ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ০৬ জুলাই ২০২২, ২২ আষাঢ় ১৪২৯

পরীক্ষামূলক

বাংলাদেশ

এবারও ম্যাঙ্গো স্পেশাল ট্রেন চালু হচ্ছে ২২ মে

প্রকাশিত: ১২:৫১, ১৭ মে ২০২২

এবারও ম্যাঙ্গো স্পেশাল ট্রেন চালু হচ্ছে ২২ মে

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ রাজশাহী থেকে রাজধানী অভিমুখে এবারও চালু হচ্ছে ম্যাঙ্গো স্পেশাল ট্রেন। আম পরিবহনে আগামী ২২ মে থেকে চালু হচ্ছে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন। পশ্চিম রেলের এই বিশেষ ট্রেন শুধু আম নয়, শাক-সবজিসহ অন্যান্য ফলমূল ঢাকায় নিয়ে যাবে। রাজশাহীর বাজারে ২০ মে সুস্বাদু আম গোপালভোগ আসার একদিন পরই আম নিয়ে ট্রেন ছুটবে ঢাকায়। পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে সূত্র জানায়, এবারো এক জোড়া ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন রহনপুর-চাঁপাইনবাবগঞ্জ-রাজশাহী হয়ে ঢাকায় যাবে। আবার ঢাকা থেকে রাজশাহী হয়ে রহনপুর ফিরবে। পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের মহাব্যবস্থাপক অসীম কুমার তালুকদার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, প্রতি বছরের মতো এবারও কম খরচে আম পরিবহনের জন্য ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন চালু করা হবে। আগামী ২২ থেকে ২৫ মের মধ্যে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন চালু করার কথা রয়েছে। শিগগিরই আমরা একটা সভা করে চাষিদের চাহিদা অনুযায়ী সময় নির্ধারণ করব। তিনি বলেন, গুটি জাতের আম যেহেতু ঢাকায় তেমন চাহিদা নেই তাই ২০ তারিখের পর গোপালভোগসহ মিষ্টি জাতের আম পাড়া শুরু হলে তখন ট্রেন চালু হবে। আনুমানিক ২২ থেকে ২৫ তারিখের মধ্যে সময়টা হবে। প্রতি কেজি আমে ভাড়া কী পরিমাণ হবে তা জানতে চাইলে জিএম বলেন, সাধারণত ভাড়া এবং ট্রেনের সময় পরিবর্তন হবে না। গতবারে যা ছিল তাই হবে। তবে সভা করা হবে। সিদ্ধান্ত অনুযায়ী যদি পরিবর্তন হয়, তাহলে জানিয়ে দেওয়া হবে। রেলওয়ে সূত্র জানায়, প্রতি বগির ক্যারিং ক্যাপাসিটি ৪৩ মেট্রিক টন হলেও আম বহন করা হয় ৩০ মেট্রিক টন। রহনপুর, চাঁপাইনবাবগঞ্জ ও আমনুরা থেকে ঢাকা পর্যন্ত প্রায় ৪০০ কিলোমিটার পথের জন্য প্রতি কেজি আম পরিবহনের ভাড়া প্রস্তাব করা হয়েছে এক টাকা ৩০ পয়সা। আর রাজশাহী থেকে ঢাকা পর্যন্ত ৩৪৩ কিলোমিটার পথের জন্য প্রতি কেজি আমে ভাড়া দিতে হবে এক টাকা ১৭ পয়সা। এই ট্রেনে মোট পাঁচটি বগি থাকবে। প্রতিটি বগির ৪৩ টন ধারণক্ষমতা রয়েছে। তবে আম ভালো থাকার দিক বিবেচনা করে ১৫০ টনের মতো আম পরিবহন করা হবে।