব কথা বলেন সিডন্স।
টানা হারতে হারতে অবশেষে পরাজয়ের বৃত্ত ভাঙতে আইসিসির সহযোগী সদস্য দেশ আরব আমিরাতের বিপক্ষে প্রথমবারের মতো টি২০ সিরিজ খেলেছে বাংলাদেশ। জয়ের ধারায় ফিরলেও দুই ম্যাচেই আহামরি কোন পারফর্মেন্স দেখাতে পারেননি নুরুল হাসান সোহানরা। গত কয়েক মাস তীব্র ও অসহনীয় গরমের মধ্যে থাকা দল এখন নিউজিল্যান্ডে গিয়ে শীতের কন্ডিশনের মধ্যে। এই কন্ডিশনে মানিয়ে ওঠার চ্যালেঞ্জ এখন বাংলাদেশের। সিডন্স বলেছেন, ‘আমরা ৪০ ডিগ্রী থেকে এখানে এই ঠা-া আবহাওয়ায় এসেছি।

অস্ট্রেলিয়া যাওয়ার আগে এমন কন্ডিশনে এসে ভালই হয়েছে। কন্ডিশন অনেকটা সাদৃশ্যপূর্ণ।’ টি২০ ফরম্যাটের অন্যতম দুই পরাশক্তির বিপক্ষে ২টি করে ৪টি ম্যাচ খেলার সুযোগ বিশ্বকাপের ঠিক আগ মুহূর্তে প্রস্তুতির জন্য দারুণ। কারণ নিউজিল্যান্ডের মতোই কন্ডিশনে খেলতে হবে বাংলাদেশকে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে। সেখানে সুপার টুয়েলভে আবার পাকিস্তানের সঙ্গেই একই গ্রুপে আছে বাংলাদেশ।

এ বিষয়ে সিডন্স বলেন, ‘ওদের (প্রতিপক্ষ) নিয়ে বেশি কিছু বলার নেই। গত বিশ্বকাপের ফাইনালিস্ট নিউজিল্যান্ড।পাকিস্তান খুবই ভাল টি২০ দল। গত বিশ্বকাপে তারা দারুণ খেলেছে। বিশ্বকাপের জন্য প্রস্তুত হতে তাদেরকে আমাদের চ্যালেঞ্জ জানাতে হবে। তাদের চ্যালেঞ্জ জানাতে পারলে বিশ্বকাপেও হয়ত ভাল কিছু সম্ভব।’
আমিরাতের বিপক্ষে সিরিজকে ইতিবাচক হিসেবে দেখছেন সিডন্স। কারণ ২ ম্যাচের সিরিজ খেলতে গিয়ে পূর্ণোদ্যমে অনুশীলন করতে পেরেছে বাংলাদেশ দল। এ বিষয়ে সিডন্স বলেন, ‘সম্প্রতি আমরা দুবাই সফর করেছি। সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিপক্ষে দুইটি ম্যাচ খেলেছি। এক সপ্তাহ অনুশীলনও করেছি আমরা যা খুব ভাল ছিল।’ এখন দলের সবচেয়ে অভিজ্ঞ ও সিনিয়র ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান। মুশফিকুর রহিম ও তামিম ইকবাল এ বছর আন্তর্জাতিক টি২০ থেকে অবসরে গেছেন। মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ব্যর্থতায় বাদ পড়েছেন।

বাকিদের মধ্যে লিটন কুমার দাস, নুরুল হাসান সোহান, মেহেদি হাসান মিরাজ ও মুস্তাফিজুর রহমান ৬-৭ বছর এবং সাব্বির রহমান ৮ বছর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে কাটিয়ে ফেলেছেন। তবু এই দলটিকে তরুণ বলছেন সিডন্স, ‘আমাদের দলটা অনেক তরুণ। বেশ কয়েকজন সিনিয়র ক্রিকেটার অবসর নিয়েছেন কিংবা দলে নেই এখন। এই তরুণ দলটি নিয়ে আমি রোমাঞ্চিত। তারা এখনও শিখছে। বেশ শক্তিশালী দুইটি দলের বিপক্ষে তারা  কেমন করে দেখা যাক।’ সম্প্রতি ওপেনার না হওয়ার পরেও সাব্বির ও মিরাজকে দিয়ে ওপেনিং করাচ্ছে বাংলাদেশ।

আর সিনিয়রদের ঘাটতির কারণে এখন লিটনকে ওপেনিং থেকে সরিয়ে মিডলঅর্ডারে নামানোর পরিকল্পনায় আছে টিম ম্যানেজমেন্ট। মিরাজ সফল হলেও ব্যর্থ সাব্বির- কিন্তু পরিকল্পনাটা অটুট আছে। সিডন্স বলেছেন,‘সাব্বির ও মিরাজ ইনিংস উদ্বোধন করছে যা তামিম-লিটনদের উদ্বোধনের চেয়ে ভিন্ন। লিটন এখনও দলেই আছে, তিন বা চারে খেলবে সে। কয়েকজন সিনিয়র ক্রিকেটার নেই এখন আমাদের দলে। তবে এই তরুণ ক্রিকেটাররা অনেক উদ্যমী।’

monarchmart
monarchmart