রবিবার ৪ মাঘ ১৪২৭, ১৭ জানুয়ারী ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

জুলাই থেকে নতুন ভ্যাট আইন কার্যকর হবে

  • আইএমএফ প্রতিনিধি দলকে জানালেন অর্থমন্ত্রী

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ আগামী জুলাই মাস থেকে নতুন ভ্যাট আইন কার্যকর করা হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

সোমবার সচিবালয়ে নিজ দফতরে আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক (ডিএমডি) মিথসুহিরো ফুরুসাওয়ার নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দলের সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন অর্থমন্ত্রী। তিনি বলেন, ভ্যাট আইন কার্যকর বিষয়ে আইএমএফ পরামর্শ দিয়েছে। এ আইনটি কার্যকরের বিষয়ে আইএমএফের প্রতিনিধি দলকে জানানো হয়েছে।

অর্থমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের অর্থনীতির সবকিছু ভালভাবে চলছে। তবে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। তিনি বলেন, আগামী ১ জুলাই থেকে এ আইন কার্যকর করা হবে। এনবিআর ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠক করে যে সারসংক্ষেপ প্রস্তুত করেছে তা আগামী সপ্তাহেই হাতে পাওয়া যাবে। সেটা দেখে পরবর্তী পদক্ষেপ নেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, ব্যবসায়ীদের দাবির প্রেক্ষিতে গত অর্থবছর থেকেই পণ্য ও সেবা বিক্রির ওপর ১৫ শতাংশ হারে মূল্য সংযোজন কর (প্যাকেজ ভ্যাট) আদায়ের পরিকল্পনা এক বছর পিছিয়ে দেয় সরকার। গত বছরের ১ জুলাই থেকে ২০১২ সালের ‘মূসক ও সম্পূরক শুল্ক আইন’ কার্যকর করে ওই ভ্যাট আদায়ের পরিকল্পনা করা হলেও তা এখন আগামী ১ জুলাই থেকে কার্যকর করার ঘোষণা দিলেন অর্থমন্ত্রী।

ইতোমধ্যে ১৫ শতাংশ হারে ভ্যাট দিতে আপত্তি জানিয়ে কয়েক দফা ব্যবসায়ীরা মানববন্ধন ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন। মূলত ব্যবসায়ীদের দাবির কারণে গত এক বছর আগে আইনটি কার্যকর হয়নি।

যদিও চলতি বাজেট বক্তৃতায়ও এ প্রসঙ্গে মুহিত বলেন, মূল্য সংযোজন কর আইনটি অনেক পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর ২০১২ সালে গৃহীত হয়। নতুন ব্যবস্থায় উৎপাদন প্রক্রিয়ার প্রতি স্তরে মূল্য সংযোজন কর প্রযোজ্য করার স্বার্থে উৎপাদনকারী ও সেবাদানকারী বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের নিম্নপর্যায়ের যথাযথ হিসাব রাখার ব্যবস্থাটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। দুর্ভাগ্যবশত দেখা যাচ্ছে যে, এজন্য প্রস্তুতি এখন পর্যন্ত যথাযথ নয়। এ প্রেক্ষিতে সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে, ২০১২ সালে প্রণীত মূল্য সংযোজন কর আইন ২০১৬-১৭ অর্থবছরেও পুরাপুরি কার্যকর হবে না। তবে এটি জুলাই ২০১৭ সাল থেকে পুরোপুরি কার্যকর হবে।

ওই সময় তিনি আরও বলেন, আমাদের লক্ষ্য কিন্তু বদলে যায়নি। আমরা আইনটি পুরোপুরি কার্যকর করব একটি বছর পরে।

এদিকে চলতি অর্থবছরে রাজস্ব আয়ের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ২ লাখ ৪২ হাজার ৭৫২ কোটি টাকা, যার মধ্যে মূসক থেকেই ৭২ হাজার ৭৬৪ কোটি টাকা আসবে বলে অর্থমন্ত্রী আশা করছেন। ভ্যাটের এ অঙ্ক গত অর্থবছরের তুলনায় ৩৫ শতাংশ বেশি। এছাড়া আগামী ২০১৭-১৮ অর্থবছরের জন্য ৪ লাখ ২০ হাজার কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা করার প্রস্তুতি নিচ্ছেন অর্থমন্ত্রী। বড় অঙ্কের এ বাজেট বাস্তবায়ন ও অর্থ সংগ্রহে রাজস্ব আদায়ে সবচেয়ে বেশি জোর দিচ্ছে সরকার। আর এ কারণেই এবার ভ্যাট আইন বাস্তবায়নে জোর দেয়া হচ্ছে বলে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন।

শীর্ষ সংবাদ:
করোনা : ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৩, নতুন শনাক্ত ৫৬৯         মহামারীর প্রভাব মোকাবেলায় সরকারের আরও ২৭০০ কোটি টাকা প্রণোদনা         ইন্টারপোলের রেড অ্যালার্টের তালিকায় ৭৮ বাংলাদেশি         শিশুদের জন্য শিক্ষণীয় চলচ্চিত্র নির্মাণের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর         কাকরাইলে মা-ছেলেকে হত্যা ॥ স্বামীসহ ৩ জনের মৃত্যুদণ্ড         একুশে বইমেলার তারিখ নির্ধারণ হয়নি ॥ সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী         এমসি কলেজে গণধর্ষণ মামলার বিচার শুরু         জঙ্গিবাদের শেষ শেকড়টিও উপড়ে ফেলতে চাই ॥ আইজিপি         ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের প্রটোকল জমা দিলো গ্লোব বায়োটেক         ভূমিকম্পে ইন্দোনেশিয়ায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫৬         বরিশালে সড়ক দুর্ঘটনায় পিতা-পুত্র নিহত         ইয়াফেস ওসমানের স্ত্রীর মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক         করোনা ভাইরাসে ॥ বিশ্বজুড়ে আক্রান্ত প্রায় সাড়ে ৯ কোটি         অভিষেকের দিনই ডজনখানেক নির্বাহী আদেশে সই করবেন বাইডেন         যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে বাড়তি সতর্কতা         উগান্ডায় প্রেসিডেন্ট পদে মুসেভেনিকে বিজয়ী ঘোষণা         ইরান নিজেই সন্ত্রাসবাদের শিকার ॥ রাশিয়া         দুর্গম চরে আলো ॥ সাবমেরিন ক্যাবলে         কিছু বিচ্ছিন্ন ঘটনা ছাড়া উৎসবমুখর পৌর নির্বাচন         পোশাক শিল্প মালিকদের নতুন বাজার খোঁজার পরামর্শ