ঢাকা, বাংলাদেশ   শনিবার ০২ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০

শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগের নির্দেশ

চবির চারুকলা এক মাসের জন্য বন্ধ ঘোষণা

চবি সংবাদদাতা

প্রকাশিত: ০০:০৮, ৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩

চবির চারুকলা এক মাসের জন্য বন্ধ ঘোষণা

‘ক্যাম্পাসে চারুকলার প্রত্যাবর্তন চাই’ সেøাগানে বৃহস্পতিবারও কর্মসূচি পালন করেন চবি শিক্ষার্থীরা

মূল ক্যাম্পাসে ফিরিয়ে নেওয়ার দাবিতে চট্টগ্রাম বিশ^বিদ্যালয়ের (চবি) চারুকলা ইনস্টিটিউটের শিক্ষার্থীরা আন্দোলনে রয়েছে। এ অবস্থায় বিশ^বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ একমাসের জন্য চারুকলা ইনস্টিটিউট বন্ধ ঘোষণা করেছে। বৃহস্পতিবার রাত দশটার মধ্যে ছাত্রছাত্রীদের হল ত্যাগের নির্দেশ দিয়েছে প্রশাসন। তবে অনলাইনে শিক্ষা কার্যক্রম চালু থাকবে বলে জানানো হয়েছে। সিন্ডিকেটের এই সিদ্ধান্ত নিয়ে তাৎক্ষণিকভাবে শিক্ষার্থীদের প্রতিক্রিয়া জানা যায়নি। 
বৃহস্পতিবার বিকেলে অনুষ্ঠিত সিন্ডিকেটের এক জরুরি সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সংস্কার কাজের জন্য চারুকলা একমাস বন্ধ থাকবে। মূলত সংস্কার কার্যক্রমের জন্যই এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে প্রশাসন। সভায় চারুকলার বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা হয়। শিক্ষার্থীদের দাবির মধ্যে অন্যতম ছিল চারুকলা ইনস্টিটিউটের ভবন সংস্কার। দীর্ঘ আন্দোলনে কার্যকর পদক্ষেপ না আসায় এ আন্দোলন একদফা দাবিতে রূপ নেয়। প্রতিদিনই চলছে আন্দোলন কর্মসূচি। 
সিন্ডিকেট সূত্রে জানা যায়, এক মাসের জন্য চারুকলা বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাত দশটার মধ্যে শিক্ষার্থীদের ক্যাম্পাস ত্যাগ করার নির্দেশ দিয়েছে প্রশাসন। এই এক মাস চারুকলায় সংস্কার কার্যক্রম পরিচালিত হবে। 
এদিকে, বৃহস্পতিবারও ইনস্টিটিউটকে চট্টগ্রাম শহর থেকে বিশ^বিদ্যালয়ের মূল ক্যাম্পাসে ফিরিয়ে নেওয়ার দাবিতে কর্মসূচি পালন করে শিক্ষার্থীরা। ধারাবাহিক কর্মসূচি হিসেবে ছাত্রছাত্রীরা ব্যানার ফেস্টুন নিয়ে অবস্থান নেয়। ‘ক্যাম্পাসে চারুকলার প্রত্যাবর্তন চাই’ স্লোগানে আয়োজিত সমাবেশে শিক্ষার্থীরা বলেন, দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে। এছাড়া বুধবার রাতে পরিচালিত অভিযানেও তারা ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

প্রসঙ্গত, মূল ক্যাম্পাসে ফেরাসহ কয়েকটি দাবিতে ৮২ দিন আন্দোলনের পর শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনির আশ্বাসে গত ২৩ জানুয়ারি শ্রেণিকক্ষে ফিরে যান শিক্ষার্থীরা। সাত দিন পরেও কোনো দাবি আদায় না হওয়ায় মঙ্গলবার থেকে ফের আন্দোলনে নামেন শিক্ষার্থীরা। তবে এরইমধ্যে আন্দোলন প্রশ্নে বিভক্ত হয়ে যান শিক্ষার্থীরা। অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টির আশংকায় বুধবার রাত দেড়টায় পুলিশের সহায়তায় চারুকলায় অভিযান চালায় প্রক্টরিয়াল বডি। 
গাঁজা উদ্ধার ॥ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) চারুকলা ইনস্টিটিউটে গভীর রাতে অভিযান চালিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টোরিয়াল বডি। বুধবার রাত ১টার দিকে চালানো এ অভিযানে শিল্পী রশিদ চৌধুরী হোস্টেলের ১০৪ নম্বর কক্ষ থেকে গাঁজা উদ্ধার করে প্রশাসন। এ সময় পাশের কক্ষ (১০৫) থেকে চারুকলার এক ছাত্রীকেও আটক করে প্রক্টরিয়াল বডি। পরে মুচলেকা নিয়ে ওই ছাত্রীকে ছেড়ে দেওয়া হয়।
প্রক্টরিয়াল বডির ভাষ্যমতে, চারুকলার দুই পক্ষের শিক্ষার্থীদের পাল্টাপাল্টি আন্দোলনের ফলে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টির আশংকায় এই অভিযান চালায় তারা। কিন্তু শিক্ষার্থীরা এ অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, দিনের বেলা কোনো অভিযান না চালিয়ে রাতের বেলা চালানো সন্দেহজনক। কারণ এ সময়ে কোনো পাল্টাপাল্টি অবস্থানের বিষয়ই ছিল না। রাতের অভিযানে আন্দোলনকারীদের ব্যানার-পোস্টার ছিঁড়ে ফেলার অভিযোগও করেন শিক্ষার্থীরা।

×