সোমবার ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৩ মে ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

তাড়াহুড়া ইসি নিয়োগ আইন টিকে থাকার নীলনক্সা ॥ ফখরুল

  • বিএনপি বিদেশে লবিস্ট নিয়োগ করেনি

স্টাফ রিপোর্টার ॥ তাড়াহুড়া করে নির্বাচন কমিশন নিয়োগের আইন প্রণয়ন আওয়ামী লীগ সরকার জনগণের সঙ্গে প্রতারণা এবং পাতানো নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতায় টিকে থাকার নীল নক্সা বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। মঙ্গলবার বিকেলে বিএনপি চেয়ারপার্সনের গুলশান কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, বিএনপি মনে করে দেশের রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে কোন নির্বাচন কমিশনই অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানে সফল হবে না যদি না নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, বিএনপি বিদেশে লবিস্ট নিয়োগ করেনি।

বিএনপি বিদেশে লবিস্ট নিয়োগ করেছে বলে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর অভিযোগ নাকচ করে মির্জা ফখরুল বলেন, আমি স্পষ্ট করে বলে দিতে চাই, আমরা যা কিছু করি দেশকে রক্ষার জন্য করি। তার মানে এই নয় যে, আমরা লবিস্ট নিয়োগ করেছি। আমরা দুর্বৃত্তদের হাত থেকে দেশকে রক্ষার জন্য কাজ

করি। তবে আমরা লবিস্ট নিয়োগ করেছি এটা একেবারে সঠিক নয়। বিএনপি যে কোন লবিস্ট নিয়োগ করেনি আশা করি এরপর এ নিয়ে সরকারের কোন কনফিউশন থাকবে না। পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে ফখরুল বলেন, আপনার-আমার মধ্যে ঝগড়া থাকতে পারে, কিন্তু আপনার ও আমার ঝগড়া দেশের স্বার্থে কিনা তা দেখতে হবে।

করোনা টিকাদানের লক্ষ্যমাত্রা ৭০ শতাংশ থেকে ১০ শতাংশ কমিয়ে আনার বিষয়ে স্বাস্থ্য বিভাগের সিদ্ধান্তে উদ্বেগ প্রকাশ করেন মির্জা ফখরুল। তিনি বলেন, বিএনপি মনে করে সরকার শুরু থেকেই করোনা টিকা সংগ্রহ, সংরক্ষণ ও বিতরণের ক্ষেত্রে ব্যর্থ হয়েছে। দেশের করোনা পরিস্থিতি এবং টিকা প্রদানের বিষয়ে সঠিক চিত্র জনগণের সামনে প্রকাশ করার আহ্বান জানাচ্ছি।

ফখরুল বলেন, সোমবার রাতে বিএনপির স্থায়ী কমিটির ভার্চুয়াল বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার সর্বশেষ শারীরিক পরিস্থিতি সম্পর্কে সবাইকে অবহিত করা হয়। এ সভায় নির্বাচন কমিশন বিল ২০২২ জাতীয় সংসদে উত্থাপনের বিষয়ে আলোচনা হয়। বিএনপি মনে করে দেশের রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে কোন নির্বাচন কমিশনই অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানে সফল হবে না যদি না নির্বাচনকালীন সময়ে নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ২০১৪ এবং ২০১৮ সালের একতরফা নির্বাচনের মধ্য দিয়ে সেই সত্য প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।

ফখরুল বলেন, বিএনপি মনে করে বর্তমান সরকারের পদত্যাগ, নিরপেক্ষ নির্দলীয় সরকারের নিকট ক্ষমতা হস্তান্তর, সকল রাজনৈতিক দলের মতামতের ভিত্তিতে সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য ব্যক্তিদের সমন্বয়ে গঠিত নির্বাচন কমিশনের পরিচালনায় একটি অবাধ, সুষ্ঠু ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনার একমাত্র পথ, এর কোন বিকল্প নেই। এ লক্ষ্যে সকল রাজনৈতিক দল, সংগঠন, ব্যক্তি ও জনগণের ঐক্য গড়ে তুলে দুর্বার গণ-আন্দোলনের মাধ্যমে এই পরিবর্তন আনতে হবে।

সাংবাদিক দম্পতি সাগর-রুনি হত্যাকা-ের তদন্তের অভিযোগপত্র ৮৫ বার পেছানোর ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করে ফখরুল বলেন, বছরের পর বছর তদন্ত রিপোর্ট দাখিল না করা সরকারের দূরভিসন্ধি ও ব্যর্থতা। আমরা এ মামলার দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও সংশ্লিষ্ট পুলিশ কর্মকর্তার অপসারণ দাবি করছি।

ফখরুল বলেন, বাংলাদেশে মানবাধিকার লঙ্ঘনের দায়ে ১২টি আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠন জাতিসংঘ মিশনে র‌্যাবের প্রতি নিষেধাজ্ঞার দাবি জানিয়ে যে চিঠি দিয়েছে জাতিসংঘ তা খতিয়ে দেখবে বলেছে। তাই এ বিষয়টি নিয়ে বিএনপি উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। কারণ, আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় টিকে থাকার জন্য হত্যা, খুন, গুমসহ বিচার বহির্ভূত হত্যাকা-ের জন্য র‌্যাবসহ রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠানগুলোকে ব্যবহার করে দেশকে ভয়াবহ ঝুঁকির মধ্যে ফেলেছে। আর এর সুদূর প্রসারী প্রভাব দেশের নিরাপত্তা, স্থিতিশীলতা ও অর্থনীতিতে নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে। এই পরিস্থিতি সৃষ্টির সকল দায়দায়িত্ব সরকারকেই বহন করতে হবে।

