ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৪ মাঘ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

ব্যর্থতার দায়ভার নিয়ে পদত্যাগ মেক্সিকো কোচ মার্টিনোর

স্পোর্টস রিপোর্টার

প্রকাশিত: ০১:০৬, ২ ডিসেম্বর ২০২২

ব্যর্থতার দায়ভার নিয়ে পদত্যাগ মেক্সিকো কোচ মার্টিনোর

‘আমাদের এই ব্যর্থতা ও হতাশার জন্য প্রধানত আমিই দায়ী

‘আমাদের এই ব্যর্থতা ও হতাশার জন্য প্রধানত আমিই দায়ী। দায়িত্বপ্রাপ্ত ব্যক্তি হিসেবে এটি আমাকে অনেক দুঃখ দিয়েছে, এই ব্যর্থতার জন্য আমি সম্পূর্ণ দায়ী। রেফারি খেলা শেষের বাঁশি বাজানোর সঙ্গে সঙ্গেই আমার চুক্তি শেষ হয়ে গেছে এবং আর বেশি কিছু করার নেই।’ কথাগুলো জেরার্ডো ড্যানিয়েল টাটা মার্টিনোর।

চলমান কাতার বিশ্বকাপে বৃহস্পতিবার গ্রুপ পর্বের ম্যাচে সৌদি আরবকে ২-১ গোলে হারিয়ে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৪ পয়েন্ট অর্জন করেও দুর্ভাগ্যজনকভাবে দ্বিতীয় রাউন্ডে যেতে পারেনি লাতিন আমেরিকার দেশ মেক্সিকো। ১৯৭৮ আসরের পর এই প্রথম বিশ্বকাপ ফুটবলের প্রথম রাউন্ড থেকেই বাদ পড়ল ‘লা ট্রাইকালার’ এবং ১৩ নম্বর ফিফা র‌্যাঙ্কিংধারী মেক্সিকো।

আর সেই ব্যর্থতার দায়ভার নিজের কাঁধে নিয়ে মেক্সিকো জাতীয় ফুটবল দলের প্রধান কোচের পদ থেকে পদত্যাগ করেছেন মার্টিনো। সৌদি আরবের কাছে হারের পর ম্যাচ পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে উপরোক্ত মন্তব্য করেন ৬০ বছর বয়সী আর্জেন্টাইন এই কোচ। সৌদিকে হারিয়ে পোল্যান্ডের সঙ্গে সমান ৪ পয়েন্ট থাকার পরও গোল ব্যবধানে পিছিয়ে থাকায় গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায়ঘণ্টা বেজে যায় ১৭০ ও ১৯৮৬ বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালিস্ট মেক্সিকো।

আর্জেন্টিনার কাছে ২-০ গোলে হারের পরেও পোল্যান্ড সমান পয়েন্ট নিয়ে চলে যায় শেষ ১৬ তে। এক সময় নিজ দেশের জাতীয় দল আর্জেন্টিনারও কোচ ছিলেন মার্টিনো (২০১৪-২০১৬)। এর আগে ছিলেন প্যারাগুয়ের কোচ (২০০৭-২০১১)। ২০১৯ সালের জানুয়ারিতে দায়িত্ব নেন মেক্সিকোর। কিন্তু কোনো সাফল্য ছাড়াই একরাশ হতাশা নিয়েই বিদায় নিলেন তিনি! মেক্সিকোর ডাগআউটে মার্টিনো দাঁড়িয়েছেন ৬৬ ম্যাচে। দলকে জয় এনে দিয়েছেন ৪২ ম্যাচেই। ১২ ম্যাচে হেরেছেন, ড্র-ও করেছেন সমানসংখ্যক ম্যাচে। সাফল্যের শতকরা হার ৬৩.৬৪।
ক্লাব ফুটবলে আর্জেন্টিনা, প্যারাগুয়ে, স্পেন ও যুক্তরাষ্ট্রের মোট ১০টি ক্লাবে কোচিং করিয়েছেন অ্যাটাকিং মিডফিল্ডার হিসেবে আর্জেন্টিনার হয়ে মাত্র একটি ম্যাচ খেলা (১৯৯১ সালে) মার্টিনো। এই ক্লাবগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বিখ্যাত দুই ক্লাব হচ্ছে স্বদেশী নিউওয়েল ওল্ড বয়েজ (২০১২-১৩) এবং স্পেনের এফসি বার্সিলোনা (২০১৩-১৪)। আর্জেন্টিনা তার অধীনে দুবার রানার্সআপ হয় কোপা আমেরিকায় (২০১৫, ২০১৬)।

প্যারাগুয়েও তার অধীনে কোপা আমেরিকায় একবার রানার্সআপ হয় (২০১১)। নিজ দেশকে কোন শিরোপা এনে দিতে না পারলেও অবশ্য মেক্সিকোকে জিতিয়েছেন কনকাকাফ গোল্ডকাপ (২০১৯)।  এখন দেখার বিষয়, আগামীতে কোন্ দেশ অথবা কোন্ ক্লাবের কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন শুরু করেন মার্টিনো।

monarchmart
monarchmart