বৃহস্পতিবার ২৪ আষাঢ় ১৪২৭, ০৯ জুলাই ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ভৈরবে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের ভূমি দখলের অভিযোগ

নিজস্ব সংবাদদাতা, ভৈরব, ২৩ মে ॥ ভৈরব পৌর এলাকার জগন্নাথপুর গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সম্পত্তি একই এলাকার সাখাওয়াত হোসেন সুজন ও তার ভাই সাজ্জাত হোসেন মামুন কয়েকটি ভুয়া দলিলের মাধ্যমে ক্রয় করে দখল করে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। শনিবার দুপুরে মরহুম মুক্তিযোদ্ধা মতিউর রহমান মাস্টারের কন্যা শাহানা বেগম মিতা ভৈরব প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলন করে এ অভিযোগ করেন। এ সময় এলাকার হাজী আব্দুল মান্নান, হাজী মাহাবুব ভূঁইয়া, গোলাম হাবীব, মোঃ কামাল মিয়া, মোঃ নূরুল ইসলাম, হাজী মোঃ ইসমাইল ভূঁইয়া প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

মুক্তিযোদ্ধার কন্যা শাহানা বেগম মিতা অভিযোগ করেন, জগন্নাথপুর এলাকার পাথর ও বালি ব্যবসায়ী সুজন ও মামুন মালামাল রাখার জন্য তার মায়ের কাছ থেকে ২০১০ সালে ৫ বছরের চুক্তিতে ২০ শতাংশ জমি ভাড়া নেয়। উক্ত ভাড়ার মেয়াদ শেষ হলে তাকে জমি খালি করে ভূমিটি তাদের বুঝিয়ে দিতে বলেন। ভূমিটি বুঝিয়ে না দিলে শাহানা বেগম এলাকায় সালিশ করলে আবারও ৪ মাস সময় বৃদ্ধি করে পুনরায় ভাড়া চুক্তি করে। গত ৪ মে এ চুক্তির মেয়াদ শেষ হলে এলাকার কাউন্সিলর আশরাফ আলী ও ভৈরব থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ বদরুল আলম তালুকদারের মাধ্যমে ভূমিটি খালি করতে মৌখিকভাবে ৭ দিনের সময় নেয়। এ সময় পেয়ে ভাড়াটিয়া সুজন শাহানা বেগমের চাচাত ভাই বোন ও মায়ের কাছ থেকে একটি ভুয়া দলিল সৃষ্টি করে কিশোরগঞ্জ আদালত থেকে ভূমিতে একটি নিষেধাজ্ঞা জারি করে।

গত ১২ মে সুজন এলাকার সন্ত্রাসীদের নিয়ে দেয়াল নির্মাণ শুরু করলে শাহানা বেগমের পরিবার বাধা দেয়। তারা বাধা না মানলে শাহান বেগম কিশোরগঞ্জ আদালত থেকে উক্ত ভূমিতে ১৪৪ ধারা জারি করে। ভৈরব উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেসমিন আক্তারের হস্তক্ষেপে দেয়াল নির্মাণ স্থগিত করা হয়।

উখিয়ায় যৌতুকের বলি তিন সন্তানের জননী

স্টাফ রিপোর্টার, কক্সবাজার ॥ উখিয়ার ইনানী নুরার ডেইল গ্রামে কহিনুর আক্তার নামে ৩ সন্তানের জননীকে নির্মমভাবে পিটিয়ে হত্যা করেছে শ্বশুরালয়ের লোকজন। পরে ওই হতভাগী কহিনুরের মুখে বিষ ঢেলে দিয়ে আত্ম্যহত্যা বলে চালিয়ে দিতে অপতৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে। শুক্রবার বিকেলে স্বামী আব্দুল গফুর ও শ্বশুর পক্ষের লোকজন তাকে মারধর করে মুখে বিষ ঢেলে দিয়ে হাসপাতালে ভর্তি করালে শনিবার সকালে মারা যায় ডেইলপাড়া গ্রামের ফরিদ আলমের মেয়ে কহিনুর (২৫)। তার পিতা জানান, কয়েক মাস ধরে কহিনুরের স্বামী, শ্বশুর আব্দুস ছবি এবং শাশুড়ি মাহমুদা খাতুন যৌতুকের জন্য তাকে নির্যাতন করে আসছিল। যৌতুক দিতে না পারায় স্বামী ও শ্বশুর পক্ষের লোকজন নির্মমভাবে পিটিয়ে পরবর্তীতে মুখে বিষ ঢেলে দিয়ে হত্যা করেছে।

করোনাভাইরাস আপডেট
বিশ্বব্যাপী
বাংলাদেশ
আক্রান্ত
১১৭৬১০৭৩
আক্রান্ত
১৭২১৩৪
সুস্থ
৬৭৫৫৩২৪
সুস্থ
৮০৮৩৮
শীর্ষ সংবাদ:
রিজেন্টের অনিয়ম খুঁজে বের করে ব্যবস্থা নিয়েছি         চিকিৎসা প্রতারক সাহেদের উত্থান বিস্ময়কর         সরকার কঠোর ॥ স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী নিয়ে দুর্নীতি         করোনা সঙ্কট উত্তরণে এখনই জোরালো বৈশ্বিক সাড়া দরকার         করোনায় আরও ৪৬ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ৩৪৮৯         স্বাস্থ্যবিধি না মানার হতাশাজনক চিত্র         আসুন মনের মাঝেই দৃঢ়তার দুর্গ নির্মাণ করি         বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি, তবে ভোগান্তি কমছে না         আমরা পেছনে নয়, সামনের দিকে এগিয়ে যেতে চাই         পাহাড়জুড়ে শঙ্কা, যে কোন সময় প্রতিশোধ!         সিটি কর্পোরেশন গরু জবাইয়ের দায়িত্বে         সঙ্কটকালে তরুণরাই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে         বিএনপির নিষ্ক্রিয় নেতাদের কালো তালিকা         চট্টগ্রামে করোনায় মৃত্যু ২শ’ ছাড়াল, নতুন আক্রান্ত ২৯৫         ভার্চুয়াল ডিভিশন হাইকোর্ট বেঞ্চ চালুর সিদ্ধান্ত         রিজেন্ট হাসপাতালের মিরপুর শাখা সিলগালা         কোরবানি ঈদে বর্ধিত বোনাস সরকারী চাকরিজীবিদের         পোশাক শ্রমিকদের ৮৪ কোটি টাকা প্রদান         স্মার্ট মিটার থাকলে বিল নিয়ে সমস্যা হতো না : বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী         গবর্নরের মেয়াদ বাড়াতে সংসদে বিল        
//--BID Records