ঢাকা, বাংলাদেশ   রোববার ২১ জুলাই ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১

আইএইএর বিবৃতি

পরমাণু সক্ষমতা আরও বাড়াচ্ছে ইরান

প্রকাশিত: ২২:১৬, ১৪ জুন ২০২৪

পরমাণু সক্ষমতা আরও বাড়াচ্ছে ইরান

.

ইরান তাদের পরমাণু সক্ষমতা আরও বাড়াচ্ছে বলে উল্লেখ করেছে আন্তর্জাতিক আণবিক শক্তি সংস্থা (আইএইএ) শুক্রবার সংস্থাটির এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, নাতাঞ্জ ফোরদৌতে পরমাণু কেন্দ্রগুলোতে আরও বেশি ক্যাসকেড মজুত করছে তেহরান। বিষয়টি তেহরানের কাছ থেকেই আইএইএ জানতে পেরেছে বলে জানিয়েছে। খবর এএফপির।

ক্যাসকেড হচ্ছে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণে ব্যবহৃত সেন্ট্রিফিউজসহ বিভিন্ন যন্ত্রপাতি। তবে একজন কূটনৈতিক সূত্র জানিয়েছে, ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণে ইরান মাঝারি ধরনের তৎপরতা চালাচ্ছে। গত সপ্তাহে আইএইএ গভর্নর বোর্ডের কাছে ইরান যথেষ্ট সহযোগিতা করছে না মর্মে প্রস্তাব উত্থাপন করে যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স জার্মানি। প্রস্তাবের বিরোধিতা করেছে চীন এবং রাশিয়া। আইএইএ গভর্নর বোর্ডে ৩৫টি দেশের প্রতিনিধি রয়েছেন। তারা বলেছেন, ২০২২ সালের নভেম্বরের পর প্রথমবারের মতো ধরনের প্রস্তাব উত্থাপিত হলো। ইরান এই প্রস্তাবের সমালোচনা করে বলেছে, প্রস্তাবটি মোটেও বিবেচনাপ্রসূত নয়।

প্রস্তাবটি তড়িঘড়ি করে উত্থাপন করা হয়েছে, তা স্পষ্ট। ধরনের প্রতীকী প্রস্তাব উত্থাপনের উদ্দেশ্য হচ্ছে, ইরানের ওপর কূটনৈতিক চাপ জোরদার করা। এর মধ্যে এক সময় জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদেও প্রস্তাবটি তোলার সুযোগ সৃষ্টি হবে। এর আগেও আইএইএ গভর্নর বোর্ডে ধরনের প্রস্তাব পাস হয়েছে। তারপর দেখা গেছে, ইরান তাদের পরমাণু স্থাপনা থেকে নজরদারি ক্যামেরা এবং অন্যান্য সরঞ্জাম সরিয়ে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ কার্যক্রম বাড়িয়ে দিয়েছে। এদিকে মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র ম্যাথিউ মিলার বলেন, আইএইএর প্রতিবেদন থেকে একটি বিষয় স্পষ্ট যে ইরান তাদের পরমাণু কর্মসূচি বাড়াচ্ছে এবং এর মধ্যে শান্তিপূর্ণ কোনো উদ্দেশ্য নেই।

×