২৫ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

একটি মহল জ্বালাওপোড়াও করে দেশে শান্তি বিনষ্টের অপচেষ্টা চালায় ॥ বিচারপতি মা


স্টাফ রিপোর্টার, মুন্সীগঞ্জ ॥ দেশের অগ্রযাত্রায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সফল নেতৃত্ব তুলে ধরে সম্মিলিত প্রচেষ্টায় দেশ এগিয়ে নেয়ার ক্ষেত্রে অবদান রাখার জন্য সকলের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন সুপ্রীমকোর্টের আপীল বিভাগের বিচারপতি এইচএম শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক। তিনি বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ডাকে মহান মুক্তিযুদ্ধে সারা বাংলার মতো বিক্রমপুরও পাক হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। এখানে মুক্তিযুদ্ধের সময় দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে আসা মানুষের নিরাপত্তাসহ সাদরে আশ্রয় দেয়া হয়। রতœগর্ভা মুন্সীগঞ্জ হচ্ছে শান্তিপূর্ণ জেলা। বিগত কয়েক মাস আগে দেশে বিভিন্ন স্থানে একটি মহল জ্বালাওপোড়াও করে শান্তি বিনষ্ট করার অপচেষ্টা চালায়। কিন্তু প্রশাসন যথাযথভাবে তা মোকাবেলা করে। এ ক্ষেত্রে মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসন, পুলিশ এবং বিচার বিভাগের ভূমিকা প্রশংসনীয়। বিচারপতি এইচএম শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক বলেন, বিক্রমপুরের ঐতিহ্য বিশ্বজোড়া। এই জনপদের কৃতীসন্তান অতীশ দীপঙ্কর, স্যার জগদীশ চন্দ্র বসু, সরোজিনী নাইডু, মানিক বন্দ্যোপধ্যায়সহ বহু গুণী মানুষ সভ্যতাকে আলোকিত করার ক্ষেত্রে আলোকবর্তিকা হিসেবে কাজ করেছেন।

মঙ্গলবার মুন্সীগঞ্জ সার্কিট হাউসে জেলা প্রশাসন আয়োজিত ইফতারপূর্ব আলোচনায় প্রধান অতিথির ভাষণে তিনি এ কথা বলেন। মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসক মোঃ সাইফুল হাসান বাদলের সভাপতিত্বে এতে উপস্থিত ছিলেন সাবেক সাংসদ আলহাজ মমতাজ বেগম, জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ শওকত আলী চৌধুরী, জেলা জজ (নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক) মোঃ ফজলুল হক, পুলিশ সুপার বিপ্লব বিজয় তালুকদার, চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ বদরুল আলম ভূইয়া, অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ একেএম মোজাম্মেল হক চৌধুরী, সিভিল সার্জন মোঃ শহিদুল ইসলাম, ডাঃ ইয়াজউদ্দিন আহম্মেদ রেসিডেন্সিয়াল মডেল কলেজের অধ্যক্ষ মেজর মোঃ রেজাউল করিম, প্রথম যুগ্ম জেলা জজ আবুল কাসেম, জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আনিস-উজ-জামান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেন, এডিসি (রাজস্ব) কুদ্দুস আলী সরকার, এডিসি (সার্বিক) মোঃ ফজলে আজিম, এডিএম একেএম শওকত আলম মজুমদার, সিরাজদিখান উপজেলা চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন আহম্মেদ, টঙ্গীবাড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার কাজী ওয়াহিদ, গজারিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান রেফায়েত উল্লাহ খান তোতা, শ্রীনগর উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ মমিন আলী, মুন্সীগঞ্জ পৌর মেয়র একেএম ইরাদত মানু, অধ্যাপক সুখেন চন্দ্র ব্যানার্জি, সাবেক মেয়র এ্যাডভোকেট মুজিবুর রহমান, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ইমদাদ হুসাইন, জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মোঃ তোফাজ্জল হোসেন, পিপি আব্দুল মতিন, জিপি লুৎফর রহমান, জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি এ্যাডভোকেট আর্শেদউদ্দিন চৌধুরী, নবনির্বাচিত জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এ্যাডভোকেট শম হাবিবুর রহমান, সহসভাপতি এ্যাডভোকেট সিরাজুল ইসলাম পল্টু, সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট নাসিমা আক্তার, দৈনিক মুন্সীগঞ্জের কাগজের সম্পাদক মোহাম্মদ আরফিন, প্রেসক্লাব সভাপতি মীর নাসিরউদ্দিন উজ্জ্বল, সাধারণ সম্পাদক তানভীর হাসান প্রমুখ।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: