ঢাকা, বাংলাদেশ   শনিবার ২২ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১

সিঙ্গাপুরে নেওয়া হচ্ছে অভিনেতা সোহেল রানাকে

প্রকাশিত: ১৯:১৭, ২৮ অক্টোবর ২০২২

সিঙ্গাপুরে নেওয়া হচ্ছে অভিনেতা সোহেল রানাকে

অভিনেতা সোহেল রানা

অভিনেতা মাসুদ পারভেজ সোহেল রানার চোখে নতুন করে জটিলতা দেখা দিয়েছে। মঙ্গলবার (২৫ অক্টোবর) ঢাকার একটি হাসপাতালে তার চোখের সার্জারি হয়।

সেই সার্জারি করে সুস্থতার বদলে উল্টো জটিলতায় দেখা দেওয়ায় সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে নেওয়া হচ্ছে এই অভিনেতাকে।

খবরটি নিশ্চিত করেছেন মাসুদ পারভেজের ছেলে নির্মাতা-অভিনেতা মাশরুর পারভেজ বলেন, ‘ঢাকায় বাবার অপারেশনটা হয়েছে, সেটা সাকসেসফুল ছিলো না। বরং আরো জটিলতা দেখা দিয়েছে। এজন্য আমরা দ্রুত মাউন্ট এলিজাবেথে যোগাযোগ করি। রবিবার (৩০ অক্টোবর) আমরা সেখানে যাচ্ছি। বাবার সঙ্গে আমি এবং মাও (জিনাত বেগম) যাবো। সবার কাছে দোয়া চাই। ’

সোহেল রানার চোখের সমস্যার বিষয়ে মাশরুর জানান, এটাকে বলা হয় ক্যাটারাক্ট সার্জারি। এর আগেও তার ডান চোখে একই সার্জারি হয় মাউন্ট এলিজাবেথে। তারই রুটিন সার্জারি হিসেবে এবার সেটি ঢাকায় করানো হয়। যদিও তাতে হিতে বিপরীত হয়েছে।

এর আগে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছিলেন সোহেল রানা। সেখান থেকে সুস্থ হয়ে ৮ মাস ভালোই ছিলেন তিনি। এবার চোখ নিয়ে পড়েছেন নতুন সমস্যায়।

সোহেল রানার পারিবারিক নাম মাসুদ পারভেজ। চলচ্চিত্রে নায়ক হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে ‘সোহেল রানা’ নামে পরিচিত হন তিনি। ১৯৭২ সালে মাসুদ পারভেজ নামে চলচ্চিত্র প্রযোজনা করেন।  

বাংলাদেশের প্রথম পূর্ণাঙ্গ মুক্তিযুদ্ধের চলচ্চিত্র ‘ওরা ১১ জন’ সিনেমার প্রযোজক হিসেবে চলচ্চিত্র জগতে প্রবেশ তার। এটি পরিচালনা করেন চাষী নজরুল ইসলাম।

১৯৭৩ সালে কাজী আনোয়ার হোসেনের বিখ্যাত কাল্পনিক চরিত্র ‘মাসুদ রানা’র একটি গল্প অবলম্বনে ‘মাসুদ রানা’র নায়ক হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন এবং একই সিনেমার মাধ্যমে তিনি মাসুদ পারভেজ নামে পরিচালক হিসেবেও যাত্রা শুরু করেন। এরপর অসংখ্য সিনেমা তিনি উপহার দিয়েছেন। দীর্ঘ চলচ্চিত্র জীবনে সোহেল রানা তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেছেন।  

 

এমএস

সম্পর্কিত বিষয়:

×