ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০২৪, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

তিনদিনের মধ্যে বেসরকারি হজযাত্রীদের ভিসা করার নির্দেশ

প্রকাশিত: ২০:৩৭, ৩১ মে ২০২৩

তিনদিনের মধ্যে বেসরকারি হজযাত্রীদের ভিসা করার নির্দেশ

প্রতীকী ছবি।

আগামী তিনদিনের মধ্যে বেসরকারি এজেন্সির মাধ্যমে যারা হজে যাবেন তাদের ভিসা প্রক্রিয়া শুরু করার জন্য নির্দেশ দিয়েছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। সৌদি আরবে অতি দ্রুত ভিসা লজমেন্ট প্রক্রিয়া শেষ হয়ে যাবে। তাই এ সময়ে মধ্যে যারা ভিসা করতে ব্যর্থ হবেন তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার হুমকি দিয়েছে মন্ত্রণালয়।

বুধবার (৩১ মে) হজযাত্রীদের ভিসাকরণ সংক্রান্ত অতীব জরুরি বিজ্ঞপ্তিতে এ নির্দেশনা দিয়েছে ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয়।

ধর্ম মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, অত্যন্ত উদ্বেগের সঙ্গে জানানো যাচ্ছে যে, সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজযাত্রীদের ভিসা শতভাগ সম্পন্ন হলেও বেসরকারি এজেন্সিগুলোর হজযাত্রীদের ভিসা করার হার ৫১ দশমিক ১ শতাংশ বলে রাজকীয় সৌদি সরকারের হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে। এ নিয়ে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়, রাজকীয় সৌদি দূতাবাস ও হজ এজেন্সিজ অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (হাব) গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে এবং সংশ্লিষ্ট সব এজেন্সিকে দ্রুততম সময়ে সম্মানিত হজযাত্রীদের জন্য ভিসা করতে বারবার তাগিদ দিয়েছে।

হজ ব্যবস্থাপনা একটি সময়াবদ্ধ বিষয় এবং এক্ষেত্রে এজেন্সিগুলোর একান্ত সহযোগিতা ‘হজ ও ওমরাহ ব্যবস্থাপনা আইন ২০২১’ এবং এর অধীন প্রণীত ‘হজ ও ওমরাহ ব্যবস্থাপনা বিধিমালা, ২০২২’র প্রতি সম্মান প্রদর্শন করা আব্যশক। 

এ অবস্থায় হজ এজেন্সিগুলোকে আগামী তিনদিনের মধ্যে হজযাত্রীদের ভিসা সম্পন্ন করার নির্দেশ দিয়ে বলা হয়, সৌদি আরব সূত্রে জানা যায় দ্রুত ভিসা লজমেন্ট প্রক্রিয়া শেষ হয়ে যাবে। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ভিসা করতে ব্যর্থ এজেন্সির বিরুদ্ধে হজ ব্যবস্থাপনায় প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টির কারণে হজ ও ওমরাহ ব্যবস্থাপনা আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

অনেক এজেন্সি এখনো হজযাত্রীদের পিআইডি (পরিচয় সূচক নম্বর) প্রদান সম্পন্ন করেনি বলে মন্ত্রণালয়ে অভিযোগ জমা হয়েছে জানিয়ে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এসব এজেন্সিকে আজকের মধ্যে সম্মানিত হজযাত্রীদের পিআইডি প্রদান করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। ব্যর্থতায় বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

কয়েকটি হজ এজেন্সি হজযাত্রীদের সঙ্গে প্যাকেজ মূল্য সংক্রান্ত লেনদেন সম্পন্ন করেনি বা প্যাকেজের অতিরিক্ত বা মুদ্রার বিনিময় হার বৃদ্ধির কারণে হাব ঘোষিত প্যাকেজের চেয়ে বেশি মূল্য দাবি করছে বলে মন্ত্রণালয়ে অভিযোগ জমা হয়েছে। এসব এজেন্সিকে আজকের মধ্যে সমস্যা সমাধান করে হজযাত্রীদের পিআইডি দেওৎয়ার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। ব্যর্থতায় বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অনেক এজেন্সির বিরুদ্ধে হজযাত্রী সংগ্রহ ও আর্থিক লেনদেনসংক্রান্ত কয়েকটি অভিযোগ মন্ত্রণালয়ে জমা পড়েছে। ওই এজেন্সিগুলোকে অনতিবিলম্বে উদ্ভূত সমস্যা বা অভিযোগের সমাধানে জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। ব্যর্থতায় বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা নেয়া হবে। প্রয়োজনে এ বিষয়ে হাবের সহযোগিতা গ্রহণ করা যেতে পারে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে ধর্ম মন্ত্রণালয়।

এমএম

সম্পর্কিত বিষয়:

×