ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯

পরীক্ষামূলক

ডব্লিউটিএ ফাইনালস, জেতার জন্য চুল কাটলেন কুজনেতসোভা

জয় দিয়ে শুরু কারবারের

প্রকাশিত: ০৬:২৮, ২৬ অক্টোবর ২০১৬

জয় দিয়ে শুরু কারবারের

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ‘নাক কেটে অপরের যাত্রাভঙ্গ’- এমন প্রবাদ বেশ প্রচলিত। সেটারই অনুকরণ করলেন যেন সভেতলানা কুজনেতসোভা। এ রাশিয়ান টেনিস তারকা ম্যাচের মাঝে বিরতির সময় সাধের চুলই কেটে ফেললেন পিছিয়ে থাকার পর। সেটা কার্যকরও হয়েছে। ঠিকই পরবর্তীতে ঘুরে দাঁড়িয়ে জিতেছেন পোল্যান্ডের এ্যাগ্নিয়েস্কা রাদওয়ানস্কার বিরুদ্ধে। সিঙ্গাপুরে চলমান রাউন্ড রবিন লীগ পদ্ধতির ডব্লিউটিএ ফাইনালস আসরের প্রথম ম্যাচেই কুজনেতসোভা জয় পেয়েছেন ৭-৫, ১-৬ ও ৭-৫ সেটে। জেতার পর আবার চুল কেটে ফেলার কষ্টে কেঁদেও ফেলেছেন এ রাশিয়ান তরুণী। একইদিনে বিশ্বের এক নম্বর জার্মানির এ্যাঞ্জেলিক কারবার ও রোমানিয়ার সিমোনা হ্যালেপও জয় পেয়েছেন। গত সপ্তাহেই মস্কোয় শিরোপা জিতেছেন ৩১ বছর বয়সী কুজনেতসোভা। মৌসুম শেষের আসর ডব্লিউটিএ ফাইনালসে জায়গা করে নেন সেই জয়টার কারণেই। এবার শুরুতেই জয় দিয়ে শুরু করলেন তিনি। প্রথম দুটি সেট জিতেছিলেন উভয়েই। ম্যাচের ফলাফল নির্ধারণী তৃতীয় ও শেষ সেটেও এগিয়ে গিয়েছিলেন রাদওয়ানস্কা। তখন মাঝ বিরতির সময় চেয়ার আম্পায়ারের কাছে একটি বড় কাঁচি চান কুজনেতসোভা। এরপর পনিটেইলটা কেটে ফেলেন তিনি। কোর্টে ফিরেই ঘুরে দাঁড়ান এবং শেষ পর্যন্ত জয় ছিনিয়ে নেন কুজনেতসোভা। মাত্র ৪৮ ঘণ্টার ব্যবধানে টানা দ্বিতীয় কঠিন ম্যাচ জিতলেন তিনি। সেটাও আবার মস্কো থেকে সিঙ্গাপুর এসে। জেতার জন্য চুল কাটার এ অভিনব সিদ্ধান্তটি অবশ্য ম্যাচ শেষে বেশ কাঁদিয়েছে কুজনেতসোভাকে। সাধের চুলের জন্য বেশ কষ্ট পেয়েছেন তিনি। এ বিষয়ে এ রাশিয়ান তরুণী বলেন, ‘ওটা আমাকে দারুণ বিরক্ত করছিল। আমি হেডব্যান্ডের নিচে ওটাকে রাখার চেষ্টা করছিলাম কিন্তু বারবার বেরিয়ে আসছিল। কারণ আমার চুল বেশ ঘন এবং ভারি। আমি যখন ফোরহ্যান্ড শটগুলো খেলছিলাম সেটাকে অনেক জোরে মারছিলাম। ঠিক তখনই চুলগুলো এসে আমার চোখের ওপর ঝাপটা মারছিল। এটা আমাকে বেশ সমস্যায় ফেলছিল। ওই মুহূর্তে ভাবলাম আমার কাছে গুরুত্বপূর্ণ কি? চুল আমি যে কোন সময় বড় করতে পারব, কিন্তু ম্যাচ হেরে গেলে সেটা আর ফিরে পাব?’ গত আসরে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন রাদওয়ানস্কা। এবার হার দিয়ে শুরু করেছেন। তবে রাদওয়ানস্কা নাকি ব্যাপারটা খেয়ালই করেননি। তিনি বলেন, ‘আমি বিষয়টা জানিও না। খুব ভাল যে তিনি অন্য কিছু কেটে ফেলেননি। আমার মনে হয় না চুল খুব গুরুত্বপূর্ণ কিছু।’ বিশ্বের এক নম্বর জার্মানির কারবারকে অবশ্য বেশ সমস্যায় পড়তে হয়েছে জেতার জন্য। ডোমিনিকা সিবুলকোভাকে ৭-৬ (৭-৫), ২-৬ ও ৬-৩ সেটে হারিয়ে স্বস্তিতেই শুরু করেছেন মর্যাদার এ আসরটি। জয়ের পর তিনি বলেন, ‘অবশ্যই অনেক চাপ ছিল। এটা আমার জন্য বেশ চ্যালেঞ্জের এবং আমি অনেক চেষ্টা করে যাচ্ছি নিজের সেরা খেলাটা উপহার দিতে। জেতার পর এখন আমি অনেক স্বস্তিতে আছি।’ রোমান তারকা হ্যালেপও জয় তুলে নিয়েছেন। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের উঠতি তারকা ম্যাডিসন কিসকে সরাসরি ৬-২, ৬-৪ সেটে হারিয়ে ভাল সূচনা পেয়েছেন। ৭ মিলিয়ন ডলারের এ টুর্নামেন্টের মধ্যদিয়েই চলতি মৌসুমের যবনিকা ঘটবে। ডব্লিউটিএ র‌্যাঙ্কিংয়ের সেরা আটে থাকা মহিলা টেনিস তারকারাই এ আসরে অংশ নিয়ে থাকেন।
ডিজিটাল বাংলাদেশ পুরস্কার ২০২২
ডিজিটাল বাংলাদেশ পুরস্কার ২০২২