মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১১ আশ্বিন ১৪২৪, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

মঙ্গলে আলু চাষ!

প্রকাশিত : ২৩ ডিসেম্বর ২০১৫

সৌরজগতের ৪র্থ গ্রহ মঙ্গলে মানুষের বসতি স্থাপনের জন্য বিজ্ঞানীদের চেষ্টা দীর্ঘ দিনের। চেষ্টার অংশ হিসেবে এবার মঙ্গলে আলু উৎপাদনের পরিকল্পনা নিয়েছে পেরুর ইন্টারন্যাশনাল পটেটো সেন্টার (সিআইপি) ও মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা। পৃথিবীর অর্ধেক ব্যাসাধ্যের মঙ্গল বা লালগ্রহে আলু উৎপাদনের জন্য একটি বিশেষ ঘর তৈরি করে সেখানে যাতে অচিরেই চাষাবাদ করা যায়, এ লক্ষ্যে গবেষণা চালাচ্ছেন গবেষকরা। এ জন্য ব্যবহার করা হচ্ছে পেরুর প্যামপাস ডে লা জয়া মরুভূমির মাটি। এই মরুভূমির মাটিও মঙ্গলের মাটির মতো লাল বর্ণের। এ ছাড়া পরীক্ষাগারে প্রায় মঙ্গলের মতো পরিবেশ তৈরি করে আলুর চাষ করতে যাচ্ছেন গবেষকরা। বিজ্ঞানীদের মত কার্বন-ডাই-অক্সাইডের আধিক্য উদ্ভিদের জন্য সহায়ক। আর মঙ্গলের পরিবেশে ৯৫ শতাংশ পর্যন্ত কার্বন-ডাই-অক্সাইড উপস্থিতির প্রমাণ রয়েছে।

নাসা বিজ্ঞানী ক্রিস ম্যাককে বলেন, পৃথিবীর বাইরের কোন গ্রহে চাষাবাদের জন্য এই আমরা প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছি। আর মহাকাশে ভবিষ্যতে মানুষের বসতি গড়ে উঠবে, সেখানে খাবার উৎপাদনের বিষয়টি শীঘ্রই আলোর মুখ দেখবে। তিনি বলেন, শুধু প্রতিকূল পরিবেশে বেড়ে ওঠাই নয়, পুষ্টিগুণসম্পন্ন খাবার হিসেবেও আলু পরিচিত। ভিটামিন সি, আয়রন, জিঙ্ক ও দরকারি পুষ্টিগুণ আছে আলুতে।

এই প্রকল্পের দ্বিতীয় উদ্দেশ্য হিসেবে ক্রিস ম্যাককে বলেন, বৈশ্বিক খাদ্য নিরাপত্তা ব্যবস্থার উন্নয়নে আলুর ভূমিকাকে আরও জোরালো করাই এই গবেষণার দ্বিতীয় লক্ষ্য। এ বিষয়ে সিআইপির যোগাযোগ বিষয়ক প্রধান জোয়েল র‌্যাঙ্ক বলেন, ২০০ কোটি বছর আগে পৃথিবীতে জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে কীভাবে ফসল উৎপাদন হয়ে আসছে এই বিষয়টি জানাও আমাদের একটা উদ্দেশ্য। আমরা চাই মানুষ বুঝতে শিখুক যদি লালগ্রহণের অতিবৈরি পরিবেশে আমরা আলু উৎপাদন করতে পারি। তাহলে আমরা পৃথিবীর লাখ লাখ জীবন বাঁচাতে পারব। সিএনবিসি অবলম্বনে।

প্রকাশিত : ২৩ ডিসেম্বর ২০১৫

২৩/১২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



শীর্ষ সংবাদ: