ঢাকা, বাংলাদেশ   সোমবার ২৮ নভেম্বর ২০২২, ১৪ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

ইউএস ওপেনে অনিশ্চিত বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু

প্রকাশিত: ২৩:৪৫, ৩০ জুলাই ২০২০

ইউএস ওপেনে অনিশ্চিত বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু

জিএম মোস্তফা ॥ ইউএস ওপেনের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু। গত মৌসুমে এই টুর্নামেন্টের শিরোপা জিতেই বিশ্ব টেনিসের পাদপ্রদীপের আলোয় উঠে এসেছিলেন কানাডিয়ান টেনিসের এই প্রতিভাবান তারকা। ফাইনালে আমেরিকান টেনিসের জীবন্ত কিংবদন্তি সেরেনা উইলিয়ামসকে হারিয়ে ক্যারিয়ারের প্রথম মেজর শিরোপা জয়ের দেখা পেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু এবার আমেরিকার এই টুর্নামেন্টে বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কুর অংশগ্রহণ নিয়ে সংশয় তৈরি হয়েছে। করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘদিন ধরেই স্থগিত রয়েছে টেনিসের প্রায় সব ধরনের টুর্নামেন্ট। সবকিছু সঠিকভাবে এগুলে আগামী সপ্তাহ থেকেই আবারও কোর্টে গড়াবে টেনিস। পালের্মো ওপেন দিয়ে শুরু হবে ডব্লিউটিএ টেনিস। এরপর আগস্টের শেষ সপ্তাহে শুরু হবে ইউএস ওপেন। তার আগে শুরু হবে সিনসিনাত্তি ওপেন। কিন্তু ‘এল ইকুইপ’ তাদের এক প্রতিবেদনে বলছে সিনসিনাত্তি ওপেনে খেলার জন্য এখন পর্যন্ত নাম নিবন্ধন করেননি বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু। আর এর ফলে খুব সুস্পষ্টভাবেই বুঝা যায় যে, ইউএস ওপেনেও তিনি অনুপস্থিত থাকবেন। অথচ করোনাভাইরাসের কারণে লকডাউনে থাকার পর কোর্টে ফিরতে উন্মুখ হয়ে রয়েছেন বলে জানিয়েছিলেন আন্দ্রেস্কু। সেইসঙ্গে নিউইয়র্কের ফ্ল্যাশিং মিডোজে খেলার প্রত্যাশাও করেছিলেন তিনি। সেজন্য সম্প্রতি নিয়মিত অনুশীলনও করেছেন ইউএস ওপেনের চ্যাম্পিয়ন। হোম ওয়ার্কআউটের কিছু ছবি এবং ভিডিও সামাজিক যোগাযোগের জনপ্রিয় মাধ্যমগুলোতে পোস্টও করেছেন কানাডিয়ান টেনিসের তরুণ প্রতিভাবান এই খেলোয়াড়। কিন্তু তার অংশগ্রহণ এখন অনিশ্চয়তার ভেলায় ভাসছে। গত মাসেই ২০ বছরে পা দিয়েছেন বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু। অথচ এই বয়সেই বিশ্ব টেনিসের শীর্ষে উঠে এসেছেন তিনি। বিশেষ করে গত মৌসুমে তার পারফর্মেন্স ছিল প্রশংসনীয়। ২০১৮ সালের শেষের দিকেও র‌্যাঙ্কিংয়ের ২১০ নম্বরে ছিলেন তিনি। কিন্তু ইউএস ওপেনসহ ২০১৯ সালেই তিন শিরোপার দেখা পেয়েছেন এই কানাডিয়ান তারকা। শুরুটা করে ছিলেন বিএনপি পরিবাস ওপেনে প্রথম ট্রফি জিতে। এরপর রজার্স কাপ। আগস্টে এই টুর্নামেন্টের ফাইনালে সেরেনা উইলিয়ামসের বিপক্ষে জয় পান আন্দ্রেস্কু। সেটা জিতেই নতুন ইতিহাস গড়েছিলেন তিনি। ৫০ বছরের ইতিহাসে কানাডার প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে জাতীয় এই ট্রফি জয়ের স্বাদ পান বিয়াঙ্কা। এরপর ফ্ল্যাশিং মিডোয় শিরোপা জেতার গল্প। আর তাতেই ২০১৯ সালে সর্বোচ্চ অর্থ (৬ মিলিয়ন ইউএস ডলার) উপার্জনকারী প্রমীলা খেলোয়াড়ের তালিকায় নিজেকে শীর্ষে নিয়ে গেছেন তিনি। কাঁধের ইনজুরির কারণে এ বছর এখন পর্যন্ত কোর্টের বাইরে রয়েছেন এই তরুণী। শুধু বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু একা নন। সিনসিনাত্তি ওপেনে খেলছেন না সাবেক চ্যাম্পিয়ন নাওমি ওসাকাও। জাপানের তরুণ এই প্রতিভাবান তারকাও বিস্ফোরক ঘটেছিল এই ইউএস ওপেন জয়ের মাধ্যমে। ২০১৮ সালে এই টুর্নামেন্টের চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন ওসাকা। মজার ব্যাপার হলো জাপানের তরুণ প্রতিভাবান তারকাও ফাইনালে হারিয়ে ছিলেন অভিজ্ঞ সেরেনা উইলিয়ামসকে। নাওমি ওসাকা ইউএস ওপেনের পর বাজিমাত করেন অস্ট্রেলিয়ান ওপেনেও। ব্যাক টু ব্যাক মেজর গ্র্যান্ডস্লাম টুর্নামেন্ট জয়ের অবিস্মরণীয় কীর্তি গড়েন তিনি। কিন্তু এর পরের সময়টাতে আর নিজেকে সেভাবে মেলে ধরতে পারেননি এই জাপানী তারকা। চলতি মৌসুমের প্রথম গ্র্যান্ডস্লাম টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণ করেছিলেন ওসাকা। কিন্তু প্রত্যাশিত পারফর্ম করতে পারেননি। মেলবোর্নের তৃতীয় রাউন্ড থেকেই ছিটকে যান নাওমি ওসাকা। আন্দ্রেস্কু-ওসাকার মতো ইউএস ওপেনে খেলতে অনীহা প্রকাশ করেছেন সিমোনা হ্যালেপও। রোমানিয়ান তারকা করোনাভাইরাসের পর শুরু হতে যাওয়া প্রথম টুর্নামেন্ট পালের্মো ওপেনে খেলার কথা দিয়েছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সবাইকে অবাক করে টুর্নামেন্ট থেকে নিজের নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছেন সিমোনা হ্যালেপ। তবে ইউএস ওপেনে ইতোমধ্যেই খেলার ঘোষণা দিয়েছেন আমেরিকান টেনিসের জীবন্ত কিংবদন্তি সেরেনা উইলিয়ামস। তার সঙ্গে খেলার কথা জানিয়েছেন পেত্রা মার্টিচ এবং কিয়াং ওয়াং।
monarchmart
monarchmart