বৃহস্পতিবার ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০২ ডিসেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

সতীর্থের শাস্তির বিরুদ্ধে আবেদন করবেন বোল্ট

সতীর্থের শাস্তির বিরুদ্ধে আবেদন করবেন বোল্ট

অনলাইন ডেস্ক ॥ সতীর্থ নেস্তা কার্টার ডোপ পরীক্ষায় ধরা পড়ায় অলিম্পিকের ইতিহাসে প্রথম ‘ট্রিপল ট্রিপল’ নজিরের গৌরব ভেঙে পড়েছে উসাইন বোল্টের। তবে তিনি কার্টারের ওপর ক্ষুদ্ধ নন। উল্টো কার্টারের শাস্তির বিরুদ্ধে আবেদন করতে যদি অর্থের প্রয়োজন হয় তবে তিনি দিতে রাজি।

সম্প্রতি ডোপ টেস্টে বেইজিং অলিম্পিকের ১০০ মিটার রিলেতে বোল্টের সতীর্থ কার্টার পজিটিভ প্রমাণীত হওয়ায় স্বর্ণ ফিরিয়ে দিতে হয়েছে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটিকে।

কার্টার যদি আইওসি’র শাস্তির বিরুদ্ধে কোর্ট অব আর্বিট্রেশনে আবেদন করেন তা হলে খরচ হতে পারে প্রায় ১৩ মিলিয়ন মার্কিন ডলার! জামাইকার মিডিয়ার এমনটাই দাবি। কার্টারের আইনজীবীরা এই বিপুল অর্থ খরচ করার আগে তাই তড়িঘড়ি আবেদনের পথে না হেটে আবেদন করলে কতটা লাভ হতে পারে সেটা খতিয়ে দেখছেন।

এ ব্যাপারে বোল্ট বলছেন, ‘নেস্তার সঙ্গে এ নিয়ে কথা হয়নি। তবে এ জন্য আমি কারও সঙ্গে সম্পর্ক খারাপ করবো না। নেস্তা এখনও আমার বন্ধুই। আমার ম্যানেজমেন্টের সঙ্গে কথা বলতে হবে। যদি প্রয়োজন হয় আমি কার্টারকে সাহায্য করতে রাজি।’

বোল্ট, কার্টার, আসাফা পাওয়েল আর মাইকেল ফ্রেটার বেইজিংয়ে ১০০ মিটার রিলে দৌড়েছিলেন। বুধবার আইওসি তাদের পদক বাতিল করে দেয় কার্টারের নমুনায় নিষিদ্ধ মিথাইলহেক্সানেমাইন থাকায়। শুক্রবার সবাই তাদের পদক ফিরিয়ে দিয়েছেন জামাইকান অলিম্পিক কমিটিকে।

তবে অলিম্পিকের ইতিহাসে তার প্রথম তিন বার তিনটি ইভেন্টে সোনা জেতার রেকর্ড ভেঙে গেলেও বোল্ট বলছেন, ‘গোটা ক্যারিয়ার জুড়ে আমি যা যা পেয়েছি সেটা এই ঘটনায় পাল্টে যাবে না। এমন কৃতিত্ব দেখিয়েছি যেটা আগে কেউ কখনও পারেনি

শীর্ষ সংবাদ:
গণমুখী প্রশাসন ॥ স্বাধীনতার ৫০ বছরে বড় অর্জন         ছাত্রদের কাজ লেখাপড়া, রাস্তায় নেমে যান ভাংচুর নয়         উন্নয়নে পাকিস্তানকে পেছনে ফেলেছে বাংলাদেশ         ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় নেতৃত্বের ভূমিকায় থাকবে         ১১ খাতে বিপুল বিনিয়োগ আসার সম্ভাবনা         ঐতিহাসিক পার্বত্য শান্তি চুক্তিতে বদলে গেছে পাহাড়         রামপুরায় ছাত্র বিক্ষোভ, মতিঝিলে গাড়ি ভাংচুর         দেশের প্রথম বর্জ্য বিদ্যুত কেন্দ্র অবশেষে বাস্তবায়ন হচ্ছে         বাল্যবিয়ে রোধে কাজীদের সচেতন করতে প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে         হত্যা মিশনে ব্যবহৃত গুলি-অস্ত্র উদ্ধার         শ্রদ্ধা ভালবাসায় জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলামের চিরবিদায়         সুপ্রীমকোর্টে শারীরিক উপস্থিতিতে বিচার কাজ শুরু         খালেদা জিয়াকে স্তব্ধ করে দিতে চায় সরকার ॥ ফখরুল         মুক্তিপণের টাকা আদায় হচ্ছিল মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে         সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে লাল সবুজের মহোৎসবে মুখরিত হাতিরঝিল         ৯০ কার্যদিবসে সম্প্রীতি বিনষ্টের মামলা নিষ্পত্তি করতে হবে         এইচএসসি ও আলিম পরীক্ষা উপলক্ষে যে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে ডিএমপি         আন্তর্জাতিক বাজারে তেলের দাম কমলে ব্যবস্থা নেবো : অর্থমন্ত্রী         হৃদরোগ ঝুঁকি হ্রাসে সরকারের যুগান্তকারী পদক্ষেপ         করোনা : গত ২৪ ঘন্টায় আরও ২ জনের মৃত্যু