ফখরুল জানান, বিএনপির স্থায়ী কমিটির বৈঠকে সিলেট শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে পুলিশের হামলা, সাউন্ড গ্রেনেড নিক্ষেপ, লাঠিচার্জ ও গুলি বর্ষণে অসংখ্য শিক্ষার্থী আহত হওয়ার ঘটনার নিন্দা জানানো হয়। এছাড়া ন্যায়সঙ্গত দাবিতে শিক্ষার্থীদের অনশন ও সকল প্রকার আন্দোলনের প্রতি নৈতিক সমর্থন জানানো হয়। অবিলম্বে ভাইস চ্যান্সেলরসহ দায়ী সকল দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তার অপসারণ এবং নিরপেক্ষ তদন্তের মাধ্যমে আইনের আওতায় আনার দাবি জানানো হয়। অনতিবিলম্বে নিরপেক্ষ, যোগ্য ব্যক্তিদের সমন্বয়ে কমিশন গঠন করে এ বিষয়ে কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানানো হয়।

ঢাকাকে বিশ্বে বায়ু দূষণে শীর্ষে চিহ্নিত করায় উদ্বেগ প্রকাশ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, সরকারের অযোগ্যতা, ব্যর্থতা ও কার্যকরী কোন পদক্ষেপ গ্রহণ না করার ফলে এই সঙ্কট আরও ঘণীভূত হয়েছে। জনগণের বিশেষ করে শিশু ও বয়স্ক মানুষের স্বাস্থ্যের চরম অবনতি ঘটতে শুরু করেছে। অবিলম্বে বায়ু দূষণ রোধে সরকারকে কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণের আহ্বান জানাচ্ছি।

২৪ জানুয়ারি সিরাজগঞ্জ জেলায় বিএনপি কার্যালয়ে বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া ও দলটির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের কনিষ্ঠ পুত্র আরাফাত রহমান কোকোর মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া মাহফিলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর আক্রমণ এবং ৪ জন যুব ও ছাত্র নেতাকে গ্রেফতারের নিন্দা জানান মির্জা ফখরুল। তিনি বলেন, বিনা উস্কানিতে এ ধরনের হামলা ও গ্রেফতার সরকারের একনায়কতান্ত্রিক ও নির্যাতনকারীর চেহারার বহির্প্রকাশ বলে বিএনপি মনে করে। অবিলম্বে গ্রেফতারকৃত নেতাকর্মীদের মুক্তি ও তাদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানাচ্ছি।

শীর্ষ সংবাদ:
কালোবাজারি চলবে না ॥ তালিকা নিয়ে মাঠে নামছে রেল পুলিশ         বুঝেশুনে উন্নয়ন কাজের পরিকল্পনা নিতে হবে         বিএনপিকে নিয়ম মেনেই নির্বাচনে আসতে হবে ॥ কাদের         ঢাকায় আইসিসি প্রধানের ব্যস্ত দিন         দুদুকের মামলায় হাজী সেলিম কারাগারে         সিলেট নগরীর পানি নামছে ॥ সুনামগঞ্জ হাওড়বাসীর দুর্ভোগ         দুই সন্তানসহ স্ত্রী হত্যা ॥ স্বামী আটক         বিশ্বের সবচেয়ে দামী আম চাষ হচ্ছে দেশে         সেনাবাহিনীর ক্যাপ্টেন পরিচয়ে প্রতারণা ॥ জামাই-শ্বশুর আটক         দেশে কালো টাকা ৮৯ লাখ কোটি, পাচার ৮ লাখ কোটি         সব ব্যাংকারদের বিদেশ ভ্রমণ বন্ধ করলো বাংলাদেশ ব্যাংক         সরকার পরিবর্তনের একমাত্র উপায় নির্বাচন ॥ কাদের         ভারত থেকে গমের জাহাজ এলো চট্টগ্রাম বন্দরে, কমছে দাম         কারাগারে হাজী সেলিম, প্রথম শ্রেণির মর্যাদা         অর্থনীতি সমিতির ২০ লাখ ৫০ হাজার কোটি টাকার বিকল্প বাজেট পেশ         কোভিড-১৯ : ভারত-ইন্দোনেশিয়াসহ ১৬ দেশের হজযাত্রীদের দুঃসংবাদ         বাইডেনসহ ৯৬৩ মার্কিন নাগরিকের রাশিয়া প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা         পেছাচ্ছে না ৪৪তম বিসিএস প্রিলি         পরিবেশ রক্ষায় যত্রতত্র অবকাঠামো করা যাবে না ॥ প্রধানমন্ত্রী         রাজধানীর গুলশানে দারিদ্র্য কম, বেশি কুড়িগ্রামের চর রাজিবপুরে